কুমিল্লার সাথে জিতে শেষ চারের আশা বাঁচিয়ে রাখল চট্টগ্রাম

নিজেদের ৭ম ম্যাচে এসে ৬ষ্ঠ হারের মুখ  দেখল ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা ভিক্টরিয়ান্স। চট্টগ্রামে চিটাগাং ভাইকিংস এর কাছে এবার তাদের হার ৬ উইকেট। ১৮৪ রানের টার্গেট ৪ বল বাকি থাকতেই পার হয়ে যায় স্বাগতিকরা।

nabi

 

Also Read - লন্ডনে শুরু হলো বিসিএসএ'র সদস্য নিবন্ধীকরণ


টস জিতে ব্যাটিং এর সিদ্ধান্ত নিয়ে সবাইকে চমকে দেন অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। কিন্তু সেই চমক কে বেশিক্ষণ চমক থাকতে দেন নি কুমিল্লার টপ ওয়ার্ডার। বরাবরের মত ব্যর্থ কুমিল্লার ওপেনিং জুটিতে এবার আসে  ২৯ রান। তাসকিনের বলে বোল্ড হয়ে শান্ত ফিরে যান ড্রেসিংরুমে।

ইমরুল কায়েসের সাথে জুটি গড়েন ওপেনার খালিদ। ৫৩ বলে ৫ ছয় আর ছয় চারে ৭৫ রান করে রান আউট হন খালিদ। এর আগে ৯৭ রানে ভুল বুঝাবুঝির শিকার হয়ে ২৬ বলে ৩৬ রান করে আউট হন ইমরুল কায়েস। শেষদিকে শেহজাদের ২৫ বলে ৪০ রানের ইনিংসে ১৮০ এর বেশি রান করতে সক্ষম হয় কুমিল্লা।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে উড়ন্ত সূচনা করেন চট্টগ্রামের ব্যাটসম্যানরা। ২ ওভার ৪ বলে তুলে ফেলে ২৮ রান। এরপর ম্যাশের বলে আউট হয়ে যান ১২ বলে ২১ রান করা স্মিথ। এনামুলের সাথে ৬১ রানের জুটি গড়েন তামিম ইকবাল।

এরপর দুই ওভারের ব্যবধানে তামিম ও এনামুল ফিরে গেলে জয়ের আশা জাগে কুমিল্লার। ২৭ বলে ৩০ রান করেন তামিম। আর ৩০ বলে ৪০ রান করেন অধিনায়ককে সঙ্গ দেয়া এনামুল।

মালিকের সাথে নবীর পার্টনারশীপেই ম্যাচ হাত থেকে  বেরিয়ে যায় কুমিল্লার। ২৪ বলে ২ ছয় আর চার চারে ৪৬ রান করে অপরাজিত থাকেন নবী। ২৫ বলে ৩৮ রান করেন শয়েব মালিক। শেষদিকে মালিককে আউট করলেও বড্ড দেরি হয়ে গেছে তখন। চার বল বাকি থাকতেই ম্যাচ জিতে নেয় চট্টগ্রাম ।

  • রাইয়ান কবির, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটিম ডট কম
নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন