Scores

ডিপিএল টি-টোয়েন্টিতে ব্যাটে-বলে সেরা পাঁচ

ডিপিএল টি-২০ ক্রিকেট লিগে ব্যাট হাতে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক হয়েছেন প্রাইম ব্যাঙ্ক ক্রিকেট ক্লাবের রুবেল মিয়া। অলরাউন্ডিং পারফরম্যান্স করা ফরহাদ রেজা ও আরেক পেসার শহীদুল ইসলাম হয়েছেন যৌথভাবে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারী বোলার।
ডিপিএল টি-টোয়েন্টিতে ব্যাটে-বলে সেরা পাঁচ
এ টি-২০ টুর্নামেন্টে ১২ দল তিনটি গ্রুপে বিভক্ত হয়ে অংশ নেয়। সেখান থেকে চারটি দল সেমি-ফাইনালে খেলে। ফাইনালে প্রাইম দোলেশ্বর ক্রিকেট ক্লাবকে হারিয়ে শিরোপা জিতেছে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্রিকেট ক্লাব।

ব্যাটিংয়ে সেমি-ফাইনালে বাদ পড়া প্রাইম ব্যাঙ্ক ক্রিকেট ক্লাবের রুবেল মিয়া ৩ ম্যাচে ৪৩ গড়ে ও ১২০.৫৬ স্ট্রাইক রেটে ১২৯ রান করে শীর্ষে আছেন। তার সর্বোচ্চ স্কোর ৭৬। দ্বিতীয় স্থানে থাকা চ্যাম্পিয়ন দলের কাজী নুরুল হাসান সোহানের সংগ্রহ ৪১.৩৩ গড়ে ১২৪ রান। এছাড়া শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাবের শুভাগত হোম, শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবের ইমতিয়াজ হোসেন ও প্রাইম দোলেশ্বর স্পোর্টিং ক্লাবের ফরহাদ রেজা রয়েছে যথাক্রমে তিন, চার ও পাঁচে।

এক ইনিংসে সর্বাধিক রানের রেকর্ডটাও রুবেল মিয়ার। আবাহনী লিমিটেডের বিপক্ষে এ বাঁহাতি ব্যাটসম্যানের ৭ চার আর ৪ ছক্কায় সাজানো ৫৬ বলে ৭৬ রানের ইনিংস টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাবের বিপক্ষে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবের জিয়াউর রহমানের ২৯ বলে অপরাজিত ৭২ রানের ইনিংস ও খেলাঘরের বিপক্ষে উত্তরা স্পোর্টিং ক্লাবের তানজিদ হাসানের ৫৭ বলে অপরাজিত ৭২ রান। খেলাঘরের রবিউল ইসলাম রবির ৬৯ রান তৃতীয় সর্বোচ্চ।

Also Read - ভিডিওঃ ফাইনালে নাসির-সোহানদের বিজয়ের মুহূর্ত


এক নজরে টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ পাঁচ রান সংগ্রাহক

১। রুবেল মিয়া (প্রাইম ব্যাঙ্ক ক্রিকেট ক্লাব)- ম্যাচ: ৩, ইনিংস: ৩, রান: ১২৯, গড়: ৪৩.০০, স্ট্রাইক রেট: ১২০.৫৬, সর্বোচ্চ: ৭৬
২। নুরুল হাসান (শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব)- ম্যাচ: ৪, ইনিংস: ৪, রান: ১২৪, গড়: ৪১.৩৩, স্ট্রাইক রেট: ১৩৪.৭৮, সর্বোচ্চ: ৪৩*
৩। শুভাগত হোম (শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাব)- ম্যাচ: ৩, ইনিংস: ৩, রান: ১২১, গড়: ৬০.৫০, স্ট্রাইক রেট: ২৪৫.৮৮, সর্বোচ্চ: ৫৮*
৪। ইমতিয়াজ হোসেন (শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব)- ম্যাচ: ৪, ইনিংস: ৪, রান: ১১০, গড়: ২৭.৫০, স্ট্রাইক রেট: ১২৬.৪৩, সর্বোচ্চ: ৫৬
৫। ফরহাদ রেজা (প্রাইম দোলেশ্বর স্পোর্টিং ক্লাব)-  ম্যাচ: ৪, ইনিংস: ৪, রান: ১০৭, গড়: ৩৫.৬৬, স্ট্রাইক রেট: ২২৭.৬৫, সর্বোচ্চ: ৪৫

