সাকিবের অনুপস্থিতিকে স্বাভাবিক ব্যাপার হিসেবেই দেখছেন সুজন

0

বাংলাদেশি ক্রিকেটারদের মধ্যে সাকিব আল হাসানই থাকেন টানা ক্রিকেটের মধ্যে। দেশের জার্সি গায়ে প্রতিনিধিত্ব করার তাগিদ তো আছেই, বিশ্বের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার হিসেবে পূরণ করতে হয় বিভিন্ন ঘরোয়া লিগের চাহিদাও। আর যার কারণে সাকিবের মধ্যে ক্লান্তি ভর করে অন্যদের চেয়ে একটু বেশিই।

অবশেষে ভিসা পেলেন সাকিব

ক্লান্তি দূর করেই হয়ত, টেস্ট ক্রিকেট থেকে ৬ মাসের বিশ্রাম চেয়েছেন সাকিব। ক্রিকেটের এই দীর্ঘতম ভার্শনে খেলা যথেষ্ট ধৈর্যের ব্যাপার। টানা ক্রিকেটের মধ্যে থাকা সাকিবের বিশ্রাম চাওয়ার কারণ হতে পারে তাই একঘেয়েমি কাটানোর উদ্দেশ্যই।

Also Read - গুরুতর নয় তামিম-সৌম্যর ইনজুরিঃ ফিজিও

সাকিবের আবেদন মঞ্জুর করে আপাতত দক্ষিণ আফ্রিকা ও বাংলাদেশের মধ্যকার আসন্ন দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজ থেকে তাকে বিশ্রাম দিয়েছে বিসিবি। তবে অনেকেই মনে করছেন, সাকিবের না থাকা বাংলাদেশের জন্য অনেক বড় এক দুশ্চিন্তার কারণ।

বিসিবি কর্মকর্তা ও সাবেক খ্যাতিমান ক্রিকেটার খালেদ মাহমুদ সুজনের মতে, সাকিব যে দলেরই হয়ে খেলুন না কেন- তার রয়েছে আলাদা মহিমা। তিনি বলেন, সাকিব বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার, যে কোনো দেশের জন্যই প্লাস পয়েন্ট। আসন্ন টেস্টে সাকিব থাকলে অবশ্যই সেটা অনেক ভালো হতো, সাকিব নেই তারপরও আমাদের ভালো করা উচিত বলে আমি বিশ্বাস করি।

শনিবার রাজধানীর কৃষিবিদ ইন্সটিটিউটে এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হলে এমন মন্তব্য করেন সুজন।

এদিকে অনেকেই সাকিবের বিশ্রাম নেওয়ার কারণে বর্তমান বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারের উপর নাখোশ। তবে সুজন একে দেখছেন স্বাভাবিক ব্যাপার হিসেবেই।

সাবেক এই পেস অলরাউন্ডার বলেন, সাকিব জানে যে ওর বিশ্রাম প্রয়োজন। হয়তো এজন্যই বিশ্রামটি বোর্ডের কাছে চাওয়া এবং বোর্ডও রাজি হয়েছে। আপনার সেরা খেলোয়াড়টিকে ছাড়া আপনাকে অনেক সময় খেলতে হতে পারে। ক্রিকেটারদের ইনজুরি হতে পারে, অনেক কিছু হতে পারে।

তিনি আরও বলেন, আমরা যদি ওইভাবে চিন্তা করি যে সাকিব একটা সমস্যার কারণে খেলতে পারছে না, তাহলে সেটা স্বাভাবিক।

  • সিয়াম চৌধুরী, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটাইম