Scores

“দলের মালিকেরও খারাপ লাগবে”

আসরে দুর্দান্ত শুরু করেও কোয়ালিফায়ার ম্যাচই খেলা হল না চিটাগং ভাইকিংসের। যে দলটি লিগ পর্বে শিরোপা জয়ের আভাস দিচ্ছিলো সেই দলের এমন পারফরম্যান্স সমর্থকদের কাছে হতাশাজনকই।

চিটাগং ভাইকিংসের সাফল্যের রথ ছুটছেই!

সোমবার (৪ ফেব্রুয়ারি) হাই ভোল্টেজ এলিমিনেটর ম্যাচে ঢাকা ডায়নামাইটসের কাছে পাত্তাই পায়নি চিটাগং ভাইকিংস। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ব্যাটিং ব্যর্থতার পর দলটি হেরে যায় ৬ উইকেটে।

ম্যাচ শেষে আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে দেখা মেলে দলের অধিনায়ক ও আইকন ক্রিকেটার মুশফিকুর রহিমের। এ সময় নিজের হতাশার চেয়ে দলের মালিকদের হতাশা নিয়েই বেশি বিষণ্ণ শোনালো তার কণ্ঠ।

Also Read - দলীয় চেষ্টাতেই ফাইনালের পথে ঢাকা


চিটাগং ভাইকিংসে এবারই প্রথম খেলেছেন মুশফিক। ঢালাওভাবে বিপিএলে বদল আসার পর এর আগে বরিশাল বুলস ও রাজশাহী কিংসের হয়ে খেলেছিলেন, তবে ঐ দুই দলের হয়েও খেলা হয়নি ‘সেমিফাইনাল’ ম্যাচের মর্যাদা পাওয়া কোয়ালিফায়ার।

মুশফিক বলেন, দলের ফলাফল খারাপ হলে স্বাভাবিকভাবেই খারাপ লাগবে দলের মালিকেরও খারাপ লাগবে।’

গত দুই বছরে এক বছর ছিলাম বরিশাল বুলসে, আরেক বছর ছিলাম রাজশাহী কিংসেএকবারও কোয়ালিফাই করতে পারিনিনিজের প্রত্যাশাও পূর্ণ করতে পারিনি– বলেন তিনি

মুশফিকের মতে, বিপিএলের গত দুই আসরে দলীয় ব্যর্থতা ভালো অনুভূতি ছিল না তার কাছে। এবার বাদ পড়লেও দল খেলেছে ভালো, ভালো করেছেন নিজেও। তাই বিগত আসরগুলোর চেয়ে শিরোপা স্পর্শ করতে না পারার কষ্টও যেন কম। আর ষষ্ঠ বিপিএলের পারফরম্যান্স আগামী বিপিএলে আত্মবিশ্বাস বাড়ানোর রসদ হিসেবে কাজ করবে বলেও মনে করেন তিনি।

সংবাদমাধ্যমকে মুশফিক বলেন, এটা ভালো অনুভূতি নয়তবে এই বছর আমি ভালো রান করেছিখুব বেশি উৎফুল্ল নইবেশ কিছু জায়গা ছিল যেখানে ম্যাচের ফলাফল দুই দিকেই যেতে পারতো, সেই সময় আমি ভালো করতে পেরেছিপরের বছর এটা আমার আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে দিবে।’

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

চিটাগং ভাইকিংসের মালিকানা নিচ্ছেন না আকরাম খান ও আ জ ম নাছির

বিপিএলে থাকছে না চিটাগং ভাইকিংস

টি-টোয়েন্টির জন্য নির্বাচকদের ভাবনায় রাব্বি!

খালেদের বোলিং দেখে মুগ্ধ মরিসন

সুযোগ পেয়েও ব্যর্থ আশরাফুল