অলরাউন্ডার হওয়ার চ্যালেঞ্জ উপভোগ করেন সাকিব

প্রথম দুই ম্যাচ জিতে চলমান ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (সিপিএল)-এ উড়ন্ত সূচনা হয়েছিল সাকিব আল হাসানের দল জ্যামাইকা তালাওয়াহসের। কিন্তু তৃতীয় ম্যাচে হোঁচট খায় তারা, হেরে বসে গায়ানা আমাজন ওয়ারিয়র্সের কাছে সাত উইকেটের বড় ব্যবধানে। তারপরও বার্বাডোজ ট্রিডেন্টসের বিপক্ষে পরের ম্যাচেই ঘুরে দাঁড়ানোর ব্যাপারে আশাবাদী বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব।

image

“আমাদের এগিয়ে যেতে হবে,” সাকিব বলেন। “কারণ তিন ম্যাচে দুই জয় এক হার — আমরা ভাল অবস্থানেই আছি। এবং পরের ম্যাচে জিততে পারলে সেটা আমাদের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ হবে। আমরা খুশি মনে ঘরে (জ্যামাইকায়) ফিরতে পারব, কেননা চার ম্যাচে তিন জয় হবে সত্যিই দারুণ ব্যাপার।”

Also Read - মাছরাঙ্গার ঈদ আয়োজনে সাব্বির, তাসকিন ও সানি


এরপর সাকিব নিজের খেলা সম্পর্কেও কথা বলেন। যদিও তিনি বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার, তবু দাবি করেন ক্রিকেটে অলরাউন্ডারের ভূমিকা পালন করা বেশ কঠিন, তাও যদি আবার সেটি হয় খেলার সংক্ষিপ্ততম ফরম্যাটে। অবশ্য সাকিব এ-ও জানিয়ে দেন যে চ্যালেঞ্জ নেওয়া তিনি উপভোগই করেন।

“এটা চ্যালেঞ্জিং (টি-২০ ক্রিকেটে অলরাউন্ডার হওয়া)। তবে আমি এধরণের চ্যালেঞ্জ নিতে ভালোবাসি। অবশ্যই উন্নতির যথেষ্ট সুযোগ আছে। তবে আপাতত যেভাবে সবকিছু এগোচ্ছে তাতে আমি খুশি। কিন্তু দল হিসেবে, খেলোয়াড় হিসেবে, আমরা সবসময়ই উন্নতি করতে পারি।”

সাকিব আরও জানান, পৃথিবীর বিভিন্ন প্রান্তের ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টে বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করতে পেরে গর্বিত বোধ করেন তিনি। সাকিব বলেন, “বাংলাদেশকে প্রতিনিধিত্ব করা গর্বের বিষয়। বাংলাদেশের মানুষ ক্রিকেট পাগল, তারা খেলাটাকে ভালোবাসে। তাই তারা সিপিএলে আমাকে সমর্থন যোগাবে।”

– জান্নাতুল নাঈম পিয়াল, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটিম ডট কম

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন