করোনার হানায় পিছিয়ে গেল শ্রীলঙ্কা-ভারত সিরিজ

মাঠে গড়ানোর মাত্র ৩ দিন আগে পিছিয়ে গেল স্বাগতিক শ্রীলঙ্কা ও সফরকারী ভারতের মধ্যকার ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ। করোনার হানায় সিরিজ দুটি পেছাতে বাধ্য হয়েছে আয়োজক শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট (এসএলসি), যে সিদ্ধান্তে সম্মতি দিয়েছে ভারতীয় বোর্ড বিসিসিআইও।

করোনার হানায় পিছিয়ে যাচ্ছে শ্রীলঙ্কা-ভারত সিরিজ

Advertisment

দুই বোর্ডের সম্মিলিত সিদ্ধান্তে সিরিজটি ৫ দিন পিছিয়েছে। সিরিজ শুরুর আগে শ্রীলঙ্কার ক্রিকেটারদের কোয়ারেন্টিন সম্পন্নের জন্যই এই সিদ্ধান্ত। ১৩ জুলাই ওয়ানডে সিরিজ দিয়ে দুই দলের দ্বিপাক্ষিক লড়াই শুরুর কথা থাকলেও সিরিজটি শুরু হবে ১৮ জুলাই থেকে।

ওয়ানডে সিরিজের বাকি দুই ম্যাচ কবে অনুষ্ঠিত হবে তা এখনও জানানো হয়নি। তবে দুই সিরিজ আগে ২৫ জুলাই শেষ হওয়ার কথা থাকলেও এবার তা শেষ হবে ২৯ জুলাই।

সম্প্রতি ইংল্যান্ড সফর শেষ করে দেশে ফেরেন লঙ্কানরা। দেশে ফেরার পর কোয়ারেন্টিনে ছিলেন ইংল্যান্ড ফেরত ক্রিকেটার, কোচ, কর্মকর্তারা। সেখানে রুটিনমাফিক করোনা পরীক্ষা করা হয় তাদের। তাতে ৮ জুলাই ব্যাটিং কোচ গ্র্যান্ট ফ্লাওয়ারের নমুনা পরীক্ষার ফলাফল পজিটিভ আসে। ৯ জুলাই পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হন অ্যানালিস্ট জিটি নিরোশান। এরপরই সিরিজ পিছিয়ে নেওয়ার ব্যাপারটি আলোচনায় আসে।

ফ্লাওয়ার ও জিটি নিরোশানের করোনা পরীক্ষার ফল পজিটিভ আসার পর গোটা দলকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে, আরোপ করা হয়েছে কঠোর নিয়ম। শ্রীলঙ্কার দলটির কেউই হোটেলে নিজেদের কক্ষ থেকে বের হতে পারবেন না। ভারত সিরিজ শুরুর আগে দলকে বিশেষত খেলোয়াড়দেরকে আরও কয়দিন কোয়ারেন্টিনে রাখতে চায় এসএলসি।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।