আনুষ্ঠানিকভাবে এমসিসির বিশ্ব কমিটিতে সাকিব

0

কয়েকদিন আগে সাকিব আল হাসান নিজেই জানিয়েছিলেন, ঐতিহ্যবাহী এমসিসি ক্রিকেট ক্লাবের বিশ্ব ক্রিকেট একাদশে তার আমন্ত্রণ পাওয়া ও অন্তর্ভুক্তির কথা। বিষয়টি তখন নিশ্চিত হওয়া গিয়েছিল এমসিসি তথা মেরিলিবোন ক্রিকেট ক্লাবের ওয়েবসাইটেও। অপেক্ষা ছিল কেবল আনুষ্ঠানিক ঘোষণার। এবার এল সেটিও। [আরও পড়ুন: বাংলাদেশ সহজ দল নয়ঃ ইমরান তাহির]

টেস্ট থেকে ছয় মাসের বিশ্রাম চান সাকিব

সম্প্রতি এমসিসির পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হয় সাকিবকে বিশ্ব ক্রিকেট কমিটিতে নিয়োগ দেওয়ার কথা। সাকিব ছাড়াও বিশ্ব ক্রিকেট কমিটিতে নিয়োগ পেয়েছেন আরও তিনজন। এরা হলেন- নিউজিল্যান্ড মহিলা ক্রিকেট দলের অধিনায়ক সুজি ব্যাটস, ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক পেসার ও বর্তমান ক্রিকেট বিশ্লেষক ইয়ান বিশপ ও শ্রীলঙ্কা জাতীয় দলের সাবেক ক্রিকেটার ও আইসিসি এলিট প্যানেলের বর্তমান আম্পায়ার কুমার ধর্মসেনা।

Also Read - বাংলাদেশ সহজ দল নয়ঃ তাহির

একইসাথে আনুষ্ঠানিকভাবে কমিটির চেয়ারম্যানের দায়িত্ব বর্তেছে সাবেক ইংলিশ ব্যাটসম্যান মাইক গ্যাটিংয়ের কাঁধে। সিডনিতে অদল-বদল আসা কমিটির প্রথম সভা অনুষ্ঠিত হবে আগামী বছরের ৯ ও ১০ জানুয়ারি।

প্রাচীন ও ঐতিহাসিক মেরিলিবোন ক্রিকেট ক্লাবের বিশ্ব ক্রিকেট কমিটিতে থাকতে পারা যেকোনো খেলোয়াড় ও তার দেশের জন্যই গর্বের বিষয়। মূলত কিংবদন্তী খেলোয়াড়দের সম্মানিত করার একটি প্রয়াস হিসেবেই দেখা হয় ক্লাব সদস্য হিসেবে অন্তর্ভুক্তিকে। সাকিবই প্রথম এবং একমাত্র বাংলাদেশি, যিনি এমসিসির বিশ্ব ক্রিকেট কমিটিতে নিয়োগ পেলেন।

সাকিব প্রসঙ্গে কমিটির নতুন চেয়ারম্যান মাইক গ্যাটিং বলেন, ‘কমিটিতে যুক্ত হওয়া প্রথম বাংলাদেশি সাকিব। ঘরোয়া এবং আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সব ফরম্যাটে তার বিশ্ব কাঁপানোর অভিজ্ঞতা আছে। আমরা ভবিষ্যতে তার কাছ থেকে আরও অবদান পাওয়ার প্রত্যাশা করি।’

এর আগে গত সপ্তাহে সাকিবকে এমসিসি থেকে পাঠানো ইমেইলের ছবি জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে সংযুক্ত করে বিশ্বের অন্যতম সেরা বাংলাদেশি অলরাউন্ডার লিখেছিলেন, ‘মর্যাদাপূর্ণ মেরিলিবোন ক্রিকেট ক্লাব ওয়ার্ল্ড ক্রিকেট কমিটির সদস্য হিসেবে মনোনীত করায় আমি সত্যিই অনেক আনন্দ বোধ করছি। আমাকে সম্মানিত করার জন্য আপনাদেরকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’

  • সিয়াম চৌধুরী, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটাইম