Scores

টি-টেনের অভিষেকে আফিফের ক্যামিও ইনিংস

দলটাই বাংলাদেশি মালিকানাধীন, দলের সাথে আছে ‘বাংলা’ শব্দটিও। আবুধাবি টি-টেন লিগের দল বাংলা টাইগার্স এবার বাংলাদেশের বাড়তি আকর্ষণ দুই তরুণ অলরাউন্ডার আফিফ হোসেন ধ্রুব ও মেহেদী হাসানের কারণে। যদিও জয় দিয়ে আসর শুরু করতে পারেনি দলটি। 

ম্যাচসেরা হওয়ার পরও যে আক্ষেপে পুড়ছেন আফিফ
আফিফ হোসেন ধ্রুব। ফাইল ছবি

চতুর্থ আসরে নিজেদের প্রথম ম্যাচে বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) দিল্লী বুলসের মুখোমুখি হয়েছিল বাংলা টাইগার্স। মেহেদী একাদশে না থাকলেও ছিলেন আফিফ। টি-টেন ফরম্যাটে নিজের অভিষেক ম্যাচে আফিফ দলে অবদান রাখার জন্য পেয়েছেন মাত্র ৫ বল। অবশ্য হতাশ করেননি।

টস জিতে ব্যাট করতে নেমে বাংলা টাইগার্স উড়ন্ত সূচনা পায় অধিনায়ক আন্দ্রে ফ্লেচার ও জনসন চার্লসের ব্যাটে। ১০১ রানের উদ্বোধনী জুটি ভাঙে ১৬ বলে ৩২ রান করা ফ্লেচার সাজঘরে ফিরলে। তবে আরেক ওপেনার চার্লস পূর্ণ করেন অর্ধশতক। সাজঘরে ফেরার আগে ৩৫ বলে ৭৩ রান করেন ৬টি চার ও ৫টি ছক্কায়।

Also Read - জন্টি রোডসকে কাছে পেয়ে উচ্ছ্বসিত নাসির

টম মুরস আউট হলে চতুর্থ ব্যাটসম্যান হিসেবে ক্রিজে আসেন আইকন ক্রিকেটার ও সহ-অধিনায়ক আফিফ। যদিও ইনিংসে তখন বাকি ছিল মাত্র ৮ বল। তার ৫টি মোকাবেলা করে আফিফ হাঁকান ২টি চার। ৫ বলে ১০ রান করে অপরাজিত থেকেই চার্লসের সাথে মাঠ ছাড়েন। নির্ধারিত ১০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১২৮ রানের বিশাল পুঁজি পায় বাংলা টাইগার্স।

তবে রহমানউল্লাহ গুরবাজ, রবি বোপারাদের ঝড়ে ম্যাচ শেষে হাসি অক্ষুণ্ণ থাকেনি আফিফদের। গুরবাজের ১৫ বলে ৪১, বোপারার ১৬ বলে ৩৮, এভিন লুইসের ১৮ বলে ৩২ এবং শেরফানে রাদারফোর্ডের ৩ বলে ১১ রানের ইনিংসগুলোতে ভর করে দিল্লী ম্যাচ জিতে নেয় ৭ উইকেট ও ৭ বল হাতে রেখেই। এই ম্যাচে বল হাতে নেওয়া হয়নি আফিফের।

সংক্ষিপ্ত স্কোর 

টস : বাংলা টাইগার্স

বাংলা টাইগার্স : ১২৮/২ (১০ ওভার)
চার্লস ৭৩*, ফ্লেচার ৩২, আফিফ ১০*
এডওয়ার্ডস ১৭/১, ব্রাভো ২১/১

দিল্লী বুলস : ১২৯/৩ (৮.৫ ওভার)
গুরবাজ ৪১, বোপারা ৩৮, লুইস ৩২
করিম ৩৪/২, ফারুকি ১৬/১

ফল : দিল্লী বুলস ৭ উইকেটে জয়ী।

Related Articles

ফিল্ডিং নিয়ে বাড়তি কাজ করছেন আফিফরা

নিউজিল্যান্ডের কন্ডিশন এবার ভোগাচ্ছে না টাইগারদের

বড় ব্যবধানে নাসিরদের হারালেন আফিফরা

বাংলা টাইগার্সের ছন্দপতন

খেলছেন না মেহেদী, অনিশ্চিত আফিফ