SCORE

Trending Now

আরিফুলের ব্যাটিং তাণ্ডবে শ্বাসরুদ্ধকর জয় খুলনার

Share Button

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) টি-টোয়েন্টির ৫ম আসরের ঢাকা পর্বের শেষদিনের প্রথম ম্যাচে আরিফুল হকের দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে ২ উইকেটের শ্বাসরুদ্ধকর জয় পায় খুলনা টাইটান্স।

আরিফুল ব্যাটিং নৈপুণ্যে শ্বাসরুদ্ধকর জয় খুলনা

এর আগে টসে জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন খুলনা টাইটান্সের অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। উভয় দলই দুই পরিবর্তন নিয়ে মাঠে নামে। চোটের কারণে খেলতে না পারা সিমন্সের বদলি হিসেবে দলে ভিড়িয়েছে ডুয়েন স্মিথকে। টস জিতে বোলিংয়ের শুরুটা দারুণ করে খুলনা।

Also Read - স্মিথ-ওয়ার্নারদের পরামর্শক উসাইন বোল্ট!

দলীয় ৬ রানের মধ্যেই মুমিনুল হক ও ড্যানিয়েলকে ফেরায় জুনায়েদ খান। গত দুই ম্যাচে রান পাওয়া জাকির হাসান এই ম্যাচে ফিরে যান কোন রান না করেই। দলীয় ২১ রানে ৩ উইকেট হারালে রাজশাহীর হয়ে হাল ধরেন স্মিথ ও উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম।

বিপিএলের এবারের আসরে ব্যাট হাতে খুব একটা ভালো না কাটলেও এই ম্যাচে শুরু থেকেই ভালো কিছু করার ইঙ্গিত দিয়েছিলেন মুশফিক। অন্যদিকে এবারের আসরে প্রথম ম্যাচ খেলতে নামা স্মিথও ছিলেন দুর্দান্ত। দু’জনের ব্যাটে বড় স্কোর করার পথে হাটে রাজশাহী কিংস। প্রথম ম্যাচেই অর্ধশতক হাঁকান স্মিথ।

ব্যক্তিগত ৬২ রান করে আফিফের বলে আউট হন স্মিথ। মুশফিক-স্মিথের গড়া ৭৬ রানের জুটি ভাঙলে ফ্র্যাঙ্কলিনকে নিয়ে ম্যাচে ফেরার চেষ্টা চালিয়ে যান মুশফিক। স্মিথের পাশাপাশি ফিফটি করেন মুশফিকও (৫৫)। শেষদিকে ফ্র্যাঙ্কলিনের অপরাজিত ২৯ রানের উপর ভর করে ১৬৬ রান সংগ্রহ করে রাজশাহী। খুলনার হয়ে একাই ৪ উইকেট নেন জুনায়েদ খান।

১৬৭ রানের টার্গেটে ব্যাটিং করতে নেমে শুরুতেই উইকেট হারায় খুলনা। ৪ রান করা ওয়ালটনকে ফেরায় সামি। রাজশাহীকে দ্বিতীয় উইকেটও এনে দেন সামি; ফেরান প্রসন্নকে। দ্রুত দুই উইকেট পড়লেও দলকে ম্যাচে ফেরায় খুলনার অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ। রাইলি রুশোকে সঙ্গে নিয়ে দলকে ম্যাচ জয়ের স্বপ্ন দেখান রিয়াদ।

খুলনার অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ তুলে নেন ফিফটি। দলীয় ৮০ রানে ২০ রান করা রুশোকে ফেরান মিরাজ; ৫ রান যোগ করতেই সাজঘরে ফিরে যান আফিফ হোসেন। ৫৬ রান করা মাহমুদউল্লাহ হোসেন আলীর বলে বোল্ড হয়ে সাজঘরে ফিরলে ম্যাচ থেকে খানিকটা পিছিয়ে যায় খুলনা।

অধিনায়কের বিদায়ের পর দলীয় রানের খাতায় ৭ রান যোগ করতেই সাজঘরে ফিরেন নাজমুল শান্ত (৪)। ১২ রান করে বিদায় নেন ব্র্যাথওয়েটও। তার বিদায়ে খুলনা একপ্রকার ছিটকে যায় ম্যাচ থেকে। তবে শেষদিকে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দেন আরিফুল হক। ১৮তম ওভারে হোসেন আলীর বলে ১৮ রান নিয়ে ম্যাচটি নিজেদের দখলের নিয়ে আসে আরিফুল।

শেষপর্যন্ত আরিফুলের অপরাজিত ১৯ বলে ৪৩ রানের কল্যাণে ২ উইকেটের শ্বাসরুদ্ধকর জয় খুলনা। রাজশাহীর হয়ে ৩টি উইকেট নেন মোহাম্মদ সামি।

স্কোরকার্ডঃ

রাজশাহী কিংস ১৬৬/৮ (ওভার ২০)

স্মিথ ৬২, মুশফিক ৫৫ঃ জুনায়েদ ৪-২৭

খুলনা টাইটান্স ১৬৮/৮ (ওভার ১৯.২)

মাহমুদউল্লাহ ৫৬, আরিফুল ৪৩*: সামি ২৯-৩

ফলাফলঃ ২ উইকেটে জয়ী খুলনা।

ম্যাচ সেরাঃ আরিফুল হক (খুলনা টাইটান্স)

আরো পড়ুনঃ স্মিথ-ওয়ার্নারদের পরামর্শক উসাইন বোল্ট!

Related Articles

ভারত, নেপালের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ

‘আমার আজেবাজে জিদ নেই’

‘চ্যাম্পিয়নের মতোই খেলেছি’

কুমিল্লাকে কারণ দর্শানোর নোটিশ বিসিবির

পাইবাসকে চান না মুশফিক-সাকিব-মাশরাফি