ফুটবল নিয়ে বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের সতর্ক করলেন ট্রেনার

রোববার আফগানিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের প্রস্তুতি শুরু করেছে বাংলাদেশ দল। ক্যাম্পের প্রথম দিন সকল ক্রিকেটার দিয়েছেন ফিটনেস টেস্ট। সম্প্রতি অনেক ক্রিকেটারই অনুশীলনে নিজেকে ঝালাই করে নিতে ফুটবল খেলতে গিয়ে চোট পেয়েছেন। ক্রিকেটারদের ফুটবল নিয়ে সতর্ক করেছেন ট্রেনার মারিয়া ভিল্লাভারায়ন।

ফুটবল খেলতে গিয়ে ঝুঁকি আছে বলে মনে করেন মারিয়া ভিল্লাভারায়ন। তাই সবাইকে সতর্কতার সাথে খেলার আহ্বান জানান তিনি। বিশৃঙ্খলভাবে না খেলে গাইডলাইন অনুসরণ করে খেলানো হয় বলেই জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা ফুটবল খেলতে গিয়ে চোটের হাত থেকে বাঁচেন বলে জানান তিনি।

Also Read - রাইডুর শতক থামালো সাকিবদের জয়ের ধারা

তিনি বলেন, “যখন আমি থাকি, তখন আমি একটি গাইডলাইন ঠিক করে দেই যে এভাবে খেলতে হবে। যেন বিশৃঙ্খলভাবে না খেলে। এজন্যই জাতীয় দলে খেলার সময় ফুটবলে বড় কোনো ইনজুরি গত চার বছরে হয়নি।” 

ঘরোয়া ক্রিকেট চলাকালীন ফুটবল খেলার সময় ক্রিকেটারদের সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়ে বলেন,  “ঘরোয়া ক্রিকেটে বা অন্য জায়গায় তো আমি তাদের খেয়াল রাখতে পারব না। অবশ্যই এখানে ঝুঁকি আছে। দায়িত্বটি ক্রিকেটারদের নিজেদেরই নিতে হবে। নিজের ভালো বুঝতে হবে।”

দীর্ঘদিন ধরে বাংলাদেশ জাতীয় দলের ট্রেনার হিসেবে কাজ করছেন মারিয়া। এর আগে এমন ঘটনা মনে করতে পারছেন না তিনি। তিনি জানান বাংলাদেশের কোনো ক্রিকেটার ফুটবল খেলতে গিয়ে তার মেয়াদে এ প্রথমবার চোট পেয়েছে। দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে মুস্তাফিজুর রহমান গোড়ালিতে চোট পেলেও তা ফুটবলের কারণে নয় বলে জানান তিনি।

তিনি বলেন, “আমার চার বছরের মেয়াদে এবারই প্রথম মনে হয় ফুটবলে ইনজুরি হলো। এর আগে আর হয়নি। গত দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে মুস্তাফিজুর গোড়ালিতে চোট পেল, তবে সেটা ঠিক সরাসরি ফুটবল খেলতে গিয়ে হয়নি। হাঁটার সময় মচকে যায়, খেলায় নয়।”

 


আরো পড়ুন ঃ ‘বিপ টেস্টে’ সবার থেকে এগিয়ে মিরাজ, পিছিয়ে রুবেল