SCORE

সর্বশেষ

হেরেও ফাইনালে নিউজিল্যান্ড

ইডেন পার্কে আগের ম্যাচে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ডের করা ২৪৩ রান তাড়া করেছিলো অস্ট্রেলিয়া। গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে ফাইনালে যেতে হলে ইংল্যান্ডে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে জিততে হতো বড় ব্যবধানে। তবে অকল্যান্ডে কিউইদের বিপক্ষে ফাইনালে না যেতে পারলেও সান্ত্বনার জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে ইংল্যান্ড দল।হেরেও ফাইনালে নিউজিল্যান্ড

এই ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের দলে ফিরেছেন স্পিন অল-রাউন্ডার মিচেল স্যান্টার। অন্যদিকে ইংল্যান্ড দলে ফিরেছেন ইয়ন মরগান। এই ইংলিশ অধিনায়ক ছাড়াও দলে ফিরেছেন আরো দুই ক্রিকেটার। ইনজুরিতে একাদশ থেকে বাদ পড়েছিলেন লিয়াম প্লাঙ্কেট।  তাঁর পরিবর্তে একাদশে এসেছিলেন লিয়াম ডসন।

Also Read - তরুণীদের সাথে ফেসবুক লাইভে এসে বিতর্কিত সাব্বির

বাজে পারফরম্যান্সের জন্য বাদ পড়েছিলেন মার্ক উড, তাঁর পরিবর্তে একাদশে ঢুকেছিলেন টম কুরান। তবে রাজকীয়ভাবেই ফেরা হয়েছে ইংলিশ অধিনায়ক মরগানের। বাঁচা-মরার ম্যাচে আগে ব্যাট করে মরগান খেলেছেন অপরাজিত ৮০ রানের ইনিংস। সেই সাথে মালানের ৫৩ রানে  নির্ধারিত ২০ ওভারে ১৯৪ রান সংগ্রহ করেছে ইংল্যান্ড।

ব্যাট হাতে ব্যর্থ হয়েছেন উইকেটকিপার বাটলার, বিলিংস ও হেলস। নিউজিল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ তিনটি উইকেট পেয়েছেন ট্রেন্ট বোল্ট। দুইটি পেয়েছেন টিম সাউদি। আগের তিনটিতে ইংল্যান্ড হারলেও এই ম্যাচ জিতলে ফাইনালে যেতে পারতো তারা। তবে ছিল ‘কিন্তু’। স্বাগতিক কিউইদের বিপক্ষে জিততে হবে বড় ব্যবধানে।

অন্যদিকে আগের তিন ম্যাচে একটি জিতলেও ফাইনালে পৌঁছাতে নিউজিল্যান্ডকে করতে হতো ১৭৫ রান। দলীয় এই স্কোর পার করলেও শেষদিকে নাটকীয়ভাবে ২ রানে জয় পায় ইংল্যান্ড। শেষ ওভারে নিউজিল্যান্ডের ৯ রান প্রয়োজন হলে, টম কুরানের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে শেষ পর্যন্ত ৬ রান নিতে সক্ষম হয় ক্রিজে থাকা দুই ব্যাটসম্যান চ্যাপম্যান ও কলিন গ্র্যান্ডহোম।

নিউজিল্যান্ডের হয়ে ব্যাট হাতে ফিফটি করেন দুই ওপেনার গাপটিল ও কলিন মুনরো। সর্বোচ্চ ৪৭ বলে ৬২ করে গাপটিল ও ৫৭ করেন মুনরো। এছাড়াও ৩৭ রান করে অপরাজিত থাকেন চ্যাপম্যান। ইংল্যান্ডের হয়ে এই ম্যাচে একটি করে উইকেট পান মালান, ডসন, রশিদ ও কুরান।

আগামী ২১ ফেব্রুয়ারি, বুধবার ইডেন পার্কে ফাইনালে লড়বে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড ও উড়তে থাকা অস্ট্রেলিয়া।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

ইংল্যান্ড ১৯৪-৭ (ওভার ২০)

মরগান ৮০*, মালান ৫৩: বোল্ট ৩-৫০

নিউজিল্যান্ড ১৯২-৪ (ওভার ২০)

গাপটিল ৬২, মুনরো ৫৭: রশিদ ১-২২

ফলাফলঃ ২ রানে ইংল্যান্ড।

ম্যাচ সেরাঃ মরগান (ইংল্যান্ড)

আরও পড়ুনঃ সিলেট ম্যাচে বিশেষ কয়েন

Related Articles

এফটিপিতে বাংলাদেশের যত ম্যাচ

এশিয়া জয়ের পর লক্ষ্য এবার বিশ্বকাপ!

দুই ম্যাচ হাতে রেখেই ইংলিশদের সিরিজ জয়

রেকর্ড বই ওলট-পালট করে দিল ইংল্যান্ড

বল টেম্পারিংয়ে চান্দিমালের নিষেধাজ্ঞা ও জরিমানা