বোলিংয়ের শীর্ষে রয়েছেন দুই মিডিয়াম পেসার। প্রাইম দোলেশ্বর স্পোর্টিং ক্লাবের ফরহাদ রেজা ও শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবের শহীদুল ইসলাম দুজনেই পেয়েছেন ১১ টি করে উইকেট। শহীদুলের সতীর্থ বাঁহাতি পেসার সালাউদ্দিন শাকিলের ঝুলিতে রয়েছে ৭ উইকেট। ৬ উইকেট নিয়ে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারী স্পিনার শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাবের সোহরাওয়ার্দী শুভ। এছাড়া পাঁচটি করে উইকেট রয়েছে সাজ্জাদ হোসেন, অলোক কাপালি, মানিক খান ও অলোক কাপালি।

ডিপিএল টি-টোয়েন্টিতে ব্যাটে-বলে সেরা পাঁচ

টুর্নামেন্টের সেরা বোলিং ফিগার ফরহাদ রেজার। প্রাইম ব্যাঙ্কের বিপক্ষে ৩২ রানের বিনিময়ে ৫ উইকেট শিকার করেন তিনি। তার সতীর্থ মানিক খান বিকেএসপির বিপক্ষে ১২ রানে চার উইকেট নেন। সেটি দ্বিতীয় সেরা। সেই ম্যাচে হ্যাটট্রিক করেন তিনি। এরপর রয়েছে শহীদুল ইসলামের ১৯ রানে ৪ উইকেট শিকার।

এক নজরে টুর্নামেন্টের সেরা পাঁচ বোলার 

১। ফরহাদ রেজা (প্রাইম দোলেশ্বর স্পোর্টিং ক্লাব)- ম্যাচ: ৪, উইকেট: ১১, ইকোনমি: ৬.১২, সেরা বোলিং: ৫/৩২
২। শহীদুল ইসলাম (শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব)- ম্যাচ: ৪, উইকেট: ১১, ইকোনমি: ৭.২৮, সেরা বোলিং: ৪/১৯
৩। সালাউদ্দিন শাকিল (শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব)- ম্যাচ: ৪, উইকেট: ৭, ইকোনমি: ৮.৩০, সেরা বোলিং: ৪/২৮
৪। সোহরাওয়ার্দী শুভ (শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাব)- ম্যাচ: ৩, উইকেট: ৬, ইকোনমি: ৭.৫০, সেরা বোলিং: ২/১২
৫। সাজ্জাদ হোসেন (উত্তরা স্পোর্টিং ক্লাব)- ম্যাচ: ২, উইকেট: ৫, ইকোনমি: ৪.৩৩, সেরা বোলিং: ৩/৮


আরো পড়ুন: হ্যামিল্টন থেকে অনেক কিছু নিয়ে ওয়েলিংটন যাবে বাংলাদেশ


 

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

ভিডিওঃ সেমি-ফাইনালে আফিফের ৬৫ রানের ঝড়

ঝড়ো ইনিংস খেলেও জিয়ার আছে আক্ষেপ

লাইভ: ফাইনালে যাওয়ার মিশনে আগে ব্যাটিংয়ে প্রাইম ব্যাংক

জিয়ার তান্ডবে ফাইনালে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব

ডিপিএল টি-টোয়েন্টির সেমিফাইনাল লাইন-আপ চূড়ান্ত