হেইডেনকে আঘাত করতে চাইতেন শোয়েব আখতার!

0

ভিন্ন ভূমিকায় নিজেদের সময়ে ম্যাথু হেইডেন আর শোয়েব আখতার ছিলেন সেরাদের সেরা। একই সময়ে খেলতে গিয়ে বেশ কয়েকবার পরস্পরের মুখোমুখিও হয়েছিলেন অস্ট্রেলীয় ব্যাটসম্যান ও পাকিস্তানি বোলার। তখন ব্যাট হাতে হেইডেন যেমন হতে চাইতেন বিধ্বংসী, একইভাবে আগ্রাসী মনোভাব নিয়ে গোলার মতো বল ছুঁড়ে মারতেন শোয়েবও।

বলা হয়ে থাকে, ক্রিকেট ইতিহাসে বল ডেলিভারি করার মাধ্যমে সবচেয়ে বেশিসংখ্যক বার ব্যাটসম্যানকে আহত করার রেকর্ডটি শোয়েব আখতারের, আর সেই সংখ্যাটি হল ১৯। সম্প্রতি এই বিষয়টি নিজের অফিশিয়াল টুইটার একাউন্টে তুলে ধরে পাকিস্তানি পেসার জানান, কাকে আঘাত করতে সবচেয়ে বেশি আনন্দ পেতেন তিনি!

Also Read - টেস্ট থেকে অবসরের গুঞ্জন উড়িয়ে দিলেন আমির

টুইটারে শোয়েব বলেন, ‘খেলোয়াড়ি জীবনে ১৯ জন ক্রিকেটার আমার বলে আহত হয়ে মাঠ ছেড়েছে। ব্যাটসম্যানদের আঘাত করাটা কখনও আমি উপভোগ করতাম না। তবে একজন ব্যতিক্রম। একজন ক্রিকেটারকে খুব করে আঘাত করতে চাইতাম। বলেন তো সে কে?’

বল দিয়ে ব্যাটসম্যানদের কুপোকাতের চেষ্টায় আঘাত করতে মোটেও ভালো লাগত না শোয়েবের, কিন্তু যে-ই একজনের ক্ষেত্রে লাগত- তার নামও জানিয়েছেন রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস! তিনি জানান, ‘সেই নামটা হলো ম্যাথু হেইডেন! যাকে আমি দিন-রাত, প্রত্যেকেটা ম্যাচ, প্র্যাকটিস ম্যাচ, সব সময় আঘাত করতে চাইতাম! এখন কিন্তু সে আমার সেরা বন্ধু।’

মাঠের লড়াইয়ে বর্তমান সময়ের ‘দুই বন্ধু’ অবশ্য তপ্ততার পরিচয় দিয়ে গেছেন সবসময়ই। পাকিস্তান অস্ট্রেলিয়া মুখোমুখি হলেই স্লেজিংয়ে মত্ত হতেন দুজন। সেই স্লেজিংকে আবার ঘায়েল করা হতো বলকে সীমানা ছাড়া করে, কিংবা বড় বড় বাউন্সারে! ১৯৯৯-২০০০, ২০০২-০৩ ও ২০০৪-০৫ মৌসুমে আলোচনার শীর্ষে ছিল হেইডেন-শোয়েবের এমন কীর্তিকলাপ।

  • সিয়াম চৌধুরী, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটাইম