SCORE

সর্বশেষ

দিবা-রাত্রির টেস্ট না খেলায় ভারতের সমালোচনায় মার্ক

অস্ট্রেলিয়ায় এখন নিয়মিত আয়োজিত হচ্ছে দিবা-রাত্রির টেস্ট। ২০১৮ সালের নভেম্বরে অস্ট্রেলিয়া সফর করবে ভারত। সেই সফরে অজিদের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে ও তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের সঙ্গে টেস্ট ম্যাচ আছে চারটি। স্বাগতিকরা চার টেস্টের মধ্যে একটি টেস্ট দিবা-রাত্রির আয়োজন করতে চাইলেও তাতে রাজি নয় ভারত।

ভারত স্বার্থপর বলেও মন্তব্য করেছেন মার্ক। ভারতের সংবাদমাধ্যমের খবর অনুসারে ফ্লাডলাইটের আলোয় গোলাপি বলের এ টেস্টে এখনি খেলতে অনাগ্রহ প্রকাশ করেছে ভারত। দিবা-রাত্রির টেস্টের জন্য নিজেদের প্রস্তুত করতে আরো এক-দেড় বছর সময় লাগবে বলে মনে করেন ভারতের প্রধান কোচ রবি শাস্ত্রী।

দিবা-রাত্রির টেস্টকে বেশ গুরুত্বের চোখেই দেখছেন এ অস্ট্রেলিয়ান কিংবদন্তী। ক্রিকেটের বৃহত্তর স্বার্থে দিবা-রাত্রির টেস্ট আয়োজন করা উচিত বলে মনে করেন তিনি।

Also Read - ভিন্ন টুর্নামেন্ট দিয়ে মাঠে ফিরছেন স্মিথ-ওয়ার্নার-বেনক্রফট

এক সাক্ষাৎকারে মার্ক বলেন, “ভারত এক্ষেত্রে কিছুটা স্বার্থপর। কারণ টেস্ট ক্রিকেটটাকে পুনরুজ্জীবিত করা প্রয়োজন। কিছু কিছু দেশে দিবা-রাত্রির টেস্ট হচ্ছে। এটা টেস্ট ক্রিকেটকে তার আগের জায়গায় এবং যেখানে টেস্ট ক্রিকেটের থাকা উচিত সেখানে ফিরিয়ে দেয়ার অন্যতম উপাদান। আমার কাছে মনে হয় অস্ট্রেলিয়া, ভারত ও ইংল্যান্ডেই টেস্ট ক্রিকেট এখনও জীবিত আছে। এজন্যই আমি চিন্তিত।”

দিবা-রাত্রির টেস্টের জন্য ভারত ভালো দল হবে বলে মনে করেন মার্ক ওয়াহ। তিনি বলেন, “দিবা-রাত্রির ক্রিকেটের জন্য ভারত দারুণ উপযুক্ত। কারণ তারা একঝাঁক ফাস্ট বোলার পেয়েছে। তাই তাদের শুধু স্পিনারদের ওপর নির্ভর করা উচিত নয়। পাশাপাশি তাদের ব্যাটসম্যানরাও টেকনিক্যালি খুব ভালো।”

অস্ট্রেলিয়ার মাটিতেই প্রথম অনুষ্ঠিত হয়েছিল দিবা-রাত্রির টেস্ট ক্রিকেট। ২০১৫ সালের নভেম্বরে অস্ট্রেলিয়া বনাম নিউজিল্যান্ডের ম্যাচ দিয়ে যাত্রা শুরু হয় দিবা-রাত্রির টেস্টের। গত প্রায় আড়াই বছরে বাংলাদেশ ও ভারত ছাড়া সব টেস্ট খেলুড়ে দেশই অর্জন করেছে ফ্লাডলাইটের নিচে সাদা পোশাকে গোলাপি বলে খেলার অভিজ্ঞতা।


আরো পড়ুন : পেইনের অধিনায়কত্বে ওয়ার্নের বিরক্তি!


 

Related Articles

উদযাপনে অশোভন ভঙ্গিতে সমালোচিত সোহেল

আসগর স্টানিকজাই থেকে আসগর আফগান

ম্যাচ ফিক্সিং : সন্দেহের তীর রানাতুঙ্গা-ডি সিলভার দিকে

দ্রাবিড় পুত্রের অলরাউন্ড নৈপুণ্য

শচীন ও মিডলসেক্সের উদ্যোগে ক্রিকেট একাডেমি