SCORE

সর্বশেষ

কেনিয়া ক্রিকেট বোর্ডে সংস্কার

২০০৩ সালে দক্ষিণ আফ্রিকায় অনুষ্ঠিত ওয়ানডে বিশ্বকাপে সেমিফাইনাল খেলার যোগ্যতা অর্জন এখন কেনিয়া ক্রিকেট দলের জন্য এক দূর্লভ স্মৃতি। দূর্লভ স্মৃতি এ কারণেই বলা তা কেননা এরপরে সময় যত সামনের দিকে এগিয়েছে ঠিক ততটাই পিছিয়েছে দলটির অবস্থান। সম্প্রতি ওয়ার্ল্ড ক্রিকেট লিগে সবকয়টি ম্যাচ হেরে ক্রিকেটের দ্বিতীয় স্তর থেকে তৃতীয় স্তরে নেমে গেছে দলটি।কেনিয়ার ক্রিকেটে গণপদত্যাগ

একের পর এক সমস্যায় জর্জরিত থাকার পর কেনিয়ার ক্রিকেট বোর্ড বিলুপ্ত ঘোষণা করেছে দেশটির ক্রীড়া মন্ত্রণালয়। আন্তর্জাতিক অঙ্গনে সাফল্য খরা আর অচলাবস্থা চলার ধারাবাহিকতার মধ্যেই চলে আসে এই ঘোষণা। তবে এ ঘোষণার পরই কেনিয়ার ক্রিকেটে সংস্কারের জন্য একটি অন্তর্বর্তীকালীন কমিটি গঠন করা হয়েছে।

অন্তর্বর্তীকালীন নতুন কমিটির কাজ হবে কেনিয়া ক্রিকেটের গঠনতন্ত্রে পরিবর্তন আনতে কাজ করা। এছাড়া আগামী ৩ মাসের মধ্যে বোর্ডের নির্বাচনের ব্যবস্থা করবে এই কমিটি। এর আগে অর্থনৈতিক টানাপড়েনে বোর্ডে অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়। সাথে যোগ হয়েছে পারফরম্যান্সের দীনতা। এক সময় বিশ্ব আসরে নিজেদের চেনানো দেশটির ক্রিকেট বোর্ডে এখন বেহাল অবস্থা।

Also Read - নতুন দলে সাকিবের ভূমিকা হবে 'ফিনিশার'!

৮ থেকে ১৫ ফেব্রুয়ারি ওয়ার্ল্ড ক্রিকেট লিগের দ্বিতীয় স্তরে ছয় দলের মধ্যে আয়োজিত প্রতিযোগিতায় সবকয়টি খেলা হেরে তৃতীয় স্তরে নেমে যাওয়ার ব্যর্থতাকে কেন্দ্র করে দেশটির শীর্ষ তিন ক্রিকেট ব্যক্তিত্ব- ক্রিকেট দলের অধিনায়ক রাকেপ প্যাটেল, কোচ ওদোয়ো ও বোর্ড প্রেসিডেন্ট জ্যাকি জানমোহাম্মদ পদত্যাগ করেছেন আগেই।

পদত্যাগ করার সময় সবাই নিশ্চিত করেছেন পদত্যাগের কারণ হিসেবে ওয়ার্ল্ড ক্রিকেট লিগের দুঃসহ স্মৃতির কথা। কেনিয়ার হয়ে বিশ্বকাপ খেলা ক্রিকেটার ওদোয়া নিজের পদত্যাগের কারণ ব্যাখ্যা করেছেন ডেইলি নেশনস কে। এসময় তিনি জানান, ‘নামিবিয়াতে কাটানো এক সপ্তাহ ছিল মানসিকভাবে যন্ত্রণাদায়ক। এটা ভয়ংকর চাপের ছিল। আমি যে অবস্থার মধ্য দিয়ে গিয়েছি, আমি চাই না অন্য কারও এমন অভিজ্ঞতা হোক। আমরা বাজে পারফরম্যান্সের রেকর্ড ভেঙেছি। কেনিয়ার ক্রিকেটের উন্নতির জন্য আমাদের অবশ্যই একটি হাই পারফরম্যান্স সেন্টার স্থাপন করতে হবে।’

ওদোয়ার মতো পদত্যাগের কারণ খোলাসা করেছেন প্রথমবারের মতো কোনো ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান হওয়ার গৌরব অর্জন করা জানমোহাম্মদও। বিবিসি ফোকাস’কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে দলের এমন বাজে অর্জনের দায় নিজের কাঁধে নিয়ে তিনি বলেন, ‘জাতীয় দলের পারফরম্যান্স বিবেচনায় নিয়ে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া। কাউকে না কাউকে এর দায় নিতেই হতো।’

পদত্যাগ করলেও নির্বাচনের মাধ্যমে নতুন বোর্ড প্রধান নির্বাচিত হওয়ার আগ পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করবেন বলেও এসময় নিশ্চিত করেন জানমোহাম্মদ, ‘যখন নির্বাচিত সদস্যের একটি পদ শূন্য হয়ে যায়, তখন ৩০ দিনের মধ্যে একটি নির্বাচন হতে হবে। নির্বাচন না হওয়া পর্যন্ত এই অফিসটি অব্যাহত থাকবে।’

প্রসঙ্গত, ওয়ার্ল্ড ক্রিকেট লিগের দ্বিতীয় স্তরের প্রতিযোগিতায় আরব আমিরাতের মতো দলের বিপক্ষেও হার মানে কেনিয়া। শুধু হারই নয় রীতিমত রানের হিসাবে টুর্নামেন্টের সবচেয়ে বড় পরাজয়ের অংশও হয়ে থাকে কেনিয়ার ২১৮ রানে আরব আমিরাতের কাছে হারার ঘটনাটি!

আরও পড়ুনঃ নতুন দলে সাকিবের ভূমিকা হবে ‘ফিনিশার’!

Related Articles

কেনিয়ার ক্রিকেটে গণপদত্যাগ