‘ভারতের সাথে না খেললে আমাদের ক্রিকেট মরে যাবে না’

ভারতের বিপক্ষে খেলতে না পারলে পাকিস্তানের ক্রিকেট মরে যাবে না- এমন মন্তব্য করেছেন পাকিস্তানের কিংবদন্তী ক্রিকেটার জাভেদ মিঁয়াদাদ। দীর্ঘদিন ধরে চলমান রাজনৈতিক বৈরিতার জেরে ক্রিকেট অঙ্গনের শীতল সম্পর্ক ভারত ও পাকিস্তানের। আর এই কারণে আইসিসির ইভেন্ট ছাড়া দ্বিপাক্ষিক কোনো লড়াইয়ে অনেকদিন ধরেই মুখোমুখি হচ্ছে না চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দল দুটি।

'ভারতের সাথে না খেললে আমাদের ক্রিকেট মরে যাবে না'

সম্প্রতি নিজ দেশের সংবাদমাধ্যমকে মিঁয়াদাদ বলেন, ‘তারা (ভারত) আমাদের সাথে খেলতে চায় না। তাদের সাথে না খেললে আমাদের ক্রিকেট মরে যাবে না। সুতরাং তাদের সাথে খেলার চিন্তা বাদ দিতে হবে। তারা গত দশ বছর ধরে পাকিস্তানের মাটিতে খেলছে না। তাতে কী হয়েছে?’

Also Read - ত্রিদেশীয় সিরিজে র‍্যাংকিংয়ের মারপ্যাঁচ

ভারতের সাথে খেলতে না পেরে পাকিস্তানের ক্রিকেট ধ্বংস হয়ে যায়নি, এই প্রসঙ্গে পাল্টা প্রশ্ন ছুঁড়ে মিঁয়াদাদ বলেন, ‘আমাদের ক্রিকেট কি ধ্বংস হয়ে গেছে? না… আমরা অনেক ভালো করেছি। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জেতাই এর উদাহরণ। পাকিস্তানের ক্রিকেট মরে যাবে না। দেশের মাটিতে আন্তর্জাতিক ম্যাচ ছাড়াও আমরা টিকতে পারবো।’

মিঁয়াদাদ আরও বলেন, ‘এখন পিসিবি অর্থনৈতিকভাবে স্থিতিশীল। কিন্তু আইসিসি থেকে প্রাপ্ত অর্থব্যয়ের ক্ষেত্রে স্বচ্ছতা রাখতে হবে। প্রশাসনিক ব্যয় কমাতে হবে এবং উপদেষ্টা, পরামর্শক ও অতিরিক্ত কর্মী বাদ দিতে হবে। অতিরিক্ত কর্মকর্তা ছাড়াও বোর্ড ভালোভাবেই কাজ করতে পারবে।’

সাম্প্রতিক সময়ে পাকিস্তান ও ভারতের ক্রিকেট দ্বন্দ্ব বারবার আসছে আলোচনায়। কদিন আগে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যন্ত পাকিস্তানের বিপক্ষে ক্রিকেট খেলা-না খেলা নিয়ে মন্তব্য করেছেন। এর আগে বেফাঁস মন্তব্য করে ভারতীয় গণমাধ্যমের ক্ষোভের মুখে পড়েছিলেন পিসিবি প্রধান নামাজ শেঠি। তিনি দাবি করেছিলেন, ভারতের বিপক্ষে খেলতে গেলে টাকাই হয়ে ওঠে মুখ্য বিষয়। এও বলেছিলেন, বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসিকে রীতিমতো জিম্মি করে রেখেছে ভারতের ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই! ঐ মন্তব্যের জের না ফুরাতেই এবার নতুন আলোচনার জন্ম দিলেন মিঁয়াদাদ।

আরও পড়ুনঃ ট্রাই-নেশনের ম্যাচের সময়ে পরিবর্তন