একাদশে জায়গা পেতে মরিয়া রুবেল

Rubel-Hossain-Bdcricteam

মোঃ সিয়াম চৌধুরী

Advertisment

পেসারদের মধ্যে তিনিই সবচেয়ে ফিট। জাতীয় দলের জার্সি গায়ে মাঠ দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন নিয়মিতভাবেই। বাংলাওয়াশের মতো শব্দের আবির্ভাবের ক্ষেত্রে তাঁর চমক জাগানো পারফরমেন্সের অবদানও কম নয়। কিন্তু সেই রুবেলই কিনা দলে অনিশ্চিত ছিলেন বিশ্বকাপের মাসখানেক আগে! তবে সকল ঝামেলা আর বিতর্ককে পিছনে ফেলে রুবেল তৈরি বিশ্বকাপের জন্য। বুধবার দেশে অনুশীলন পর্বের শেষ দিনে সংবাদ সম্মেলনে রুবেল জানালেন বিশ্বকাপ ও দল নিয়ে তাঁর ভাবনার কথা।

খেলার জন্য সবসময় প্রস্তুত থাকেন জানিয়ে রুবেল বিশ্বকাপকে নিচ্ছেন একটা চ্যালেঞ্জ হিসেবে। বড় মঞ্চে ভালো করার তাড়নায় নিজেকে প্রস্তুত করছেন নতুনভাবে। তবে ভালো পারফরমেন্সের জন্য আগে প্রয়োজন মাঠে নামা, তাই একাদশে জায়গা পাওয়াটাই রুবেলের কাছে বেশী গুরুত্বপূর্ণ। সুযোগ পেলে ভালো পারফরমেন্স করায় আশাবাদী রুবেল। সেই সাথে জানালেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে বর্তমান বিরতিটি তেমন সমস্যা সৃষ্টি করবে না, ‘আসলে এটা এমন কোনো বিষয় নয়। অনেক দিন অনুশীলনে আছি আমরা। প্রিমিয়ার লিগ খেলেছি। সবকিছু ঠিকই আছে।’- সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন রুবেল।

অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের পেস কন্ডিশন বাংলাদেশের জন্য খানিক সমস্যার কারণ হলেও একজন পেসার হিসেবে রুবেলের কাছে তা স্বর্গ। সেটা মনে করিয়ে দিয়ে রুবেল জানালেন, ‘আমাদের দেশে তেমন বাউন্সি উইকেট থাকে না। আমরা সচরাচর পাইও না। অস্ট্রেলিয়ার কন্ডিশনে আমাদের পেস বোলারদের জন্য একটা সুযোগ । এ সমস্ত উইকেটে আমাদের বুদ্ধি খাটিয়ে বল করতে বাধ্য হব। সুযোগ পেলে সেটা কাজে লাগানোর চেষ্টা করব। তবে ব্যক্তিগতভাবে সে রকম কোনো টার্গেট আসলে সেট করিনি। আমার মূল টার্গেট ভাল খেলতে হবে।’

নিজের দ্বিতীয় বিশ্বকাপ খেলতে যাওয়া এই খেলোয়াড় সাম্প্রতিক ঝামেলাগুলোকে পাশ কাটিয়ে পাখির চোখ করে রাখছেন বিশ্বকাপের মাঠকে। সেই সাথে তৃপ্তি প্রকাশ করলেন পেস কন্ডিশনে খেলার সুযোগ পেয়ে- ‘আমি আসলে এটাকে চাপ মনে করছি না। আমি অস্ট্রেলিয়ার কন্ডিশনে খেলার জন্য সুযোগ পেলাম। এটাকে আমি বাড়তি কোনো চাপ মনে করছি না।’ মানসিক অস্থিরতা দূর করে এখন নিজেকে পুরোপুরি চাপমুক্ত দাবী করলেন রুবেল, ‘আমি একটা মানসিক চিন্তার মধ্যে ছিলাম। এখন এর কোনো কিছুই আমার মাথার মধ্যে নেই। আমি এটা নিয়ে চিন্তাও করছি না। আমার মূল টার্গেট হচ্ছে ক্রিকেট খেলা। দেশের জন্য খেলব। দেশের হয়ে বিশ্বকাপে যাচ্ছি- এটাই আমার জন্য অনেক বড় কিছু। ওখানে কিভাবে ভাল করতে হবে- এটাই আমার মাথায় এখন চিন্তা। কিছুদিন ধরে আমার জীবনে অনেক কঠিন সময় গিয়েছে। এটা নিয়ে পড়ে থাকতে চাই না। আমাদের সামনে অনেক বড় একটা মিশন। এ মিশনটা আমরা কিভাবে সফল করব সে দিকেই ফোকাস করছি।’