Scores

ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হচ্ছেন মুশফিক

কয়েক মাস আগে জাতিসংঘের শুভেচ্ছাদূত হয়েছিলেন জাতীয় দলের ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম ইকবাল। এবার জাতিসংঘের শশু তহবিল ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হচ্ছেন সাবেক অধিনায়ক ও জাতীয় দলের তারকা ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম।

শুভেচ্ছাদূত হিসেবে জনপ্রিয় এই ক্রিকেটারকে পেতে ইতোমধ্যে আলাপ-আলোচনা শুরু করেছে ইউনিসেফ বাংলাদেশ। প্রাথমিক আলোচনা শেষে চূড়ান্ত হবে, কবে মুশফিক ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে দায়িত্ব পালন শুরু করবেন।

Also Read - কোহলির ছবি দিয়ে প্রচারণা, লিগ বন্ধ করে দিল আকসু






তার আগে অবশ্য মুশফিককে দিয়ে ইউনিসেফের প্রচারণা শুরু হয়ে গেছে। বৃহস্পতিবার (১৩ আগস্ট) ইউনিসেফ বাংলাদেশের এক ফেসবুক পোস্টে মুশফিক ও তার ছেলে মায়ানের একটি ছবি পোস্ট করা হয়, যেখানে বাবা-ছেলে দুইজনই মাস্ক পরে আছেন।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক ব্যবহারে সতর্কতা সৃষ্টির উদ্দেশে ছবির ক্যাপশনে লেখা হয়, ‘মাস্ক করোনা ভাইরাস রোধে সবচেয়ে শক্তিশালী হাতিয়ার। তাই আমাদের সবার প্রিয় মুশফিকুর রহিমের মতন সবাইকে মাস্ক ব্যবহারে উৎসাহী করুন।’






মুশফিক ও মায়ানের এই ছবির মাধ্যমে অন্যদেরও সন্তানের মাস্ক পরা ছবি ও ভিডিও আহ্বান করেছে ইউনিসেফ বাংলাদেশ। পরামর্শ দিয়েছে বন্ধুদের জানানোর জন্যও।

ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে মুশফিকই অবশ্য প্রথম ক্রিকেটার নন। এর আগে শিশুদের জন্য গঠিত সংস্থাটির শুভেচ্ছাদূত হিসেবে কাজ করেছেন জাতীয় দলের সাবেক তিন অধিনায়ক হাবিবুল বাশার সুমন, মোহাম্মদ আশরাফুল ও সাকিব আল হাসান। আশরাফুল ও বাশার দুজনই ২০০৫ সালে ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে মনোনীত হয়েছিলেন। সাকিব এই মর্যাদা পেয়েছিলেন ২০১৩ সালে। এবার তাদের পাশে যুক্ত হচ্ছে দেশের ইতিহাসের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান মুশফিকের নামও।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

 

Related Articles

তরুণদের উদ্দেশ্যে তামিমের বার্তা

খারাপ অবস্থা কাটিয়ে উঠতে বেশিদিন লাগবে না: সাকিব

“কত যে সংগ্রাম করতে হয়েছে জীবনে”

ইউনিসেফের সাথে যুক্ত হলেন মিরাজ

বিসিবি ও ইউনিসেফের মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত