কোয়ারেন্টিনে নিম্নমানের খাবার সরবরাহের অভিযোগ ভারতীয়দের

0
566

আগামী ১০ জানুয়ারি থেকে ভারতে ঘরোয়া ক্রিকেট ফিরতে যাচ্ছে। তবে মাঠে ক্রিকেট ফেরার আগেই বিতর্কের সম্মুখীন হতে হলো বিসিসিআইকে। টুর্নামেন্টটির খেলোয়াড়দের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিনে নিম্নমানের খাবার সরবরাহের অভিযোগ করেছেন তারা।

কোয়ারেন্টিনে নিম্নমানের খাবার সরবরাহের অভিযোগ ভারতীয়দের

Advertisment

করোনাভাইরাসের আক্রমণের পরে থেকে ভারতে এখনো ঘরোয়া ক্রিকেটও ফেরেনি। প্রায় ১০ মাস পরে ঘরোয়া ক্রিকেট পুনরায় শুরু করার সব বন্দোবস্ত করে ফেলেছে বিসিসিআই। এরইমধ্যে আবার প্রশ্নবিদ্ধ হলো তাদের দায়িত্ব। নিম্নমানের খাবার সরবরাহ নিয়ে বোর্ডের কাছে অভিযোগ করেছে খেলোয়াড়রা। এসব তদারকি শুরুতেই বোর্ডের করার কথা থাকলেও না করার ফলে এমন বিতর্কের সৃষ্টি হওয়ায় বিসিসিআই গুরুত্ব দিয়ে বিষয়টি আমলে নিয়েছে।

আগামী ১০ জানুয়ারি থেকে শুরু হবে টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফি। তার আগে খেলোয়াড়দের করোনাভাইরাস টেস্ট করানো হয়েছে। ছয়টি ভেন্যুতে খেলা হবে। কোভিড টেস্টে নেগেটিভ ফলাফল পাওয়া ক্রিকেটাররা টিম হোটেলে উঠেছেন ২ জানুয়ারি। ৬ দিনের কোয়ারেন্টিন পালন করতে হবে। মুম্বাইয়ের এক অভিজাত হোটেলে আছে তিন দলের ক্রিকেটাররা। সেখানেই এই অভিযোগ করেন তারা।

ভারতীয় এই ঘরোয়া ক্রিকেটারদের অভিযোগ তাদেরকে খুব নিম্নমানের খাবার দেওয়া হচ্ছে। যে ভাত খেতে দেওয়া হচ্ছে তার চালের মান খারাপ এবং রান্নার মানও ভালো নয়। তরকারিও দেওয়া হচ্ছে নিম্নমানের। বিশেষ করে করোনাভাইরাসের এই সময়কালে ও কোয়ারেন্টিনে থাকাকালীন নিম্নমানের খাবার সরবরাহ দেখে চটে গিয়েছেন ক্রিকেটাররা।

মুম্বাই দলের ম্যানেজার আরমান মালিক নিশ্চিত করেছেন, তাদের এই অভিযোগের কথা। বিসিসিআইয়ের পক্ষ থেকেও গুরুত্ব দিয়ে নেওয়া হয়েছে অভিযোগটি।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।