“অস্ট্রেলিয়া সিরিজ হওয়াটা জরুরি”

0

 

 

Also Read - অধিনায়কত্ব নিয়ে উচ্চাভিলাষী নন রিয়াদ

ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (সিপিএল) খেলতে যে কোনো সময়েই উড়াল দিবেন দেশসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। তবে টুর্নামেন্টের মাঝ পথেই ফিরতে হবে এই ক্রিকেটারকে। বাংলাদেশের সাথে দুই টেস্টের সিরিজ খেলতে আগামী ১৮ আগস্ট ঢাকায় আাসার কথা অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের। কিন্তু বেতন সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে বোর্ডের সাথে ক্রিকেটারদের দ্বন্দ্বে সেটি যেন এখনো নিশ্চিত নয়। তবে সাকিবের বিশ্বাস অস্ট্রেলিয়া আসবে।

রবিবার (৩০ জুলাই) মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুশীলন শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হোন সাকিব। আসন্ন অস্ট্রেলিয়া সিরিজ নিয়ে এই ক্রিকেটার বলেন, “আশা করি অস্ট্রেলিয়া আসবে। বড় একটা বিরতি গেল। এই সিরিজ দিয়েই মৌসুম শুরু হবে। আশা করি ভালো একটা সিরিজ হবে।” 

অস্ট্রেলিয়া সিরিজের পরেই বাংলাদেশের দক্ষিণ আফ্রিকা সফর। সেখানে পূর্ণাজ্ঞ সিরিজ খেলবে টাইগাররা। অস্ট্রেলিয়া না আসলে অনেক বিরতির পর আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলতে হবে বাংলাদেশকে। যা মোটেই সুখকর হবে না বলে মনে করেন সাকিব, “অস্ট্রেলিয়া না আসলে আমাদের সরাসরি সাউথ আফ্রিকায় গিয়ে খেলতে হবে। যেটা আমাদের জন্য একটু কঠিন হয়ে যাবে। সাউথ আফ্রিকা সফরে ভালো করার জন্য অস্ট্রেলিয়া সিরিজ হওয়াটা জরুরি।”

বাংলাদেশের হয়ে ৪৯ টি টেস্ট খেলেছেন সাকিব। তবে এখন পর্যন্ত অজিদের বিপক্ষে টেস্ট খেলা হয় নি এই ক্রিকেটারের। অস্ট্রেলিয়া আসলে নিজের অর্ধশত টেস্টে মাঠে নামবেন সাকিব। এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “গত কিছুদিন ধরে আমরা অনেক টেস্ট খেলেছি। না হলে ৩০টার মতো টেস্ট থাকতো আমার। আসলে অস্ট্রেলিয়া সিরিজটা হওয়া দরকার। আশা করি অস্ট্রেলিয়া আসবে এবং ভালো একটা সিারজ হবে।”