SCORE

কোহলি-রাহানের ব্যাটে ভারতের লড়াই

ট্রেন্ট ব্রিজে পাঁচ ম্যাচের সিরিজের তৃতীয় টেস্টের প্রথম দিনে স্বাগতিক ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ব্যাট হাতে অবশেষে লড়াই করলো ভারত। অধিনায়ক বিরাট কোহলি আর আজিঙ্কা রাহানের ব্যাটে ভর করে  সিরিজে প্রথমবারের মতো তারা পার করেছে তিনশ’ রানের চৌকাঠ। তবে দুজনই পুড়েছেন থিতু হয়ে শতক না পাওয়ার আফসোসে।কোহলি-রাহানের ব্যাটে ভারতের লড়াই

টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন ইংল্যান্ডের অধিনায়ক জো রুট। উদ্বোধনী জুটিটা ভালোই হয় ভারতের। দুই ওপেনার শিখর ধাওয়ান এবং লোকেশ রাহুল দলকে ৬০ রানের ভিত গড়ে দেন। তাদের জুটি ভাঙেন পেসার ক্রিস ওকস। শিখর ধাওয়ানকে ফিরিয়ে দিয়ে দলকে প্রথম সাফল্য এনে দেন ক্রিস ওকস। ওকসের বলে বাটলারের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান শিখর ধাওয়ান। ৭ চারের সাহায্যে ৬৫ বলে ৩৫ রান করে সাজঘরে ফিরেন শিখর ধাওয়ান।

উদ্বোধনী জুটিতে শক্ত ভিত গড়লেও এরপর ক্রিস ওকসের তোপের মুখে পড়ে ভারত। সবকিছু এলোমেলো করে দেন ক্রিস ওকস। নিজের পরের ওভারে ফিরিয়ে দেন আরেক ওপেনার লোকেশ রাহুলকে। নিজের দুই ওভারে দুই ওপেনারকে ফিরিয়ে দেন তিনি। ২৩ রান করে এলবিডব্লিউ হন লোকেশ রাহুল।

Also Read - দুঃসংবাদ পেল ভারত

চেতেশ্বর পুজারাকেও বড় স্কোর গড়তে দেননি ক্রিস ওকস। ৩১ বলে ১৪ রান করে ওকসের বলে ক্যাচে দেন আদিল রশিদের হাতে। ২২ রানের মধ্যে পতন ঘটে তিনটি উইকেটের। পুজারাকে হারিয়ে প্রথম সেশন শেষ করে ভারত।

৮২ রানে তিন উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে ভারত। আবারও ব্যাটিং ধসের শঙ্কার মেঘ জমে। বিপর্যয় কাটান আজিঙ্কা রাহানে ও বিরাট কোহলি। দূর করেন ধসের শঙ্কা। তাদের জুটিতে ভর করে আবারো ফিরে আসে ভারত। কোহলি ও রাহানে মিলে গড়েন ১৫৯ রানের জুটি। দুজনই পরিচয় দেন দৃঢ়তার। এ জুটি ভারতকে বিপদ থেকে উদ্ধার করে। আজিঙ্কা রাহানেকে সাজঘরের পথ দেখিয়ে তাদের জুটি ভাঙেন স্টুয়ার্ড ব্রড।

শতকের সম্ভাবনা জাগিয়েছিলেন আজিঙ্কা রাহানে। কিন্তু ফিরে যান ৮১ রান করে। ইনিংস সাজান ১২ চারে। রাহানে ফিরে গেলেও এক প্রান্ত আগলে রাখেন বিরাট কোহলি। হার্দিক পান্ডিয়ার সঙ্গে গড়ে তুলেন ৩৮ রানের জুটি।

শতকের আরো কাছাকাছি গিয়েছিলেন কোহলি। তবে তিনিও পারেননি। মাত্র তিন রানের জন্য টেস্ট ক্রিকেটের ২৩ তম ও সিরিজের দ্বিতীয় শতক হাঁকাতে পারেননি ভারতের অধিনায়ক। আদিল রশিদের বলে বেন স্টোকসের হাতে ক্যাচ দিয়ে যখন ফিরে যান তখন তার রান ৯৭। ১৫২ বলে ৯৭ রানের ইনিংসে তিনি হাঁকান ১১ চার।

এরপর নামেন অভিষিক্ত রিশাভ পান্ট। পান্ট ও হার্দিক পান্ডিয়া মিলে গড়েন ২৮ রানের জুটি। দিনটা আরও ভালো হতে পারত সফরকারীদের। তবে তা হতে দেননি ইংল্যান্ডের পেসার জেমস অ্যান্ডারসন। দিনের শেষ বলে জেমস অ্যান্ডারসন ফিরিয়ে দেন হার্দিক পান্ডিয়াকে। ৪ চারে ৫৮ বলে ১৮ রান করে হার্দিক পান্ডিয়া ক্যাচ দেন জস বাটলারের হাতে। হার্দিক পান্ডিয়াকে ফিরিয়ে দিয়ে ইংল্যান্ডের শিবিরে স্বস্তি এনে দেন জেমস অ্যান্ডারসন।

ছক্কা দিয়ে টেস্ট ক্যারিয়ারের রানের খাতা খুলেন রিশাভ পান্ট। ভারতের ইনিংসেও সেটি ছিল প্রথম ছক্কা। ২ চার আর ১ ছক্কায় ৩২ বলে ২২ রান করে অপরাজিত আছেন রিশাভ পান্ট। দিনশেষে ভারতের সংগ্রহ ৬ উইকেটের বিনিময়ে ৩০৭। নতুন ব্যাটসম্যানকে সঙ্গে নিয়ে দ্বিতীয় দিন শুরু করবেন রিশাভ। লোয়ার অর্ডারের ব্যাটসম্যানদের সাথে নিয়ে দলের স্কোরকে আরো সমৃদ্ধ করার চ্যালেঞ্জ এ অভিষিক্ত তরুণের সামনে।

তিন উইকেট শিকার করেছেন ক্রিস ওকস। একটি করে উইকেট লাভ করেছেন জেমস অ্যান্ডারসন, আদিল রশিদ এবং স্টুয়ার্ট ব্রড।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

ভারত (প্রথম ইনিংস), ৩০৭/৬, ৮৭ ওভার (প্রথম দিনশেষে)
কোহলি ৯৭, রাহানে ৮১, ধাওয়ান ৩৫
ওকস ৩/৭৫, রশিদ ১/৪৬, অ্যান্ডারসন ১/৫২


আরো পড়ুনঃ সাকিবের বিকল্প নিয়ে এখনই ভাবছেন না নান্নু


 

Related Articles

দ্রুততম’র তালিকায় ইমরুল যেখানে চতুর্থ

আফগানিস্তানকে ২৫০ রানের লক্ষ্য ছুঁড়ে দিল বাংলাদেশ

কুকের বদলি নিয়েই শ্রীলঙ্কা যাচ্ছে ইংল্যান্ড

বাংলাদেশের অসহায় আত্মসমর্পণ

মিরাজ-মাশরাফির দৃঢ়তায় বাংলাদেশের সম্মানজনক সংগ্রহ