‘অন্তত এইটুকু সম্মান তো পেতে পারি’

0

 

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) টি-টোয়েন্টির আসন্ন আসরকে ঘীরে নিজেদের মতো করে দল সাজাচ্ছে অংশগ্রহণকারী দলগুলো। তবে দল নিয়ে এখনি ভাবছে না বরিশাল বুলস। গত আসরে দলের আইকন ক্রিকেটার ছিলেন বাংলাদেশ টেস্ট দলের অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। বিপিএল চলাকালীন দলের ক্রিকেটারদের সঙ্গে বরিশাল বুলসের মালিক পক্ষের সাথে সম্পর্কের টানা-পোড়াও লেগেছিলো যার প্রভাব পড়েছে মাঠেও।

Also Read - অনুশীলনে ইনজুরিতে পড়েছেন সাকিব

তবে এবারের আসরে আইকন ক্রিকেটার হিসেবে মুশফিককে পছন্দ নন বলে জানান বরিশাল বুলসের অন্যতম কর্ণধার এম এ আউয়াল আউয়াল চৌধুরী। তিনি জানান, মুশফিকের কারণেই ভালো ফলাফল পায়নি বরিশাল বুলস। শুধু মুশফিকের অধিনায়কত্বই নয়, প্রশ্ন তুলেছেন দলের ক্রিকেটারদের প্রতি মুশফিকের দায়িত্ববোধ নিয়েও।

বাংলাদেশ টেস্ট দলের সফল অধিনায়ককে নিয়ে এমন মন্তব্য কতটা রুচিকর ছিলো সেটা নিয়ে ঝড় উঠেছে সামাজিক মাধ্যমগুলোতে। মুশফিককে বলা হয় দলের সবচেয়ে পরিশ্রমি ক্রিকেটার। দলের অনুশীলন থাকুক কিংবা নাই থাকুক সবার আগে মাঠে হাজির হয়ে অনুশীলনে নেমে পড়েন দলের এই সফল উইকেট-রক্ষক ব্যাটসম্যান।

এমন দায়িত্ববান ক্রিকেটারের সম্পর্কে তার দায়িত্বজ্ঞান নিয়ে প্রশ্ন তোলাতে বিব্রত হয়েছেন পুরো ক্রিকেট জাতিই। নিজের সম্পর্কে এমন মন্তব্য শুনে হতাশা প্রকাশ করেছেন মুশফিক। ব্যাপারটি জানা মাত্রই বিসিবিকে বিষয়টি জানান খোদ মুশফিক। পরবর্তীতে সংবাদ সম্মেলন করেন মুশফিক। সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েন মুশফিক। তিনি বলেন, দীর্ঘদিন দলের হয়ে খেলার সুবাদে অন্তত এটুকু সম্মান তো পেতে পারেন।

“আমার সম্পর্কে যেকোন টিম মালিক এটুকু বলতে পারে, আমি খেলোয়াড় হিসেবে ভালো না কিংবা অন্যকিছু। আমার কোন দায়িত্বজ্ঞান নেই, খেলোয়াড়দের উৎসাহ দিতে পারি না, টিম মিটিংয়ে কথা বলতে পারি না বা আমি নিয়ম-শৃঙ্খলা মেনে চলি না।”

“সেটা আমার পাশে মল্লিক ভাই আছে, সুজন ভাই আছে বা আমাদের দলের খেলোয়াড়রা জানে বা বাংলাদেশের অনেকেই জানে আমি কেমন এবং কতটুকু করতে পারি। তিনি যে ভাষ্য (বরিশাল বুলসের কর্ণধার) গুলো দিয়েছেন সেগুলো খুবই খারাপ লেগেছে।”

“এই জন্যই আমাদের গার্ডিয়ানকে জানিয়েছি, উনারা ব্যাপারটা দেখবেন বলেছেন। এটা শুধু আজকে আমার সাথে হয়েছে, অন্যদিন যে আরেকজন ক্রিকেটারের সঙ্গে হবে না তার গ্যারান্টি কি।”

“ক্রিকেট খেলছি দীর্ঘ ১৭ বছর ধরে এবং আন্তর্জাতিক খেলছি ১২ বছর ধরে। দীর্ঘদিন জাতীয় দলের খেলার সুবাদে, অন্তত এইটুকু সম্মান তো পেতে পারি।”

-আফরিদ মাহমুদ রিফাত, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটাইম ডট কম