তাসকিনের ফলাফল ২৯ সেপ্টেম্বর!

আজ (২২ সেপ্টেম্বর) তাসকিন আহমেদ ও আরাফাত সানির বোলিং অ্যাকশনের ফলাফল ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে জানানোর কথা ছিলো। আর এই ফলাফলের জন্যই আফগানিস্তের বিপক্ষে বাংলাদেশের ১৩ সদস্যের চূড়ান্ত স্কোয়াড ঘোষণা দেয়া হয়। ১৪ সদস্যের দল গঠন করার রীতি থাকলেও আফগানিস্তানের বিপক্ষে একজন কম নিয়েই দল সাজায় বিসিবি। কেননা তাসকিনের ফলাফল ইতিবাচক হলে ১৪ তম সদস্য হিসেবে দলে নেয়া হতো। তবে বর্তমান পরিস্থিতি অনুযায়ী আগামী এক সপ্তাহের আগে ফলাফল পাবার সম্ভাবনা কম।
TaskinAhmed_Large

আজ ১৩ সদস্যের দল ঘোষণার কারণ হিসেবে তাসকিনের জন্য একটা জায়গা রাখার কথা বলেছিলেন বাংলাদেশের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু, “তাসকিনের রিপোর্ট আমরা হাতে পাইনি। আজকেই তার রিপোর্ট আমাদের পাওয়ার কথা। এরপর আমরা সিদ্ধান্ত নেব ১৩ জনের দলটি ১৪ জন করা যায় কি না। যদি তাসকিন দলে আসে তা ভালো হবে।”

Advertisment

তবে সংবাদ সম্মেলনে এমন কথা বললেও বিসিবির কার্যালয় থেকে বাসায় ফেরার আগে জাগো নিউজকে অন্য কথা জানান প্রধান নির্বাচক। তিনি বলে, “সত্যি কথা বলতে কি, ২৯ সেপ্টেম্বরের আগে তাসকিনের আনুষ্ঠানিক ছাড়পত্র পাবার সম্ভাবনা খুবই কম।”

গত কয়েকদিন থেকেই আইসিসির সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেও পায় নি বিসিবি। এটি উল্লেখ করে নান্নু বলেন, “আমরা গত কদিন দু’বার করে আইসিসির সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেছি; কিন্তু পারিনি। আইসিসি আমাদের মেইলের জবাব দেয়া দুরের কথা, কোনরকম সাড়াই দেয়নি। তাই ভাবছি ২৯ সেপ্টেম্বরের আগে হয়তো আর রিপোর্ট দেবে না।”

বৃহস্পতিবার (৮ সেপ্টেম্বর) অস্ট্রেলিয়ার ব্রিসবেনে বোলিং অ্যাকশন পরীক্ষা দেন বাংলাদেশ জাতীয় দলের দুই ক্রিকেটার তাসকিন আহমেদ ও আরাফাত সানি। পরীক্ষাশেষে ১১ সেপ্টেম্বর দেশে ফিরেন এই দুই ক্রিকেটার। দেশে ফিরে ভালো পরীক্ষা দেবার কথা বলেছেন তাসকিন ও সানি । দুই সপ্তাহ পর ২২ সেপ্টেম্বর ফলাফল জানানোর কথা থাকলেও সেটি হয় নি। তবে পরীক্ষা দেবার তিন সপ্তাহ পূরণ হবে ২৯ সেপ্টেম্বর , তাই সেদিন ফলাফল দেবার ভালো সম্ভাবনা আছে।