‘নো’ বলে ১৩ উইকেট!

0

Morkels-noball-costs-Proteas-key-wicket-still

একটি ‘নো’ বল যখন পুরো ম্যাচের দৃশ্যপট বদলে দিতে পারে তখন সেই ‘নো’ বলের যন্ত্রণটা বোধহয় বোলারের চেয়ে আর কেউ বেশি অনুভব করতে পারে না। তবে এখানে দৃশ্যপট উলটো দক্ষিণ আফ্রিকার পেসার মরনে মরকেলের জন্য, তবে এই ‘নো বল নিয়ে রয়েছে আক্ষেপও এই প্রোটিয়া পেসারের।

এর আগে ১২টি ‘নো’ বলে ১২টি উইকেট থেকে বঞ্চিত হয়েছিলেন মরকেল। শেষটি এসে যোগ হয় ইংল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম টেস্টে। বেন স্টোকসকে যখন আউট করেন তখনি পেছন থেকে ‘নো’ বলের সিগন্যাল দেন আম্পায়ার। টেস্ট ক্রিকেটের ক্যারিয়ারে এই ১৩টি নো বল না হলে, নামের পাশে যোগ হতে পারতো আরো ১৩টি উইকেট।

Also Read - টি-টোয়েন্টি অলরাউন্ডারের সেরা পাঁচে রিয়াদ

নটিংহ্যামে দ্বিতীয় টেস্টের আগে ম্যাচ নিয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন এই প্রোটিয়া পেসার। নিজের এই বিরল রেকর্ডের কথা শুনে আক্ষেপের পাশাপাশি বিষয়টিকে ইতিবাচক হিসেবে দেখেছেন মরকেল। ” বিশ্বরেকর্ড? ধন্যবাদ (হাসি)। কাউকে না কাউকে তো এই রেকর্ডের মালিক হতেই হতো। তবে এই ১৩টি উইকেট নামের পাশে যোগ হলে, অবশ্যই ভালো লাগতো।”

“এমন না যে এটিই আমার ক্যারিয়ারের প্রথম ‘নো’ বল এবং এমন না যে এক ‘নো’ বল আমার ক্যারিয়ার শেষ করে দিবে।”

মরকেল আরো যোগ করেন, “এটার জন্য আর কোন অজুহাত হয় না তবে এটিকে আপনি নিয়ন্ত্রণ করতে পারেন। এটা খেলারই অংশ। এটা নিয়ে অবশ্যই আরো বেশি কাজ করবো, যাতে করে নিয়ন্ত্রণ করতে পারি।”

“দুর্ভাগ্যবশত, আমি ঐ বলটি নো বল করে ফেলেছি। আপনি কখনোই চাইবেন না কোয়ালিটি খেলোয়াড়কে নতুন প্রাণ দিতে, যার কারণে পরবর্তীতে আপনাকে খেসারত দিতে হয়। তখন আসলে একটু উত্তেজিত হয়ে পড়েছিলাম। পুরোনো, নরম বল দিয়ে কিছু করতে চেয়েছিলাম, কিন্তু ওভারস্টেপ করে বসলাম।”