জাতীয় দলের লক্ষ্যেই অনূর্ধ্ব-১৭ দলের প্রস্তুতি

0

বাংলাদেশ জাতীয় দল পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে অবস্থান করছে দক্ষিণ আফ্রিকায়। অন্যদিকে অনূর্ধ্ব-১৯ দল সিলেটে আফগানিস্তান অনূর্ধ্ব-১৯ দলের বিপক্ষে খেলছে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ। জাতীয় পর্যায়ের প্রধান দুটি দলের ব্যস্ততার সময়ে বসে নেই বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৭ দল।

BCB (1)

রাজধানীর মিরপুর জাতীয় ক্রিকেট একাডেমিতে চলছে দলটির প্রস্তুতি ক্যাম্প। আর এই ক্যাম্পের খেলোয়াড়দের মূলত গড়ে তোলা হচ্ছে ভবিষ্যৎ জাতীয় দলের জন্যই।

Also Read - আউট হয়েও যেখানে আমলা অনন্য

ক্যাম্পের খেলোয়াড়দের দক্ষতা ও কৌশলেই বিশেষ গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে- এমনটাই জানিয়েছেন অনূর্ধ্ব-১৭ দলের প্রধান কোচ সোহেল ইসলাম। তিনি বলেন,  প্রধানত অনূর্ধ্ব-১৭ তে আমরা দুইটি বিষয়ের উপরে জোর দেই, একটা হচ্ছে স্কিল আরেকটা ট্যাকটিক্যাল নলেজ। এখানে আমরা যে অনুশীলনটা করাই, এটা জাতীয় পর্যায়ের ক্রাইটেরিয়া অনুসরণ করেই করা হয়। তাতে করে ছোটবেলা থেকেই তারা একটি প্রক্রিয়ার মধ্যে দিয়ে বেড়ে উঠে।

অনূর্ধ্ব-১৭ দলের খেলোয়াড়দের অনূর্ধ্ব-১৯ দলে খেলানোর মাধ্যমে জাতীয় দলের জন্য যোগ্য করে তোলাই ক্যাম্পের মূল লক্ষ্য।

সোহেল ইসলাম বলেন, আমাদের লক্ষ্য থাকে জাতীয় দলে খেলানোর। জাতীয় দলের লক্ষ্যেই তাদের গড়ে তুলতে চাই। এটা একটা প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যায়। যেমন অনূর্ধ্ব-১৭ থেকে শিখে তারা অনূর্ধ্ব-১৯ এ যাবে।

বিভাগীয় পর্যায়ে অনূর্ধ্ব-১৬ পর্যায়ে বাছাইকৃতদের নিয়েই অনূর্ধ্ব-১৭ দলের ক্যাম্প করা হয় জানিয়ে দলটির কোচ জানান বাছাই প্রক্রিয়ার কথা। তিনি বলেন, এটা আমাদের জাতীয় কর্মসূচি যার শুরুটা আমরা বিভাগীয় পর্যায় থেকে শুরু করি। গেল বছর বিভাগীয় পর্যায়ে অনূর্ধ্ব-১৬ তে যারা সেরা বলে বিবেচিত হয়েছে সেখান থেকে বাছাই করে ৪২ জনের দল দেয়া হয়। সেখান থেকে আবার আমরা বাছাই করে পরবর্তীতে একটা ন্যাশনাল স্কোয়াড তৈরি করি। এখানে ২ বছর মেয়াদে প্রশিক্ষণ শেষে এরা সবাই অনূর্ধ্ব-১৯ দলে উত্তীর্ণ হবে।

জাতীয় দলের মতো ব্যস্ত সময় কাটে অনূর্ধ্ব-১৯ দলেরও। তবে সেই হিসেবে কার্যত ‘বেকার’ অনূর্ধ্ব-১৭ দল। সারা বছরে বলার মতো একটি সিরিজেইই অংশ নেয় দলটি, দ্বিপাক্ষিক যে সিরিজে বাংলাদেশি কিশোরদের প্রতিপক্ষ থাকে ভারতের ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন অব ওয়েস্ট বেঙ্গল দল। সিরিজটি অনুষ্ঠিত হয় হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে।

  • সিয়াম চৌধুরী, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটাইম