দক্ষিণ আফ্রিকায় মুগ্ধ আকবর, প্রিয় প্রতিপক্ষ ভারত

0
687

বাংলাদেশের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক আকবর আলি দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটারদের প্রতি মুগ্ধ। শুধু নির্দিষ্ট ক্রিকেটারদের প্রতি মুগ্ধ বললে ভুল হবে, পুরো দলের প্রতিই তার দুর্বলতা আছে বলে প্রকাশ করেছেন তিনি। এছাড়া তার প্রিয় প্রতিপক্ষ ভারত।

দক্ষিণ আফ্রিকায় মুগ্ধ আকবর, প্রিয় প্রতিপক্ষ ভারত

Advertisment

ক্রিকেটপ্রেমিরা নিজ দেশের বাইরেও অন্য দলের ভক্ত হয়ে থাকেন। অনেক ক্রিকেটারের দেখা যায় অন্য দলকে ভালো লাগে। কিন্তু আকবরের ব্যাপারটা একটু অন্যরকম। ছোটবেলা থেকে দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটার ও দলের প্রতি তার দুর্বলতা। এই কথা তিনি অকপটেই স্বীকার করেছেনপাওয়ারপ্লে কমিউনিকেশন্সের সরাসরি ফেসবুক আড্ডায়।

আকবরের ভাষায়, ‘পুরো দক্ষিণ আফ্রিকা দলের প্রতি আমার এক প্রকার দুর্বলতা আছে বলতে পারেন। ক্রিকেট খেলার একদম শুরুতে ভালো লাগতো হাশিম আমলাকে। তারপর এবি ডি ভিলিয়ার্স, গ্রায়েম স্মিথ, ডেল স্টেইন, মার্ক বাউচার- দক্ষিণ আফ্রিকার সবাইকেই ভালো লাগতে শুরু করল। দলটাতে যখন নতুন একজন ক্রিকেটার আসতো তখনও আমার মনে হতো যে সেও কিছু একটা হবে। তার প্রতিও অন্যরকম ভালো লাগা কাজ করত।’

আকবর নিজে একজন উইকেটরক্ষক। তাই আরেকজন উইকেটরক্ষক তার প্রিয় ক্রিকেটার হবেন এটাই স্বাভাবিক। আকবর জানান তার চোখে বিশ্বের অন্যতম সেরা উইকেটরক্ষক হলেন মার্ক বাউচার।

নিজের প্রিয় উইকেটরক্ষক সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘আমার চোখে ক্রিকেটের সেরা উইকেটরক্ষক বাউচার। মনে হয়, টেস্টে তার ৫০০ এর বেশি ক্যাচই আছে। তার প্রতি আমার মুগ্ধতা অন্যরকম। আর আগেও যেটা বললাম, পুরো দক্ষিণ আফ্রিকা দলের প্রতিই আমার দুর্বলতাটা অন্যরকম ছিল।’

আকবরের দুর্বলতা দক্ষিণ আফ্রিকার মাটি থেকেই তিনি বাংলাদেশের হয়ে বিশ্বকাপ জয় করে ফিরেছেন। বিশ্বকাপের জন্য অনেকদিন দক্ষিণ আফ্রিকায় থাকা হলেও বাউচার-আমলাদের সাথে দেখা হয়নি। তবে দুইজন দক্ষিণ আফ্রিকানের সাথে দেখা হয়েছিল বলে জানান তিনি,

‘বিশ্বকাপের সময় জেপি ডুমিনির সাথে দেখা হয়েছিল। উনার খেলাও আমি অনেক দেখেছি। বিশ্বকাপে মাখায়া এনটিনির সাথেও দেখা হয়। কিন্তু উনার খেলা ওইভাবে দেখা হয়নি। তবে পরে হাইলাইটস দেখেছি।’

ফাইনালে বাংলাদেশ খেলে ভারতের বিপক্ষে। এর আগেও কয়েকটা সিরিজ ও টুর্নামেন্টে ভারতের বিপক্ষে জিততে হারলেও বিশ্বকাপের ফাইনালে আর সেই ভুল করেনি বাংলাদেশ। আকবর জানান, ভারতের বিপক্ষে ভালো কিছু আত্মবিশ্বাস বৃদ্ধি পায়।

এই তরুণ ক্রিকেটারের ভাষায়, ‘ভারতের বিপক্ষে খেলতে বেশি মজা লাগে। কারণ ভারত খুব চ্যালেঞ্জিং একটা দল। আপনি যখনই একটা চ্যালেঞ্জিং দলের বিপক্ষে ভালো কিছু করতে পারবেন সেটা অবশ্যই আপনাকে বাড়তি আত্মবিশ্বাস দিবে।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।