আফিফের ক্যারিয়ার সেরা বোলিং

জাতীয় ক্রিকেট লিগের প্রথম রাউন্ডের ম্যাচে খুলনা বিভাগের বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ৫৫২ রানে থেমেছে রাজশাহী বিভাগ। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ১৬৩ রান করেছেন জহুরুল ইসলাম। অন্যদিকে খুলনার পক্ষে তরুণ আফিফ হোসেন ধ্রুব একাই নিয়েছেন ৭টি উইকেট। এই ডানহাতি স্পিনারের এটা ক্যারিয়ার সেরা বোলিং ফিগার। 

আফিফ হোসেন ধ্রুব। @ফেসবুক

রাজশাহীতে টায়ার-১ এর এই ম্যাচে দ্বিতীয় দিনশেষে ২৩৬ রানে এগিয়ে থেকে ব্যাট করতে নামে রাজশাহী। আগের দিন ৯১ রানে অপরাজিত থাকা জহুরুল ইসলাম অমি তুলে নেন শতক। অন্যপ্রান্তে স্পিনার সানজামুল ইসলামও দারুণ খেলতেছিলেন। ১৪৮ রানের জুটি গড়েন জহুরুল ও সানজামুল।

এদিকে আগের দিন তিন উইকেট নেয়া আফিফের আঘাতে এই জুটি ভাঙ্গে। দলীয় ৫২২ রানের মাথায় ৬৪ রান করা সানজামুলকে ফেরান এই স্পিনার। এরপর একাই লড়ে গেছেন জহুরুল ইসলাম। শেষ তিন ব্যাটসম্যানকে নিয়ে ৩০ রান যোগ করেন। জুটিতে দেলোয়ার ৩, তাইজুল ৩ ও শফিউল ০ রান করেন। ১৪৭ ওভারে ৫৫২ রানে শেষ হয় রাজশাহীর ইনিংস। শেষ পর্যন্ত ২৯০ বলে ২০ চারে ১৬৩ রানে অপরাজিত ছিলেন জহুরুল ইসলাম।

খুলনার পক্ষে ২১ ওভার বোলিং করে ৬৬ রান দিয়ে ৭ উইকেট নিয়েছেন আফিফ হোসেন ধ্রুব। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে এটি আফিফের সেরা বোলিং ফিগার। এর আগে ৯টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচের ১২ ইনিংসে বল করে সর্বসাকুল্যে ৭টি উইকেট পেয়েছিলেন তিনি। সেরা বোলিং ফিগার ছিল ৫১ রানে ২ উইকেট।

Also Read - এক নয় মাশরাফির তিন ইনজুরি

উল্লেখ্য, এর পূর্বে প্রথম ইনিংসে খুলনা বিভাগকে ২১০ রানে অলআউট করে রাজশাহী।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ 

খুলনা বিভাগ ১ম ইনিংস- ২১০; তুষার ১০৪, বিজয় ২৬; শফিউল ৪৩/৫, সানজামুল ২৫/২

রাজশাহী বিভাগ প্রথম ইনিংস-৫৫২/১০;  জহুরুল ১৬৩*, মিজানুর ১১৫, সানজামুল ৬৪, ; আফিফ ৬৬/৭

প্রথম ইনিংসে ৩৪২ রানে এগিয়ে রাজশাহী।

[আরও পড়ুনঃ টুইট বার্তায় রিয়াদের বিশাল ছক্কার স্মৃতিচারণ]

Related Articles

ব্যাটিং দৃঢ়তা দেখালেন জিয়া ও আফিফ

শুরুতেই ‘এ’ দলের সাফল্য

দ্বিগুণেরও বেশি বাড়ল রাজ্জাকদের বেতন

২৭৪ রানে থামলেন লিটন

অভিষেকের অপেক্ষায় পাঁচ ক্রিকেটার!