SCORE

Trending Now

উইকেটের সমালোচনার জন্য তামিমকে বিসিবির চিঠি

Share Button

চলছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ ( বিপিএল ) এর পঞ্চম আসরের শেষ দিকের খেলা। সিলেটে শুরু হয়ে ঢাকা চট্টগ্রাম হয়ে আবার ঢাকাতেই এসে থিতু হয়েছে দেশের সবচেয়ে জাঁকজমকপূর্ণ টুর্নামেন্ট।

তামিমের কাঠগড়ায় পিচ কিউরেটর

চট্টগ্রাম থেকে ঢাকায় ফিরে প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হয় রংপুর রাইডার্স ও কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। সে ম্যাচে মাত্র ৯৭ রানে অলআউট হয় রংপুর। সেই রান তাড়া করতেও হিমশিম খায় কুমিল্লা। সেই ম্যাচ শেষে উইকেটের সমালোচনা করেন দুই অধিনায়ক তামিম ইকবাল মাশরাফি বিন মুর্তজা দুইজনই।

Also Read - দোষটা কার? উইকেটের নাকি ব্যাটসম্যানদের

সংবাদ সম্মেলনে তামিম ইকবাল বলেন, “আমার প্রশ্ন আপনাদের কাছে, সবসময় একটি অজুহাত দেওয়া হয় যে মিরপুরে অনেক খেলা হয়। এবার তো ১০ দিন খেলা হলো না। এর পর এমন উইকেট, এটা কিউরেটর উত্তর দিতে পারবে ভালো।”

তিনি আরো যোগ করেন, “আমার কাছে সবচেয়ে খারাপ লাগছে, এত দর্শক এল মাঠে। কিন্তু এসে দেখল একদল ৯৭ করছে, আরেক দলের সেটি করতে শেষ ওভার পর্যন্ত যেতে হয়েছে, দর্শকের জন্য এটি হতাশাজনক। আমরা সবাই চাই বিপিএল এগিয়ে যাক। কিন্তু এ রকম জঘন্য উইকেটে খেলা হলে তো হতাশাজনক। কি কারণে এরকম উইকেট বানানো হচ্ছে, আমার ধারণা নেই।” 

মিরপুরের এমন উইকেটের জন্য কাঠগড়ায় দাঁড় করান পিচ কিউরেটর গামিনি ডি সিলভাকে। মিরপুরের উইকেটের আচরণ কেন এমন হচ্ছে সেটার ব্যাখ্যা চাইতে বলেন তার কাছে। তাছাড়াও চট্টগ্রামের উইকেটে মুগ্ধ তামিম। চট্টগ্রামের উইকেটকে টি-টোয়েন্টির জন্য আদর্শ উইকেট বললেন তিনি।

“তাকে ডেকে জিজ্ঞেস করা উচিত। এই ধরনের উইকেট আসলে টুর্নামেন্টের জন্য ভালো নয়। যারা খেলে, যারা দেখে, মাঠে যারা থাকে, কেউই মজা পায় না। এমন নয় যে এই মাঠে আগে রান হয়নি। রান ঠিকই হয়েছে। কিন্তু বিপিএল এলে শুধু এ রকম হয়ে যায়।”

তিনি আরো যোগ করেন, “আমি খুবই বিস্মিত চট্টগ্রামের উইকেটে। চট্টগ্রামের এত ভালো উইকেট আগে কখনও দেখিনি। চট্টগ্রামে অনেক দিন ধরেই খেলি কিন্তু এবার যে উইকেটে খেলে এলাম, সেটি অসাধারণ টি-টোয়েন্টি উইকেট।”

তবে এসব পছন্দ হয় নি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড ( বিসিবি ) এর সেটা বিসিবির পরিচালক ইসমাইল হায়দার মল্লিক এর সাম্প্রতিক সাক্ষাৎকারেই স্পষ্ট উঠে এসেছে।

সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের সদস্য সচিব ইসমাইল হায়দার মল্লিক বলেছিলেন, ‘আমরা গ্রাউন্ডসের (দায়িত্বশীলদের) সঙ্গে বসেছি। আমরা তাদের বলেছি উইকেট যেন আরেকটু ভালো হয়। তাই বলে উইকেট কিন্তু এতটা খারাপ না, একটা ম্যাচ এক্সিডেন্টালি কম স্কোর হয়ে গেছে। ব্যাটসম্যানরা উইকেট বিলিয়ে দিয়ে এসেছে, গতকালের ম্যাচে এমনটিই মনে হয়েছে। একটা উইকেট বদলাতে মাস চারেক সময় লাগে। বিপিএলের আগে খেলা ছিল জাতীয় দলের, উইকেটগুলো সেভাবেই বানানো। তারপরও যাতে একদম খারাপ উইকেট না হয় সে ব্যাপারে আমরা ব্যবস্থা নিতে বলেছি। উনারা বলেছেন যে, সামনের ম্যাচগুলোতে ব্যবস্থা নেবেন।’

উইকেট যে টি-২০’র জন্য আদর্শ উইকেট নয়, সেটি মানতে নারাজ নন তিনি। তবে তার মতে, আগের দিনই তামিমের আখ্যা দেওয়া ‘জঘন্য’-ও প্রযোজ্য নয় এতে! মল্লিক জানিয়েছিলেন, ‘এই উইকেট বলতে পারেন যে, টি-২০’র জন্য অতটা ভালো না। তামিম গতকাল খেলার পরে আমার কাছেও বলেছে, উইকেট যথাযথ না। এই ব্যাপারে ওর সঙ্গে আমি একমত যে, টি-২০’র জন্য উইকেট যথাযথ না। কিন্তু এটা জঘন্য উইকেটও না।’

সংবাদ সম্মেলনে মন্তব্যের জন্য বাংলাদেশের টেস্ট সহ-অধিনায়ক ও কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স অধিনায়ককে শুনানিতে ডেকে চিঠি পাঠিয়েছে বোর্ড।

তবে ঐ একই নিউজ পোর্টাল বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমের কাছে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের সদস্য সচিব ইসমাইল হায়দার মল্লিক অবশ্য চিঠি দেওয়ার খবর জানেন না বলেই দাবি করলেন । তবে তার কথায় কিছুটা আভাসও মিলল চিঠি পাঠানোর।

তিনি বলেন, ‘চিঠি পাঠানো সম্পর্কে আমার জানা নেই। এটা তো গভর্নিং কাউন্সিলের ব্যাপার নয়। বোর্ড চাইলে চিঠি পাঠাতে পারে। তবে আমি কালকে (রোববার) শুনেছি, তামিমের মন্তব্য বোর্ডের অনেকের ভালো লাগেনি। এটা নিয়ে আলোচনা হচ্ছিল।’

 

আরো পড়ুনঃ

মাশরাফির নজরে শীর্ষ দুই

Related Articles

তামিমের শুনানি আজ

টেস্ট নিয়ে তাড়াহুড়া নেই সাইফউদ্দিনের

আমরাই সেরা দল ছিলাম: তামিম

কোয়ালিফায়ারের বিতর্ক নিয়ে বিসিবির ব্যাখ্যা

ফাইনালে রংপুর রাইডার্স