জুনিয়ররা আজ দেখিয়েছে তারা হাল ধরতে পারে : তামিম

সিনিয়র ক্রিকেটাররা হাল না ধরলে জুনিয়র ক্রিকেটাররাও জ্বলে উঠতে পারেন না, এমন অভিমত দেশের ক্রিকেট অনেক দিন ধরেই। তবে জাতীয় দলের ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম ইকবাল মনে করেন, জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডেতে ব্যাটিং ইউনিটে সিনিয়র ক্রিকেটাররা ব্যর্থ হলেও জুনিয়রদের পারফরম্যান্সই দলকে জয় এনে দিয়েছে।

জুনিয়ররা আজ দেখিয়েছে তারা পারফর্ম করতে পারে তামিম

Advertisment

তামিমের এই মতামত মূলত ব্যাটসম্যানদের নিয়ে। টস হেরে ব্যাট করতে নেমে বাংলাদেশের ব্যাটিং অর্ডার পড়েছিল বিপাকে। অভিজ্ঞ মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের সমর্থনে প্রতিরোধ গড়ার মূল কাজটা করেন লিটন দাস। উজ্জ্বল ছিলেন আফিফ হোসেন ধ্রুব আর মেহেদী হাসান মিরাজও।

বল হাতেও তরুণরা ছড়িয়েছেন আলো। যদিও ৫ উইকেট শিকার করে মূল কাজটা সাকিব আল হাসানই করেছেন। ম্যাচ শেষে অধিনায়ক তামিম স্বস্তি প্রকাশ করেন তরুণদের নিয়ে।

তিনি বলেন, ‘প্রথম ১৫ ওভারে জিম্বাবুয়ে অত্যন্ত ভালো বোলিং করেছে। শুরুতে আমরা কিছু উইকেট হারিয়ে ফেলায় সংগ্রাম করতে হচ্ছিল। কিন্তু লিটন ও রিয়াদের ব্যাটিং প্রতিরোধ গড়ে, এরপর আফিফও ভালো করেছে। মিরাজের ইনিংসও ভূমিকা রেখেছে, ঐসময় সে এভাবে ব্যাট না করলে আমাদের ২০-৩০ রান কম হত। আমরা বারবার বলি সিনিয়ররা যেদিন ভালো করবে না সেদিন জুনিয়ররাই হাল ধরবে। আজ তারা কঠিন পরিস্থিতি থেকে কীভাবে ম্যাচ বের করে নিতে হয় তা প্রমাণ করেছে।’ 

তামিম জানান, উইকেটে খুব বেশি সুবিধা না থাকলেও পরিকল্পনা কাজে লাগানোয় সফল হয়েছেন সাকিব। তিনি বলেন, ‘আমরা বোলিংয়ে ভালো করেছি। উইকেট নিয়ে বেশি ভাবছিলাম না। এটা এমন উইকেট যেখানে পরিকল্পনা অনুযায়ী বল না করলে উইকেট আপনাকে খুব বেশি সহায়তা করবে না। সাকিব উইকেট থেকে বেশি সুবিধা না পেলেও পরিকল্পনামাফিক বল করে গেছে এবং ৫ উইকেট পেয়েছে।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।