Scores

ডারউইনে ‘বাংলাদেশী কন্ডিশনে’ ক্যাম্প করবে অস্ট্রেলিয়া

ডারউইনে বাংলাদেশি কন্ডিশনে ক্যাম্প করবে অস্ট্রেলিয়া

 

আসন্ন বাংলাদেশ সফরের আগে ডারউইনে এক সপ্তাহের প্রস্তুতিমূলক ক্যাম্প করবে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দল। ক্যাম্পটি হবে আগস্টে বাংলাদেশের উদ্দেশে দেশ ছাড়ার এক সপ্তাহ আগে। শনিবার (২৪ জুন) বিষয়টি নিশ্চিত করেছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ)।

Also Read - ডিআরএস পদ্ধতিতে থাকছে না 'আম্পায়ার'স কল'


বাংলাদেশ সফরের জন্য ঘোষিত ১৩ সদস্যের স্কোয়াডটি ডারউইনের মারারা ক্রিকেট গ্রাউন্ডে ক্যাম্প শুরু করবে ১০ আগস্ট। ক্যাম্প চলাকালীন ১৪ আগস্ট থেকে তিন দিনের একটি অন্তর্স্কোয়াড প্রস্তুতি ম্যাচও অনুষ্ঠিত হবে।

সম্ভাবনা রয়েছে অস্ট্রেলিয়া স্কোয়াডে একজন পেস বোলারের অন্তর্ভুক্তির। তবে সে সিদ্ধান্ত গৃহীত হবে অস্ট্রেলিয়া ‘এ’ দলের দক্ষিণ আফ্রিকা সফর শেষে। হিল্টন কার্টউইট ও অ্যাশটন অ্যাগার দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে থাকবেন। সেই সফর শেষ করে তারা জাতীয় দলের স্কোয়াডের সাথে যোগ দেবেন ১২ আগস্ট।

সিএ’র টিম পারফরম্যান্স ম্যানেজার প্যাট হাওয়ার্ডের বিশ্বাস, স্টিভ স্মিথ ও তার দলের জন্য ডারউইনে অনুষ্ঠিতব্য ক্যাম্পটি খুবই উপকারী হবে। কেননা ডারউইনে এমন এক ধরণের কন্ডিশন তৈরির চেষ্টা করা হচ্ছে, যার সাথে মিল থাকবে বাংলাদেশী কন্ডিশনের।

‘নর্দার্ন টেরিটরি সরকার ও এনটি ক্রিকেটের পক্ষ থেকে ক্যাম্পের জন্য আমরা যে ধরণের সাহায্য ও সুযোগ সুবিধা পাচ্ছি, তাতে আমরা তাদের নিকট কৃতজ্ঞ,’ হাওয়ার্ড বলেন।

‘ডারউইন হবে বাংলাদেশী কন্ডিশনের সাথে মিল রয়েছে এমন একটি আদর্শ স্থান। তাছাড়া মারারা ক্রিকেট গ্রাউন্ডে যে ধরণের সুযোগ সুবিধার ব্যবস্থা রয়েছে তা এক কথায় প্রথম শ্রেণীর।

‘আমরা এনটি ক্রিকেটের সাথে নিবিড়ভাবে কাজ করে যাচ্ছি যাতে বাংলাদেশের মত কন্ডিশন তৈরি করা সম্ভব হয়। এর আগে দুবাইতেও আমরা একই কাজ করেছিলাম ভারতের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ খেলতে যাওয়ার আগে। প্রযুক্তির কল্যানে এখন ডারউইনে বসেই বাংলাদেশী কন্ডিশনের সাথে মিল রেখে প্রস্তুতি করা যাবে।’

 

– জান্নাতুল নাঈম পিয়াল, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটাইম ডট কম

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

ওয়েডের ‘মাথার খুলি উড়িয়ে দিতে চেয়েছিল’ আর্চার!

একাধিক রেকর্ড দিয়ে অ্যাশেজ শেষ করলেন স্মিথ

সমতায় শেষ হলো অ্যাশেজ, ট্রফি গেল অস্ট্রেলিয়ায়

অস্ট্রেলিয়ার অধিকাংশ সমর্থকই আমাকে ঘৃণা করে: মার্শ

নেতৃত্বে ফিরবেন স্মিথ!