মাশরাফি টেস্ট খেলার উপযুক্ত: ডেভিড ইয়াং

Share Button

বাংলাদেশ ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মূর্তজার ক্যারিয়ার জুড়েই গল্পটা ইনজুরির। দুই হাঁটুতে অস্ত্রোপচার হয়েছে ৭ বার। আর প্রতিবারই অস্ত্রোপচার করেছেন অস্ট্রেলিয়ান শল্যবিদ ডেভিড ইয়াং। সেই মাশরাফির চিকিৎসক এখন ঢাকায়। এক সম্মেলনে বাংলাদেশে এসেছেন ডেভিড ইয়াং। এদিকে আজ বিসিবিতে এসে জানিয়েছেন টেস্ট খেলার জন্য উপযুক্ত মাশরাফি।

 

'বাংলাদেশ ক্রিকেটের অদৃশ্য বন্ধু তিনি'
ছবিঃ সংগ্রহীত

 

Also Read - চট্টগ্রামের পিচের ভাগ্যে এক ডিমেরিট পয়েন্ট

অনেকদিন পর চিকিৎসককে পেয়ে স্মৃতি রুমন্থন করেন মাশরাফি। অন্যদিকে মাশরাফির ভূয়সী প্রশংসা করে ডেভিড ইয়ং বলেন, ‘মাশরাফি পেশাদার অ্যাথলেট, খেলা ও দেশের প্রতি তার শতভাগ নিবেদন। তাঁর ক্যারিয়ারে একটু হলেও জড়াতে পেরে আমি খুশি। তাঁর যে বিষয়টি সবচেয়ে ভালো লাগে, অসাধারণ মানুষ, অনেক বড় হৃদয়ের মানুষ। বাংলাদেশ ও খেলার জন্য সে সত্যিকারের এক দূত।’ 

২০১৪ সাল থেকে বাংলাদেশ ওয়ানডে দলকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন মাশরাফি। ঘরের মাঠে জিম্বাবুয়েকে ৫-০ তে হারিয়ে অধিনায়কত্বের যাত্রা শুরু হয় মাশরাফির। এরপর বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডকে হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে জায়গা পাওয়া, ঘরের মাঠে পাকিস্তান, ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজ জয় সবই এসেছে মাশরাফির হাত ধরে। তবে টেস্ট খেলা হচ্ছে না বাংলাদেশ ওয়ানডে অধিনায়কের। ২০০৯ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজে অধিনায়ক হয়ে গিয়েছিলেন মাশরাফি। কিন্তু প্রথম ম্যাচেই ইনজুরি পড়েন। এরপর প্রায় ৯ বছর ধরে বাংলাদেশের টেস্ট দলে দেখা যায় নি মাশরাফিকে। তবে ঘরোয়া লিগে ক্রিকেটের বড় ফরম্যাটে খেলেছিলেন এই ডানহাতি পেসার।

তবে ডেভিড ইয়াং যেন মাশরাফিকে টেস্ট খেলার অনুমোদন দিয়েই দিলেন। মাশরাফির টেস্ট খেলা প্রসঙ্গে ইয়াং বলেন,  ‘প্রতিটি দলেরই একজন নেতা প্রয়োজন। যিনি শুধু ক্রিকেটার হিসেবেই নন, সবসময়ই একজন নেতার ভূমিকা পালন করবেন। সে তার দলের প্রয়োজনে অবশ্যই টেস্ট খেলবে। বিষয়টি এমন না যে তাকে সেরা খেলোয়াড় হতে হবে কিংবা সুপারস্টার হতে হবে। আমার মনে হয় মাশরাফি তেমনই এক নেতা। সে টেস্ট খেলার মতো অবস্থায় আছে।’

[আরও পড়ুনঃ চট্টগ্রামের পিচের ভাগ্যে এক ডিমেরিট পয়েন্ট]

Leave A Comment