Scores

ইডেনে আরেকটি সল্টলেক উপাখ্যান তৈরি করতে পারবে ক্রিকেটাররা?

কলকাতায় শুক্রবার নিজেদের প্রথম দিবারাত্রি টেস্ট ম্যাচে মাঠে নামছে বাংলাদেশ ও ভারত। ১ম টেস্টে বেশ বাজেভাবে হেরে যাওয়া বাংলাদেশ দলের জন্য এক কঠিন চ্যালেঞ্জ হবে এই টেস্টে প্রতিদ্বন্দ্বিতা গড়ে তোলা। ব্যাটসম্যানদের মাঝে এক মুশফিকুর রহিম ছাড়া অন্য কেউ সামান্য প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারেননি। বোলিংয়ে স্পিনারদের বেশ সাদামাটা মনে হয়েছে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের বিপক্ষে।

ইডেনে আরেকটি সল্টলেক উপাখ্যান তৈরি করতে পারবে ক্রিকেটাররা? সাজিয়ে তোলা হয়েছে ইডেনের দেয়াল

কলকাতায় এই ঐতিহাসিক দিবারাত্রি টেস্টকে ঘিরে ইতিমধ্যে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা দেখা যাচ্ছে। প্রথম ৩ দিনের বেশিরভাগ টিকেটই বিক্রি হয়ে গিয়েছে। টেস্টের প্রথম দিন খেলা দেখার জন্য মাঠে প্রায় ৬০ হাজারের মতো দর্শক উপস্থিত হতে পারে আশা করা যাচ্ছে। বাংলাদেশ জাতীয় দল এর আগে কখনো টেস্টে এত বিশাল পরিমাণ দর্শকের সামনে খেলেনি। এই প্রথম সাদা পোশাকে এই পরিমাণ দর্শকের সামনে ঐতিহাসিক ইডেনে মাঠে নামবে বাংলাদেশ দল। ম্যাচের প্রথম দিন উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও পশ্চিমবঙ্গের মূখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। ইডেন গার্ডেনস ও এর আশেপাশের এলাকা বর্নিল রূপে সাজিয়ে তোলা হয়েছে এই টেস্টকে ঘিরে। তবে মূল প্রশ্ন আপাতত একটাই, বাংলাদেশ দল কি পারবে এই রকম বড় ম্যাচে সমানে সমানে লড়ে যেতে?

Also Read - ইডেনে যাচ্ছেন না বুলবুল ও রোকন


লড়াই করার জন্য বাংলাদেশ দলের অনুপ্রেরণা হতে পারে বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দল। ১ মাস আগেই কলকাতার সল্টলেকে হাজারো ভারতীয়র হৃদয় ভেঙ্গে দিয়ে আসে তারা। বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচে দুই দলের লড়াইয়ে পরিষ্কার ফেভারিট ছিলো ভারত ম্যাচের আগে। স্থানীয় মিডিয়ায় কথা উঠেছিলো ভারত বাংলাদেশের বিপক্ষে জিতবে কি হারবে সেটা কথা নয়, কথা হচ্ছে কত গোলের ব্যবধানে জিতবে। অথচ বাংলাদেশের ফুটবলাররা দুর্দান্ত পারফরম্যান্স দেখিয়ে পুরো ম্যাচেই নিজেদের আধিপত্য বিস্তার করে রাখে শক্তিশালী ভারতের বিপক্ষে। শেষ সময়ের গোলের আগ পর্যন্ত ১-০ ব্যবধানে এগিয়েও ছিলো। শেষ মুহুর্তের গোলে ১ পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছাড়লেও বেশ বড় ধাক্কা খায় ভারতীয় ফুটবল ভক্তরা। এটা যেনো তাদের বিশ্বাসের বাইরেই ছিলো ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশ এই রকম খেলতে পারবে।

ইডেনে আরেকটি সল্টলেক উপাখ্যান তৈরি করতে পারবে ক্রিকেটাররা?
ভারতের বিপক্ষে সল্টলেকে গোলের পর উদযাপনরত বাংলাদেশের সাদ, ছবি ইএসপিএন

ফুটবলের মতোই ক্রিকেটে কমপক্ষে টেস্ট ফরম্যাটে দুই দলের শক্তির বেশ বড় ব্যবধান। স্থানীয় মিডিয়াতেও প্রশ্ন তোলা হচ্ছে পাচদিনের এই দিবারাত্রি ম্যাচ বাংলাদেশের কল্যানে ৩ দিনের না হয়ে যায় ইন্দোর টেস্টের মতো। দর্শকরাও আগ্রহ দেখাচ্ছেন আপাতত শুধু ১ম ৩দিনের টিকিটের জন্যই। এ যেনো এক বড় সন্দেহ বাংলাদেশ দলের সামর্থ্যের উপর তারা এই টেস্ট ৩ দিনের বেশি নিয়ে যেতে পারবে কিনা?

বাংলাদেশ দলকে সাম্প্রতিক সময়ে বেশ চড়াই উতরাই এর মাঝ দিয়ে যেতে হচ্ছে।ক্রিকেটারদের আন্দোলনে হঠাৎ স্থবিরতা, সাকিবের নিষেধাজ্ঞা। এরপর ১ম টি টোয়েন্টিতে জয়ের পর কিছুটা স্বস্তি ফিরলেও পরবর্তী ম্যাচ গুলোতে সাধারণ পারফরম্যান্স ভাবিয়ে তুলেছে ভক্তদের। শক্তির বড় পার্থক্য থাকার পরও সল্টলেকে যেভাবে লড়াই করেছিলো বাংলাদেশের ফুটবলাররা ক্রিকেটারদের জন্য আপাতত ইডেনে সেই লড়াকু মনোভাবটা দেখানোই সবচাইতে বড় চ্যালেঞ্জ। জয় বা হার নয় দর্শকরা আশা করে টাইগাররা শেষ পর্যন্ত লড়াই করবে নিজেদের সর্বোচ্চ সামর্থ্য দিয়ে ইডেনে । বিশ্বজুড়ে কোটি কোটি ক্রিকেট ভক্তের নজরে থাকা গোলাপী বলের টেস্টে ইডেনে ভক্তদের হতাশ করবেনা বাংলাদেশ দল এটাই লাখো টাইগার ভক্তের প্রত্যাশা।

প্রথমবারের মত বিডিক্রিকটাইম নিয়ে এলো অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন। বাংলাদেশ এবং সকল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বল বাই বল লাইভ স্কোর, এবং সাম্প্রতিক নিউজ সহ সবকিছু এক মুহূর্তেই পাবেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় অনলাইন পোর্টাল BDCricTime এর অ্যাপে। অ্যাপটি ডাউনলোড করতে গুগল প্লে-স্টোর থেকে সার্চ করুন BDCricTime অথবা ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

Related Articles

ভিন্ন ভূমিকায় খুলছে ইডেন

সেদিন পুরো কলকাতা বাংলাদেশের বিপক্ষে পাকিস্তানকে সমর্থন দেয়!

বৃষ্টিতে বিঘ্ন ঘটা ম্যাচের সমাধান দিলেন গাঙ্গুলি

আইপিএলের আসর থেকে আটক ৭ জুয়াড়ি

পারলেন না সাকিব, হার দিয়ে শুরু হায়দরাবাদের