ওয়ার্নারকে দল থেকে বের করে দিয়েছিলেন শেবাগ!

ক্রিকেট মাঠের বাইরেও ক্রিকেটারদের নিয়ে কত অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটে যায়। জন্ম দেন কত বিতর্কের। তাই ক্রিকেটের আঙিনায় আছেন এক ঝাঁক ব্যাড বয়, যারা দুর্দান্ত পারফরম্যান্স ছাপিয়ে মাঝেমাঝে বিতর্কিত কারণে আলোচনায় আসতে পটু। তেমনই একজন ডেভিড ওয়ার্নার।

ওয়ার্নারকে দল থেকে বের করে দিয়েছিলেন শেবাগ!
দিল্লী ডেয়ারডেভিলসে ওয়ার্নার খেলতেন শেবাগের অধীনে।

এবার ওয়ার্নারের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলা ভঙ্গের পুরনো এক কাহিনী জানালেন বীরেন্দর শেবাগ, বেফাঁস কথাবার্তার কারণে যিনি নিজেও প্রায়ই হয়ে থাকেন বিতর্কের অংশ। প্রায় এক যুগ আগে ওয়ার্নার যখন আইপিএল খেলতে এসেছিলেন, তখন নাকি তাকে দল থেকে বের করে দিয়েছিলেন শেবাগ!

Advertisment

অস্ট্রেলিয়ান সুপারস্টার ডেভিড ওয়ার্নার ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের এবারের আসরে খেলছেন দিল্লী ক্যাপিটালসের হয়ে। এক যুগেরও বেশি সময় আগে, ২০০৯ সালে দিল্লীর দল দিল্লী ডেয়ারডেভিলসের হয়েই শুরু হয় তার আইপিএল ক্যারিয়ার। ২০১৩ সাল পর্যন্ত দিল্লীর হয়েই খেলেছেন তিনি। এরপর থিতু হন সানরাইজার্স হায়দরাবাদে, যেখানে ৮ মৌসুম খেলার পর ওয়ার্নার আবারও ফিরেছেন দিল্লী ক্যাপিটালসের ডেরায়।

তবে দিল্লী ডেয়ারডেভিলসের হয়ে তার শুরুটা এমন দাপুটে ছিল না। ২০০৯ সালে ওয়ার্নার ছিলেন সম্ভাবনাময় এক তরুণ ক্রিকেটার। তখন সেই দলের অধিনায়ক ছিলেন বীরেন্দর শেবাগ। ওয়ার্নার নাকি সব সময় মজমাস্তিতেই মেতে থাকতেন। আর তাই মেজাজ হারিয়ে শেবাগ ওয়ার্নারকে দিয়েছিলেন উচিৎ শিক্ষা। কী সেই উচিৎ শিক্ষা? হ্যাঁ, শেবাগ সবচেয়ে নিষ্ঠুর পথই অবলম্বন করেছিলেন, ওয়ার্নারকে দল থেকে বের করে দিয়েছিলেন!

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে সেই সময়ের কথা ফাঁস করেছেন শেবাগ। তিনি বলেন, ‘আমি দলের কিছু খেলোয়াড়ের উপর প্রচণ্ড রাগ প্রকাশ করেছিলাম। ডেভিড ওয়ার্নার ছিলেন তাদের মধ্যে একজন। সে তখন দলে মাত্র যোগ দিয়েছে। কিন্তু অনুশীলন বা খেলার চেয়ে তার বেশি মনোযোগ ছিল পার্টি করার দিকে। প্রথম বছরে দলের কিছু খেলোয়াড়ের সঙ্গে তার ঝগড়াও হয়েছিল। তাই আমরা তাকে শেষ দুটি ম্যাচের আগে ফেরত পাঠিয়েছিলাম।’

ওয়ার্নারকে দল থেকে বের করে দিয়েছিলেন শেবাগ!
দিল্লী ডেয়ারডেভিলসের হয়ে খেলার সময় ওয়ার্নার ও শেবাগ।

আইপিএলে তরুণ ক্রিকেটাররা বখে যান- এমন অভিযোগ অনেক দিনের। হয়ত ওয়ার্নারও হেঁটেছিলেন সেই পথেই। আলো আর গ্ল্যামারের রোশনাই যে ভালো ফল বয়ে আনতে পারে না- ওয়ার্নারকে সেই শিক্ষা দেওয়ার জন্যই তাকে বের করে দিয়েছিলেন শেবাগ। আর এ নিয়ে এখনও তার কোনো আক্ষেপ নেই।

তিনি বলেন, ‘কখনও কখনও এমন হয় যে আপনি কিছু লোককে শিক্ষা দিতে চান এবং তার জন্য তাকে দল থেকে বের করে দিতে বাধ্য হন। সে ছিল একজন নতুন খেলোয়াড়, তাই তাকে বুঝতে হত যে শুধু সে-ই দলের জন্য গুরুত্বপূর্ণ না, বাকিরাও আছে। আপনার জায়গায় অন্য খেলোয়াড় আছে যারা খেলতে পারে এবং দলকে জেতাতে পারে। আমরা তাকে দলের বাইরে রেখেছি এবং তাকে ছাড়া ম্যাচও জিতেছি।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।