SCORE

Trending Now

ঘরের মাঠে সেঞ্চুরি মুশফিকের

রঙিন পোশাকের ক্রিকেট হোক বা সাদা পোশাকের, দুটোতেই ব্যাট হাতে দারুণ ছন্দে রয়েছেন জাতীয় দলের অভিজ্ঞ উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। ডিপিএলের কারণে আড়াই মাস বিরতিতে শুরু হয়েছে বিসিএলের চতুর্থ রাউন্ড। এই রাউন্ডেই নিজের ঘরের মাঠে সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন মুশফিক। তার সেঞ্চুরিতে মধ্যাঞ্চলের বিপক্ষে লড়াইয়ে ফিরেছে উত্তরাঞ্চল।

ঘরের মাঠে সেঞ্চুরি মুশফিকের
ঘরের মাঠে সেঞ্চুরি হাঁকান মুশফিক।

বগুড়ার শহীদ চান্দু স্টেডিয়ামে এক ওভার ব্যাট করেই দ্বিতীয় দিন শেষ করেছিল উত্তরাঞ্চল। তৃতীয় দিনের শুরুতেই সাজঘরে ফিরে গিয়েছেন ওপেনার জুনায়েদ সিদ্দিকী। নাজমুল শান্ত ও মিজানুর মিলে কিছুটা প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করলেও সেটি থামান মোশারফ। ফেরান ৪৫ রান করা শান্তকে। দলীয় তিন রান যোগ করতেই মিজানুরকে ফেরান মোশারফ।

ক্রিজে থিতু হতে পারেননি উইকেটরক্ষক ধীমান ঘোষ ও সানজামুল। আরিফুলকে সঙ্গে নিয়ে উত্তরাঞ্চলের হাল ধরেন মুশফিক। দুই ব্যাটসম্যান ঠাণ্ডা-মাথায় দলকে খাদের কিনারা থেকে তুলে আনেন। আরিফুলের সঙ্গে ৭৩ রানের জুটি গড়েন মুশফিক। ব্যক্তিগত ৪২ রানে তানভীর হায়দারের বলে আউট হন আরিফুল।

Also Read - এশিয়া কাপে বাংলাদেশের গ্রুপে শ্রীলঙ্কা

চা বিরতির পর ১৪৩ বলে তিন চারে ফিফটি তুলে নেন মুশফিক। ফরহাদ রেজা আউট হলে মুশফিককে যোগ্য সঙ্গ দেন তাইজুল। তৃতীয় দিনের শেষদিকে নতুন বলে খেলা শুরু হওয়ার পর ব্যক্তিগত ১৯৪ বলে ফার্স্ট ক্লাস ক্রিকেট ক্যারিয়ারের নবম সেঞ্চুরি হাঁকান মুশফিক। সেই সাথে তাইজুলকে নিয়ে ৭০ রানের জুটি গড়েন মুশফিক।

তৃতীয় দিন শেষে ঘরের মাঠে দীর্ঘ চার বছরের অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে শতক পূর্ণ করে, ১৯৯ বলে ১০১ রান করা অপরাজিত আছেন মুশফিক এবং ২১ রান নিয়ে অপরাজিত রয়েছেন তাইজুল। মধ্যাঞ্চলের হয়ে তিনটি উইকেট লাভ করেন এবাদত হোসেন এবং দুইটি পান মোশারফ হোসেন।

এর আগে প্রথম ইনিংসে ৫২৯ রান সংগ্রহ করেছে মধ্যাঞ্চল। প্রথম ইনিংসে মধ্যাঞ্চলের হয়ে সেঞ্চুরি হাঁকান মার্শাল আইয়ুব ও ওপেনার সাদমান ইসলাম। ১৩২ রান করে আরিফুলের বলে আউট হন মার্শাল এবং ১০৭ রান করে আউট হন সাদমান। সেঞ্চুরি থেকে মাত্র ৬ রান দূরে থেকে শরিফুলের বলে আউট হন সাইফ হাসান। প্রথম ইনিংসে উত্তরাঞ্চলের হয়ে ৭৯ রান দিয়ে চারটি উইকেট লাভ করেন আরিফুল হক।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

মধ্যাঞ্চল (প্রথম ইনিংস) ৫২৯

মার্শাল ১৩২, সাদমান ১০৭ঃ আরিফুল ৪-৭৯

উত্তরাঞ্চল ২৮৬/৭

মুশফিক ১০১*, আরিফুল ৪২ঃ এবাদত ৩-৫৮

আরও পড়ুনঃ মাঠে সাপ ছেড়ে দেওয়ার হুমকি

Related Articles

শান্ত-মিজানের ব্যাটে স্বস্তির ‘ড্র’ উত্তরাঞ্চলের

বাংলাদেশের সেরা অলরাউন্ডার হতে চান আরিফুল

ক্রিকেটারদের কাছে এতটাই গুরুত্ববহ ঘরোয়া ক্রিকেট!

অভিষেকের অপেক্ষায় পাঁচ ক্রিকেটার!

টি-টোয়েন্টি স্কোয়াডে একাধিক চমক রাখার ব্যাখ্যা