SCORE

সর্বশেষ

পরিসংখ্যানে বাংলাদেশ-জিম্বাবুয়ে ওয়ানডে

সোমবার থেকে দীর্ঘ আট বছর পর বাংলাদেশে বসতে যাচ্ছে ত্রিদেশীয় সিরিজ। প্রতিযোগিতার শুরুর দিন স্বাগতিক বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট দল। ত্রিদেশীয় সিরিজের লড়াইয়ের আগে দেখে নেওয়া যাক একদিনের ক্রিকেটে দু’দলের মধ্যকার লড়াইয়ের উল্লেখযোগ্য কিছু পরিসংখ্যান-

টি-২০ সিরিজের বাংলাদেশ দল ঘোষণা

হেড টু হেডঃ একদিনের ক্রিকেটে ১৯৯৭ সাল থেকে ২০১৫ সালের মধ্যে মোট ৬৭টি একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছে জিম্বাবুয়ে ও বাংলাদেশ। দু’দলের মুখোমুখি লড়াইয়ে যেখানে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক ম্যাচ জিতেছে বাংলাদেশ। জিম্বাবুয়ের ২৮ জয়ের বিপরীতে বাংলাদেশের জয় ৩৯টি ম্যাচে।

Also Read - 'আসলে এটা হবে আমার সাবেক দল বাংলাদেশ'

সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন স্কোরঃ একদিনের ক্রিকেটে বাংলাদেশ জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মোট দু’বার ইনিংসে ৩০০ বা এর চেয়ে রান করেছে। যেখানে জিম্বাবুয়ের ইনিংসে ৩০০ বা এর চেয়ে বেশি রান করার সংখ্যা ৬! আর একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচে ২০০৯ সালে বাংলাদেশের করা ৮ উইকেটে ৩২০ রানের বিপরীতে জিম্বাবুয়ের এক ইনিংসে সর্বোচ্চ স্কোরের রেকর্ড ৭ উইকেটে ৩২৩ রান। এছাড়া ওয়ানডেতে বাংলাদেশের বিপক্ষে দলটির সর্বনিম্ন স্কোরের রেকর্ড মাত্র ৪৪ রান আর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে বাংলাদেশের সর্বনিম্ন স্কোর ৯২।

"যেখানেই খেলি, রোমাঞ্চ থাকে"

শীর্ষ পাঁচ রান সংগ্রাহকঃ বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ের মধ্যকার ওয়ানডে বা একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে মুখোমুখি লড়াইয়ে সর্বাধিক রানের মালিক বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। তার সংগ্রহ ১৩১৬ রান। এরপর ১২১৪ রান নিয়ে তালিকার দ্বিতীয় স্থানে অবস্থান আরেক বাংলাদেশি ক্রিকেটার তামিম ইকবালের। তার পর রয়েছেন ১১৯৮ রান নিয়ে কোলপাক চুক্তির পর আবারও জিম্বাবুয়ে দলে ফিরে আসা ক্রিকেটার ব্রেন্ডন টেইলর। তার থেকে মাত্র ৩ রানে পিছিয়ে থেকে তালিকার চতুর্থ স্থানে অবস্থান এলটন চিগুমবুরার। আর দু’দলের মধ্যকার মুখোমুখি লড়াইয়ে শীর্ষ রান সংগ্রাহকের দৌড়ে পঞ্চম স্থানে রয়েছেন বাংলাদেশের মুশফিকুর রহিম। তার সংগ্রহ ৪১ ম্যাচ থেকে ১১৭১ রান।

নাম                                    ম্যাচ                        রান
সাকিব আল হাসান              ৪৩                        ১৩১৬
তামিম ইকবাল                    ৩৬                        ১২১৪
ব্রেন্ডন টেইলর                     ৪৫                        ১১৯৮
চিগুমবুরা                             ৫৩                        ১১৯৫
মুশফিকুর রহিম                   ৪১                          ১১৭১

সবচেয়ে বেশি শতকঃ দু’দলের মধ্যকার লড়াইয়ে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক শতক করার রেকর্ড রয়েছে শাহরিয়ার নাফীস ও সাকিব আল হাসানের দখলে। যৌথভাবে এই দুই ক্রিকেটারের ঝুলিতে রয়েছে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিনটি করে শতক হাঁকানোর রেকর্ড।

