টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে ‘চ্যাম্পিয়ন’ হতে পারে দুই দলই

আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম সংস্করণের ফাইনালে মুখোমুখি হবে ভারত ও নিউজিল্যান্ড। ১৮ জুন শুরু হতে যাওয়া এই ম্যাচের প্লেয়িং কন্ডিশন ঘোষণা করেছে আইসিসি।

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে 'চ্যাম্পিয়ন' হতে পারে দুই দলই

Advertisment

ঘোষিত নিয়ম অনুযায়ী, দুই দলের সামনেই চ্যাম্পিয়ন হওয়ার সুযোগ রয়েছে। আইসিসি জানিয়েছে, ম্যাচ ড্র হলে বা অমীমাংসিতভাবে শেষ হলে কিংবা টাই হলে দুই দলকেই যৌথভাবে চ্যাম্পিয়ন হিসেবে ঘোষণা করা হবে।

পাঁচ দিনের এই ম্যাচে বৃষ্টির হানা এলে তা মোটেও অস্বাভাবিক হবে না। আইসিসি অবশ্য ফলাফল বের করে আনার সুযোগ খোলা রেখেছে। যদিও বৃষ্টি, বৈরি আবহাওয়া বা অন্য কোনো কারণে পাঁচ দিনের খেলায় নির্ধারিত ওভারের চেয়ে কম খেলা হয়, তাহলে রিজার্ভ ডে হিসেবে ষষ্ঠ দিন খেলা হবে। অর্থাৎ, একদিন থাকছে রিজার্ভ ডে হিসেবে।

আইসিসি অবশ্য সিদ্ধান্তগুলো নিয়েছিল আগেই, তবে চূড়ান্ত ঘোষণা এল এবার। এই ম্যাচটিতে গ্রেড ওয়ান ডিউক বল ব্যবহৃত হবে বলেও জানায় বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

আগামী ১৮ জুন শুরু হবে ফাইনালের এই মহারণ। পূর্বনির্ধারিত সূচি অনুযায়ী লর্ডস ছিল ফাইনালের ভেন্যু। কিন্তু করোনার কারণে লর্ডসের আবাসিক হোটেলগুলোর অচলাবস্থা কাটেনি, তাই খেলোয়াড়দের বায়ো সেফটি বাবলে রাখা নিয়ে উদ্বেগ দেখা দেয়।

পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ দুই নিশ্চিত করে নিউজিল্যান্ড আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনাল নিশ্চিত করেছিল আগেই। শেষদিকে আরেক ফাইনালিস্টের খোঁজে জমে ওঠে পয়েন্ট টেবিল। ভারত-ইংল্যান্ড টেস্ট সিরিজ শুরুর আগে ফাইনালের দৌড়ে ছিল ভারত, অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ড। ভারত ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে গেলে ছিটকে পড়ে ইংলিশরা। আহমেদাবাদে শেষ ম্যাচে ইংলিশদের হারিয়ে ৩-১ ব্যবধানে সিরিজ জেতার পাশাপাশি ফাইনালও নিশ্চিত করে কোহলির দল। এই ম্যাচে ভারত হারলে ফাইনালে উঠত অস্ট্রেলিয়া।