Score

ড্র‍’য়ে নিষ্পত্তি রান বন্যার প্রস্তুতি ম্যাচ

চট্টগ্রামের এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে উইন্ডিজ বনাম বিসিবি একাদশের মধ্যকার একমাত্র দুই দিনের অনুশীলন ম্যাচটি ড্র হয়েছে। প্রথম ইনিংসে উইন্ডিজের ৭ উইকেটে ৩০৩ রানে ইনিংস ঘোষণার পর বিসিবি একাদশ ৫ উইকেট ২৩২ রান তোলার পর ম্যাচটি ড্র মেনে দুই দলের ক্রিকেটাররা। দ্বিতীয় দিনের আরও ১৫ ওভার খেলা বাকি ছিল। 

 

ম্যাচের পর দুই দলের খেলোয়াড়রা @বিডিক্রিকটাইম

 

প্রথম দিন স্কোরবোর্ডে ৮৬.৩ ওভারে ৬ উইকেটের বিনিময়ে ৩০৩ রান যোগ করার পর দ্বিতীয় দিন আর ব্যাট না করার সিদ্ধান্ত নিয়ে ইনিংস ঘোষণা করে উইন্ডিজ ক্রিকেট দল।

Also Read - সুযোগ কাজে লাগাতে ব্যর্থ লিটন

এরপর ব্যাট করতে নেমে দারুণ সূচনা পায় বিসিবি একাদশ। ১২৬ রানের উদ্ভোধনী জুটি গড়েন সৌম্য সরকার ও সাদমান ইসলাম। ১০৩ বলে ১০ চার আর ৩ ছক্কায় ৭৮ রান করে সৌম্যের বিদায়ের মাধ্যমে এই জুটি ভাঙ্গে। এরপর নাজমুল হোসেন শান্তর সাথে ৩৭ ও জাকির হোসেনের ২৪ রানের জুটি গড়েন সাদমান। শান্ত ৪৮ বলে ২১ রান করেন। কেমার রোচের বলে বোল্ড হয়ে সাজঘরে ফিরেন এই বামহাতি ব্যাটসম্যান।

অর্ধশতক পূর্ণের পর শান্ত'র সাথে সাদমানের উদযাপন।
 অর্ধশতক পূর্ণের পর শান্ত’র সাথে সাদমানের উদযাপন।

 

এদিকে সৌম্যের মতো সেঞ্চুরির সুযোগ মিস করেছেন সাদমানও। ১৬৯ বলে ১০ চার আর ১ ছক্কায় ৭৩ রান করে রান আউট হোন তিনি। এরপর বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি জাকির হোসেন, করেছেন ১৮ রান। জাকিরের বিদায়ের পর সুযোগ কাজে লাগাতে ব্যর্থ হয়েছেন লিটন কুমার দাস। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজে বাজে পারফরম্যান্সের জন্য উইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে স্কোয়াড থেকে বাদ পড়েন লিটন। ছিলেন না বিসিবি একাদশের স্কোয়াডেও। তবে শেষ মুহূর্তে বিসিবি একাদশের হয়ে খেলার সুযোগ দেয়া হয় লিটনকে। উইন্ডিজের বিপক্ষে এই অনুশীলন ম্যাচে মাত্র ১ রানে সাজঘরে ফিরেছেন লিটন। খেলেছেন মাত্র ৩টি বল। গ্যাব্রিয়েলের বলে বোল্ড হোন লিটন।

এরপর মোহাম্মদ মিঠুনের সাথে যোগ দেন ফজলে রাব্বি। এই জুটি ৩৪ বল খেলার পর ম্যাচের ফলাফল ড্র’তে নিষ্পত্তি হয়। মিঠুন ৭০ বলে ২৭ ও রাব্বি ২৮ বলে ২ রানে অপরাজিত ছিলেন।  উইন্ডিজের পক্ষে শ্যানন গ্যাব্রিয়েল ২৪ রানে ২টি, কেমার রোচ ১৮ রানে ১টি উইকেট নেন।

 

ম্যাচের পর মোহাম্মদ মিঠুন


উল্লেখ্য, ২২ নভেম্বর চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে শুরু হবে বাংলাদেশ-উইন্ডিজ প্রথম টেস্ট।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ড-

উইন্ডিজ: প্রথম ইনিংসে ৭ উইকেটে ৩০৩ রান (৮৬.৩ ওভার) (ডিক্লে.)
ব্র্যাথওয়েট ৬, হোপ ৮৮ (রিটায়ার্ড হার্ট), পাওয়েল ৭২, অ্যামব্রিস ১৭, চেজ ৩৫, হেটমায়ার ২৪, ডওরিচ ২৪, রেমন্ড ১৪*, পল ১৮*; শফিউল ১০-৩-২৩-১, নাঈম ২৬-৩-১০৪-২, রাব্বি ৫-১-১১-১, রুবেল ১০-২-৪০-১, সৌম্য ৫-১-১০-১।

বিসিবি একাদশ: প্রথম ইনিংসে ৫ উইকেটে ২৩২ রান (৭৫ ওভার) (ডিক্লে.)

সৌম্য ৭৮, সাদমান ৭৩, মিঠুন ২৭*,  শান্ত ২১, জাকির ১৮, রাব্বি ২*, লিটন ১
গ্যাব্রিয়েল  ৮-৩-২৪-২,  রোচ ৭-২-১৮-১

ফলাফলঃ ড্র 

[আরও পড়ুনঃ সৌম্যর পর সাদমানেরও শতক হাতছাড়া]

Related Articles

সিলেটে দুই দলেরই এক প্রতিপক্ষ— শিশির!

সিরিজ নির্ধারণী শেষ ওয়ানডেতে হাসবে কারা?

সিরিজ জিততে মরিয়া শাই হোপ

হোপের ব্যাটিংয়ে সিরিজে সমতা ফেরালো উইন্ডিজ

লিটনের এক্স-রে রিপোর্টে সুখবর