তামিমকে নিয়ে মানুষের এতো প্রশ্নে ‘বিরক্ত’ বাশার

0
14420

তরুণদের সুযোগ দিতে বিশ্বকাপে না খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বাংলাদেশ সেরা ওপেনার তামিম ইকবাল। টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে তার সামর্থ্য নিয়ে মানুষ কেন এতো আলোচনা করেছে সেটি বুঝতে পারছেন না নির্বাচক প্যানেলের সদস্য হাবিবুল বাশার।

বিশ্বকাপে তামিমের সার্ভিস পেতে চেয়েছিলেন  বাশার। ছবিঃ বিডিক্রিকটাইম

দু’দিন আগে নিজের ফেসবু পেজে এক ভিডিও বার্তায় তামিম জানান, আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দলে থাকছেন না তিনি। দীর্ঘদিন ধরে এই ফরম্যাটে খেলছেন না দলের এই শীর্ষ ক্রিকেটার। টানা ১৭ মাস দেশের পক্ষে কোনো টি-টোয়েন্টি ম্যাচ না খেলে সরাসরি বিশ্বকাপে খেলবে, এ নিয়ে এতদিন হয়েছে তীব্র সমালোচনা। আপাতত এই সিদ্ধান্তে থেমেছে সেই সমালোচনা।

Advertisment

তামিম নিজ থেকে সরে দাঁড়ালেও নির্বাচকরা তাঁকে নিয়েই টি-টোয়েন্টি দল সাজিয়েছিলেন। এমনটাই জানালেন নির্বাচক হাবিবুল বাশার। বেসরকারি টিভি চ্যানেলের সঙ্গে আলাপকালে তিনি বলেন, তামিমকে নিয়ে যারা প্রশ্ন তুলেছেন তাঁদের প্রতিও এক প্রকার বিরক্ত এই নির্বাচক।

“তামিম তো দলে ছিলই… আমরা যখন দল তৈরি করেছি, তাঁকে নিয়েই করেছি। আমার মনে হয় তামিম তার বক্তব্য দিয়েছেন ও কেন খেলতে চায় না। তার এই সিদ্ধান্তকে আমাদের সম্মান জানাতে হয়েছে। আমরা কিন্তু আশা করেছিলাম বিশ্বকাপে ওর সার্ভিসটা পাব।

তিনি আরও যোগ করেন, “তামিমকে নিয়ে অনেকে অনেক প্রশ্ন করছিলেন। এই একটা জিনিস আমাদেরও ভালো লাগেনি। এটা নিয়ে আলোচনা করার কিছু নেই। হ্যাঁ, ফিটনেস একটা ইস্যু ছিল। আমরা যদি সেই রিপোর্টটা হাতে পেতাম, ও বিশ্বকাপের জন্য যথেষ্ট ফিট তাহলে আলোচনা সেখানেই শেষ হয়ে যেত।”

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Tamim Iqbal (@tamimofficial)

দীর্ঘদিন ধরেই এই ফরম্যাটে তার স্ট্রাইক রেট নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন সমর্থকরা। আধুনিক ক্রিকেটে তামিম যে গতিতে খেলেন সেটি মোটেই মানানসই নয়। তবে ক্রিকেট সমর্থকরা এই ফরম্যাটে তার সামর্থ্য নিয়ে নানা সমলোচনা করলেও বাশার জানান, তারা জানেন তামিম কতটুকু অবদান রাখতে পারবে।

ওর পারফরম্যান্স, সামর্থ্য নিয়ে আমরা কিন্তু কখনো কথা বলেনি। অনেকেই হয়তো আলোচনা করেছে কিন্তু আমরা কখনো তার সামর্থ্য নিয়ে প্রশ্ন তুলিনি। আমরা খুব ভালো করেই জানি তার সামর্থ্য সম্পর্কে এবং সে কতটুকু আমাদের দিতে পারবে।”

তামিম যেহেতু নিজ থেকেই খেলতে চাইছেন তাই নির্বাচক হাবিবুল বাশার চাইছেন তার ইস্যুর ইতিটা এখানেই টানা হোক। মূলত তার অনুপস্থিতি সৌম্য-নাঈম-লিটনদের জন্য বড় সুযোগ হিসেবে দেখছেন এই নির্বাচক।

আমি জানি না কেন তাঁকে নিয়ে কথা বলেছে। এটা নিয়ে আমার প্রশ্ন আছে। যেহেতু সামনে বিশ্বকাপ তাই আমরা এই ইস্যু নিয়ে আর কথা বলতে চাচ্ছি না। কারণ বর্তমানে যারা খেলছেন তাঁদের নিয়েই এগোতে হবে। সৌম্য এবং নাঈম বেশ কিছুদিন ধরেই টি-টোয়েন্টিতে ওপেন করছেন। আশা করছি তারা সুযোগটা কাজে লাগাবে।