Scores

গম্ভীরের নামে প্রতারণার মামলা

ক্রিকেট ছেড়ে এখন রাজনীতিতে থিতু হয়েছেন ভারত জাতীয় দলের সাবেক ওপেনার গৌতম গম্ভীর। দেশটির ক্ষমতাসীন দলের টিকেটে নির্বাচিত হয়েছেন সংসদ সদস্য। সবকিছু চলছিলো বেশ, তবে হঠাৎ করে এবার প্রতারণার মামলায় ফেঁসে গেলেন গম্ভীর। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ এনেছে খোদ দিল্লি পুলিশ।

গৌতম গম্ভীর

২০১১ সালের ঘটনা। তখন ভারতীয় ক্রিকেট দলে নিজের সেরা সময়টা পার করছেন গম্ভীর। মাঠের পারফরম্যান্সের ছাপ পড়তে শুরু করে মাঠের বাইরেও। চুক্তি করেন রুদ্র বিল্ডওয়েল রিয়েলটি প্রাইভেট লিমিটেড এবং এইচ ইনফ্রাসিটি প্রাইভেট লিমিটেড নামের দুইটি রিয়েল এস্টেট সংস্থার সাথে। যেখানে ব্যান্ড অ্যাম্বাসেডরের সাথে ডিরেক্টরদের একজন হন গৌতম গম্ভীর।

Also Read - দূরন্ত মৃত্যুঞ্জয়ে উড়ন্ত বাংলাদেশ


সেসময় গাজিয়াবাদের ইন্দ্রপুরমে ফ্ল্যাট বুকিংয়ের জন্য এই দুই রিয়েল এস্টেট কোম্পানিকে কয়েক কোটি টাকা দিয়েছিলেন ৫০ জনের বেশি মানুষ। কিন্তু এখনো পর্যন্ত তাঁরা ফ্ল্যাটের চাবি বুঝে পাননি। যার কারণে সেই রিয়াল এস্টেট কোম্পানির নামে প্রতারণার অভিযোগে মামলা করেছিলেন ক্রেতাদের অনেকে।

যেহেতু গম্ভীরকে সেই সময় ওই প্রোজেক্টের জন্য প্রচার প্রচারণা চালাতে দেখা যেত। তাই এমন অবস্থায় প্রতারণার দায় এড়াতে পারেন না গম্ভীর। সেকারণেই এই মামলার জন্য জমা দেওয়া সাপ্লিমেন্টারি চার্জশিটে বিজেপি সাংসদ গৌতম গম্ভীরের নাম অন্তর্ভুক্ত করল দিল্লি পুলিশ।

পুলিশের চার্জশিটে বলা হয়েছে, ২০১৩ সালের ৬ জুন ওই বিল্ডিংয়ের অনুমোদিত প্ল্যান জমা দেওয়ার সময়সীমা ফুরিয়ে যায়। কিন্তু, ২৩ জুনের পরও প্রচুর মানুষের কাছ থেকে টাকা নেওয়া হয়েছিল ফ্ল্যাট তৈরি করে দেওয়া হবে বলে। এমনকি ২০১৪ সালের জুন-জুলাই মাস পর্যন্ত অনেক ক্রেতার সঙ্গে ফ্ল্যাট বিক্রির চুক্তিও করেছে প্রকল্পের দায়িত্বে থাকা কোম্পানি দুটি।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

দিল্লীতে ভারত-বাংলাদেশ ম্যাচের বিপক্ষে গম্ভীর

আমি গম্ভীরের ক্যারিয়ার শেষ করেছিলাম : ইরফান

পাকিস্তানের নিরাপত্তাব্যবস্থা দেখে গম্ভীরের ‘ঠাট্টা’!

ফাইনালে সুপার ওভারের নিয়ম নিয়ে বিতর্ক

গম্ভীরকে ‘বেকুব’ বললেন আফ্রিদি