Scores

ইনজুরি নিয়ে দুশ্চিন্তা নেই সাইফউদ্দিনের

বিশ্বকাপের আগে বাংলাদেশ ক্রিকেটের দুশ্চিন্তা হয়ে দাঁড়িয়েছে ইনজুরি। বিশ্বকাপ স্কোয়াডের বিবেচনায় আছেন- এমন ৭ জন ক্রিকেটার পড়েছেন চোটে। কারও চোট সেরে উঠার পথে থাকলেও অনেকেই খেলছেন চোট নিয়ে। এমনই একজন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন।

ইনজুরি নিয়ে দুশ্চিন্তা নেই সাইফউদ্দিনের

টেনিস এলবোর চোটে ভোগা এই অলরাউন্ডার দিব্যি খেলে যাচ্ছেন ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে। ইনজেকশন দিলে ব্যথা সেরে যাওয়ার সুযোগ থাকলেও তাতে বিশ্রামে থাকতে হবে ২১ দিন, আর তাই চোট নিয়েই খেলে যাচ্ছেন।

Also Read - রাফি হত্যা: লজ্জিত সাইফউদ্দিন


তবে শুক্রবার (১২ এপ্রিল) সংবাদমাধ্যমের সাথে আলাপকালে তরুণ এই ক্রিকেটার জানালেন, চোট নিয়ে খুব একটা দুশ্চিন্তা নেই তার।

পেস বোলার হিসেবে চোটকে স্বাভাবিকভাবে দেখছেন সাইফউদ্দিন। তিনি বলেন, ‘পেস বোলারদের টুকটাক ইনজুরি থাকবেই। এটা মাথায় নিয়েই খেলতে হবে। শতভাগ ফিট পেসার খুব কম থাকেন।’

পেসার হওয়ার ইনজুরির সাথে লড়াই নতুন কিছু নয়। সাইফউদ্দিনও যেন এতে অভ্যস্ত হয়ে পড়েছেন! তিনি বলেন, ‘আমি ইনজুরিতে অভ্যস্ত হয়ে গেছি। আমি তো ম্যাচ খেলতে পারছি। যদি পারতাম না নিজেই বলতাম আমি ফিট না।’

‘মাথায় ইনজুরি নিয়ে খেললেই ইনজুরির ব্যাপারটা সামনে আসবে। তাই এটা নিয়ে চিন্তিত না হয়ে ম্যাচ বাই ম্যাচ খেলে যাওয়া উচিত হবে।’– বলেন তিনি।

বিশ্বকাপে ট্রেনার-ফিজিওদের পরামর্শ মেনে চললে বিশ্বকাপ কোনো বাধা হয়ে উঠবে না বলে মনে করেন সাইফউদ্দিন। তার ভাষ্য, ‘যথাসম্ভব ফিট থাকার চেষ্টা করি। ফিজিও ট্রেনারদের পরামর্শ মেনে চললে আশা করি চোট থেকে আমরা দূরে থাকতে পারব।’

সাইফউদ্দিন মনে করেন, ইনজুরি নিয়ে ভাবতে গেলেই ব্যাপারটি সমস্যা হয়ে দাঁড়ায়। আর তাই বয়সভিত্তিকের কোচের পরামর্শ মেনে তার দাবি, ‘বয়সভিত্তিক ক্রিকেটে আমার কোচ আমাকে সব সময়ই বলতেন, যদি তুমি ইনজুরি নিয়ে বেশি ভাবো তাহলে এটা তোমার খেলাকে ধ্বংস করে দেবে। তাই আমি সব সময় ইনজুরির চিন্তা বাদ দিয়ে খেলার চেষ্টা করি।’

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন


Related Articles

ক্ষমা চেয়ে শাস্তি এড়াল শ্রীলঙ্কা

শ্রীলঙ্কার অভিযোগ আমলেই নিল না আইসিসি

চাকরি ছাড়বেন, তবু আইসিসির অন্যায় মেনে নিবেন না!

বিশ্বকাপের জানা-অজানা নিয়মগুলো

রিজার্ভ ডে না থাকার কারণ জানাল আইসিসি