SCORE

Trending Now

শ্রীলঙ্কা ও ভারতের জন্য বাংলাদেশের পৃথক পরিকল্পনা

আর কদিন পরই শ্রীলঙ্কায় শুরু হবে বাংলাদেশ, ভারত ও স্বাগতিক দলের অংশগ্রহণে ত্রিদেশীয় টি-২০ সিরিজ নিদাহাস ট্রফি ২০১৮। এখনও নিজেদের টি-২০ ফরম্যাটে ঠিকভাবে মেলে ধরতে না পারায় এই সিরিজে ফেভারিট বলা যাচ্ছে না বাংলাদেশকে।

চলতি বছর বাংলাদেশ খুব একটা সফলতার দেখা পায়নি এখনও, সেটিও এই শ্রীলঙ্কার কারণেই। দুর্দান্ত ফর্মে ফেরা শ্রীলঙ্কা অবশ্য বাংলাদেশের কাছে এখন চেনাই। তবে প্রতিপক্ষ হিসেবে ভারত ঠিক কেমন হবে, সেটি অনুমান করা একটু দুঃসাধ্যই। আর তাই নিদাহাস ট্রফিতে দুই দলের জন্য পৃথক পরিকল্পনা বাংলাদেশের।

Also Read - চ্যাম্পিয়নদের বিপক্ষে শেখ জামালের বিশাল জয়

শুক্রবার অনুশীলনের সময় এ প্রসঙ্গে বাঁহাতি ওপেনার সৌম্য সরকার বলেন, ‘একেক দলের জন্য একেক রকম পরিকল্পনা থাকবে। মাঠে সেই পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে হবে। প্রত্যেকটি দলই আলাদা। তাই সবকিছু সেভাবেই ঠিক করা হবে।’

ফরম্যাটের বিচারে শক্তিমত্তা ও পরিসংখ্যানের দিক থেকে পিছিয়ে থাকলেও এখনই নিজেদের দুর্বল ভাবতে নারাজ সৌম্য, ‘আমরা যদি আগে থেকেই আমাদের দুর্বল ভেবে বসে থাকি তাহলে আমরা খেলতে নামার আগেই পিছিয়ে থাকব। মাঠে ভালো খেলতে পারলে আশা করি আমরা জিতব। কোন দলের অবস্থান কোথায় সেটা চিন্তা না করে আমরা আমাদের কাজগুলো যাতে ঠিকঠাক করতে পারি সেটা নিয়েই ভাবছি। ঠিক সময়ে যারা ঠিক সিদ্ধান্ত নিবে, ভালো খেলবে জয় তাদেরই আসবে।’

টি-২০’তে সাফল্যের অন্যতম মূল সূত্র আগে ব্যাট করলে বড় স্কোর গড়া। সৌম্যরও চোখ সেদিকেই। তিনি বলেন, ‘সম্প্রতি শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আমরা ১৯০ প্লাস রান করেছি। ওই ম্যাচে শেষের দিকের ব্যাটসম্যানরা ভালো খেলতে পারেনি। আশা করি, সামনের সিরিজে আমরা যদি ভালো শুরু করতে পারি, মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানরাও ভালো খেলে, বিগ হিটাররা ঝড়ো ইনিংস খেলতে পারে তাহলে আমরা ২০০ বা তার বেশি রানের ইনিংস খেলতে পারব। সেটি প্রথমে ব্যাট করে হোক বা পরে ব্যাট করে হোক।’

আরও পড়ুনঃ বোলিংয়ে লাহোর, খেলছেন মুস্তাফিজ

Related Articles

অসুস্থ রুবেল, দোয়া চাইলেন সবার কাছে

যেখান থেকে শুরু ‘নাগিন ড্যান্স’ উদযাপনের

‘খারাপ করছি দেখেই বেশি চোখে পড়ছে’

লঙ্কান দর্শকরা ভুল বুঝেছিল বাংলাদেশকে!

বোর্ড চাইলে প্রধান কোচ হবেন ওয়ালশ