সাজঘরে সাকিব-তামিম দুজনই

0

ঢাকা টেস্টের প্রথম দিনের খেলায় কিছুটা প্রতিরোধ গড়ে তুলেছে স্বাগতিক বাংলাদেশ। সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবালের ব্যাটে চড়ে ম্যাচের শুরুর বিপর্যয় কাটিয়ে উঠেছে টাইগাররা। যদিও চা বিরতির আগে সাজঘরে ফিরেছেন সাকিব-তামিম দুজনই।

এর আগে অবশ্য নিজেদের পঞ্চাশতম টেস্ট খেলতে নামা দুই বন্ধু তুলে নিয়েছেন হাফসেঞ্চুরি। চতুর্থ উইকেটে দুজনে গড়েছেন ১৫৫ রানের গুরুত্বপূর্ণ পার্টনারশিপ। দলীয় ১৬৫ রানের মাথায় গ্লেন ম্যাক্সওয়েলের লাফিয়ে ওঠা বল তামিমের ব্যাটে লেগে ডেভিড ওয়ার্নারের হাতে পৌঁছালে ইতি ঘটে বাঁহাতি ওপেনারের ৭১ রানের ইনিংসটির। এর কিছুক্ষণ পর তামিমের পথ ধরেন সাকিবও। ব্যক্তিগত ৮৪ ও দলীয় ১৮৮ রানের মাথায় নাথান লায়নের বলে প্রতিপক্ষ অধিনায়ক স্টিভ স্মিথের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে সম্ভাবনাময় ইনিংসের ইতি ঘটান তিনি। বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার ক্রিজ ছেড়েছেন অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম ও নাসির হোসেনকে মাঠে রেখে। মুশফিক ও নাসির অপরাজিত আছেন যথাক্রমে ১২ ও ০ রানে।

Also Read - আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন সানির স্ত্রী!

ঢাকা টেস্টের একাদশ গঠন করতে কোচের ঘুম উধাও হয়ে গিয়েছিল। টুইট করে সেটি সবাইকে জানিয়েছিলেনও শ্রীলঙ্কান কোচ হাথুরুসিংহে। টেস্টের টস-পর্ব শেষে একাদশ দেখে অম্লমধুর অনুভূতি নিয়ে সবাই যখন খেলা দেখতে বসবেন, তখনই তাসের ঘরের মতো ভেঙে যাওয়ার ইঙ্গিত দিলো টাইগারদের ব্যাটিং লাইনআপ। ১০ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে তেড়েফুঁড়ে খেলার মানসিকতা যখন অভিশাপে রূপ নিয়ে হাথুরুসিংহের সমালোচনা করার সুযোগ দিবে ক্রিকেট সমর্থকদের, ঠিক তখনই দলের হাল ধরলেন সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবাল। নিজেদের পঞ্চাশতম ম্যাচে ফিফটি হাঁকিয়ে তাসের ঘরের দেয়াল হয়ে ভাঙনই বাঁচালেন না শুধু, বাঁচালেন হাথুরুসিংহেকেও।

দিনের শুরুর ব্যর্থতা ভুলে আপাতত ঢাকা টেস্টের প্রথম দিনের প্রধান গল্প চতুর্থ উইকেটে সাকিব-তামিমের ১৫৫ রানের অসাধারণ পার্টনারশিপ। শুধু দিনের খেলা কিংবা ম্যাচকেই নয়, এই পার্টনারশিপের কোলে চড়ে বেঁচে আছে যে বাংলাদেশের ভালো কিছু করার স্বপ্নটাও।

সংক্ষিপ্ত স্কোর (প্রথম দিনের চা বিরতি শেষে)

টস- বাংলাদেশ

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস- ১৯০/৫ (৫৬ ওভার)

সাকিব ৮৪ (১৩৩), তামিম ৭১ (১৪৪)

কামিন্স ১৪-১-৫১-৩, লায়ন ১৯-৩-৫৯-১

  • সিয়াম চৌধুরী, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটাইম