ইংল্যান্ডে বর্ণবাদের আরও তথ্য ফাঁস করলেন রানা

0
411

কিছুদিন আগেই ইয়র্কশায়ারে বর্ণবাদী আচরণের শিকার হয়ে আত্মহত্যার দিকে ঝুঁকে যাওয়ার মতো ভয়াবহ অভিজ্ঞতার কথা প্রকাশ করেন আজিম রফিক। তার সাথে একাত্মতা প্রকাশ করে পাকিস্তানি ক্রিকেটার রানা নাভিদ উল হাসান জানালেন তিনিও ইয়র্কশায়ারে একই অভিজ্ঞতার শিকার হয়েছিলেন।

ইংল্যান্ডে বর্ণবাদের আরও তথ্য ফাঁস করলেন রানা

Advertisment

এই পাকিস্তানি পেসার আজিমের কথার পুরোপুরি সমর্থন জানিয়েছেন। সম্প্রতি ক্রিকইনফোকে তিনি জানান, এশিয়ান ক্রিকেটারদের সাথে ইয়র্কশায়ার থেকে এরকম আচরণই দেখে এসেছেন তিনি। ভালো পারফর্ম করলে তারা কিছু বলতে পারতেন না। আর একটু পড়তি পারফর্ম হলেই এশিয়ান ক্রিকেটারদের সাথে বাজে ব্যবহার করা হতো।

রানা বলেন, ‘আজিম যা বলেছে তা আমি পুরোপুরি সমর্থন করি এবং এই ঘটনা আমার সাথেও ঘটেছে। আমি কখনো এসব প্রকাশ করিনি কারণ আমরা তো বিদেশি খেলোয়াড়, কিছুদিনের জন্য খেলি এবং এসবের সাথে ওই কয়েকদিন কোনোভাবে মানিয়েও নিই। তাই আমি শুধু আমার খেলার দিকেই মনোযোগ দিয়েছিলাম। আমি কখনো আমার চুক্তি (দলের সাথে) ভাঙতে চাইনি।’

তিনি আরও জানান তাকে ‘পাকি’ বলে ডেকে বিদ্রুপ করতেন দলের খেলোয়াড়েরা। অন্যদেরকে বিলাসী ঘরে থাকার ব্যবস্থা করা হলেও টিম হোটেলে তাকে খুপচি একটি ঘর দেওয়া হতো। রানার ভাষায়,

‘একটা সিস্টেমের মধ্যে থেকেই আমাদের বিদ্রুপ করা হতো। আবার আমরা যদি কোনো ম্যাচে ভালো পারফর্ম করতে না পারতাম তখন আমাদেরকে বিদ্রুপ করে পাকি ডাকা হতো। এশিয়ান খেলোয়াড়দের সাথে ওরা এরকম আচরণ করে থাকে। ধরেন, আমি একদিন উইকেট পেলাম না, তখনই আমাদের সাথে খারাপ ব্যবহার করা হবে। তারা আমাকে খুব ছোট একটা ঘরে থাকতে দিতো। যা থেকে দলের অন্যদের থেকে আমার সাথে বৈষম্যটা সরাসরিই দেখা যেত।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।