তামিম পরিবারের উপর হামলা হয়েছিলঃ ইংলিশ মিডিয়া

0
15595

ইংল্যান্ডসহ অসংখ্য দেশে ‘হেইট ক্রাইম’ শব্দটি বেশ পরিচিত। মুসলিমদের উপর সন্ত্রাসীদের হামলাকে বলা হয়ে থাকে ‘হেইট ক্রাইম’। সম্প্রতি এই ভয়ঙ্কর শব্দটির সম্মুখীন হয়েছেন বাংলাদেশের ক্রিকেট সুপারস্টার তামিম ইকবাল ও তাঁর পরিবার। কাউন্টিতে আট ম্যাচ খেলতে ইংল্যান্ড গিয়েছিলেন তামিম ইকবাল। কিন্তু মাত্র এক ম্যাচ খেলেই দেশে ফিরেছেন এই ক্রিকেটার। তবে কারণ হিসেবে দেখিয়েছেন ব্যক্তিগত বিষয়টি। কিন্তু দেশের শীর্ষস্থানীয় কিছু গণমাধ্যম দাবী করেছিল, তামিম পরিবারের উপর হামলা করার চেষ্টা করা হয়েছিল। এদিকে ইংলিশ মিডিয়াও দাবী করছে ‘হেইট ক্রাইম’ এর শিকার হয়েছিলেন তামিম ও তাঁর পরিবার।

Advertisment

ইংল্যান্ডের বিখ্যাত দৈনিক ‘ডেইলি মেইল’ তামিম বিষয় নিয়ে একটি বিশেষ প্রতিবেদন করেছে। সেখানে বলা হয়, সহধর্মিনী আয়েশা সিদ্দিকা ও পুত্র আরহাম ইকবালকে নিয়ে রাতের খাবার খেতে একটি রেস্টুরেন্টে গিয়েছিলেন তামিম ইকবাল। সেখানেই ‘হেইট ক্রাইম’ এর শিকার হোন তামিমের পরিবার। তবে তামিম পুলিশের কাছে কোনো অভিযোগ করেন নি। হয়তোবা এসেক্স ও তামিম বিষয়টি নিয়ে বেশি জলঘোলা করতে চান নি।

বিষয়টিকে আরো নিশ্চিত করে আরেক দৈনিক দ্য টেলিগ্রাফ তাদের প্রতিবেদনে বলেছে, কাউন্টি খেলতে এসে লন্ডনে তামিম এবং তাঁর পরিবার ‘হেইট ক্রাইম’ এর শিকার হয়েছিলেন। এরপরেই তামিম তাঁর ক্লাব এসেক্সের সাথে চুক্তি ভেঙ্গে দেশে ফিরে এসেছেন। সূত্র হিসেবে বাংলাদেশের ক্রিকেট বোর্ডের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কর্মকর্তার কথা বলেছে দ্য টেলিগ্রাফ।

উল্লেখ্য, ইংল্যান্ডের কাউন্টিতে ‘ন্যাটওয়েস্ট টি-টোয়েন্টি ব্লাস্টের’ জন্য এসেক্সের হয়ে খেলতে গিয়েছিলেন বাংলাদেশের দেশসেরা ওপেনার তামিম ইকবাল। আট ম্যাচ খেলার কথা থাকলেও মাত্র এক ম্যাচ খেলেই দেশে ফিরেছেন তামিম। বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টার দিকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছান তামিম ও তাঁর পরিবার। তবে আকস্মিক ফেরা নিয়ে তৈরী হওয়া ধুম্রজালের আর কোনো উত্তর দেন নি তামিম। এয়ারপোর্টে সাংবাদিকদের এড়িয়ে গিয়েছিলেন এই ক্রিকেটার।