বেশি সংখ্যক অর্ধশতকঃ দু’দলের লড়াইয়ে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক অর্ধশতক করার লড়াইয়ে রয়েছেন তিনজন ক্রিকেটার। দুই বাংলাদেশি ক্রিকেটার মুশফিকুর রহিম, সাকিব আল হাসানের সাথে জিম্বাবুয়ের টেইলরের দখলে রয়েছে ৯টি করে অর্ধশতক। যা দু’দলের মধ্যকার একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের লড়াইয়ে বেশি সংখ্যক।

সর্বাধিক উইকেটঃ জিম্বাবুয়ে ও বাংলাদেশের লড়াইয়ে সর্বাধিক উইকেট শিকারের তালিকায় রয়েছেন একাধিক বাংলাদেশি ক্রিকেটার। এখনো পর্যন্ত বাংলাদেশের বিপক্ষে ওয়ানডেতে কোন জিম্বাবুয়ান বোলার ৫০ উইকেট নিতে না পারলেও ইতোমধ্যে তা করে দেখিয়েছেন তিন বাংলাদেশি বোলার।  দু’দলের লড়াইয়ে সর্বাধিক উইকেট শিকারি বোলার সাকিব আল হাসান। বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডারের দখলে রয়েছে ৬৮টি উইকেট। এরপর ৫৯ উইকেট নিয়ে আছেন বাংলাদেশ ওয়ানডে দলের অধিনায়ক মাশরাফি মুর্তজা। আর ৫৬ উইকেট নিয়ে এই তালিকার তৃতীয়স্থানে অবস্থান আব্দুর রাজ্জাকের।

 

                       নাম                     ম্যাচ              উইকেট সংখ্যা
সাকিব আল হাসান             ৪৩                      ৬৮
মাশরাফি মুর্তজা                 ৩৭                     ৫৯
আব্দুর রাজ্জাক                   ৩২                     ৫৬

ইনিংসে সবচেয়ে বেশি ৫ উইকেট শিকারিঃ বাংলাদেশের স্পিনার আব্দুর রাজ্জাক জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডেতে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক ৩ বার ৫ উইকেট করে নিয়েছেন। তার বিপরীতে জিম্বাবুয়ের বোলার ভিটালিস ভিটোরির দখলে রয়েছে বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচে দু’বার ৫ উইকেট নেওয়ার কৃতিত্ব।

সবচেয়ে বেশি ডিসমিসালঃ গ্লাভস হাতে দু’দলের মধ্যকার ওয়ানডে লড়াইয়ে সবচেয়ে বেশি ডিসমিসালের মালিক বাংলাদেশের উইকেটরক্ষক মুশফিকুর রহিম। ৩৭ ক্যাচের সাথে ১৮ স্টাম্পিং নিয়ে তার মোট ডিসমিসালের সংখ্যা ৫৫টি।

সবচেয়ে বেশি ক্যাচঃ দু’দলের মধ্যকার লড়াইয়ে সবচেয়ে বেশি ২৫টি ক্যাচ নিয়েছেন জিম্বাবুয়ের হ্যামিল্টন মাসাকাদজা। এর পরবর্তী অবস্থানেও রয়েছেন দুই জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটার। ১৭টি করে ক্যাচ নিয়ে ভুসি সিবান্দার সাথে তালিকার দ্বিতীয় স্থানে অবস্থান প্রসপার উতসেয়া।


আরও পড়ুনঃ ‘হাথুরুসিংহেকে মাশরাফির স্যালুট’

 

Related Articles

কোচিং স্টাফ ও অধিনায়ক ছাটাই করল জিম্বাবুয়ে

জিম্বাবুয়ে বিশ্বকাপে না থাকায় ব্যথিত মাশরাফিও

ত্রিদেশীয় সিরিজের শীর্ষ তিন

শীর্ষে বাংলাদেশ, তলানিতে জিম্বাবুয়ে

শ্রীলঙ্কাকে বিদায় করে দেওয়ার হুমকি জিম্বাবুয়ের