Scores

দুর্জয়ের এইচপি ইউনিট ভাবনা

বিসিবির এইচপি ইউনিটের দেখভালের দায়িত্ব যে কমিটির, সেটির চেয়ারম্যান এখন সাবেক ক্রিকেটার নাঈমুর রহমান দুর্জয়। একটা সময় নিজেও ক্রিকেটার ছিলেন। আন্তর্জাতিক অঙ্গন দাপিয়ে বেড়ানোয় এ বিষয়ে অভিজ্ঞতাও তার ভালো। সেই অভিজ্ঞতা থেকেই হয়ত, এবার এইচপি ইউনিট নিয়ে নতুন পরিকল্পনা করেছেন তিনি।

দুর্জয়

সম্প্রতি সংবাদমাধ্যমের সাথে আলাপকালে দুর্জয় জানান এইচপি একাডেমি ঢাকার বাইরে স্থানান্তরের পরিকল্পনার কথা, ‘একাডেমিটা একেবারেই ঢাকাকেন্দ্রিক। তাই একটা প্রস্তাব দিয়েছি ঢাকার বাইরে ক্যাম্প পরিচালনা করা যায় কিনা। কারণ ক্রিকেটাররা ঢাকায় থাকলে মনোযোগটা আসলে হয় না, আমি যেটা ব্যক্তিগতভাবে মনে করি।’

Also Read - বাংলাদেশকে 'হোম ভেন্যু' বানাতে চায় পাকিস্তান!


ঢাকার বাইরে ভেন্যু সুবিধা সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘ঢাকার বাইরে এখন আমাদের ততটা সমস্যা নেই। সিলেট রেডি, বিকেএসপি আছে। চট্টগ্রামও আমাদের একটা অপশন আছে। অর্থাৎ যেখানে আমাদের অনুশীলন ফ্যাসিলিটিস আছে, মাঠ আছে, যেখানে থেকে আমরা পুরো মনোযোগটা ক্রিকেটের ওপর দিতে পারি।’

সেই সাথে পরিকল্পনা রয়েছে ক্রিকেটারদের ‘ক্রিকেট নলেজ’ বৃদ্ধিরও, ‘ক্রিকেট নলেজ বাড়ানোর ব্যাপারে ওয়ার্কশপ বা ডিসকাশনের আয়োজন করবো। আমাদের সাবেক জাতীয় দলের কিংবা বর্তমান সিনিয়র কেউ হতে পারে। অথবা বিদেশি কেউ। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নিয়ে তারা যেন তাদের সঙ্গে মতামত কিংবা অভিজ্ঞতা শেয়ার করতে পারে।’

দেশের ক্রিকেটের ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে দুর্জয়ের ভাবনা পাইপলাইন মজবুত করার ব্যাপারেও। এজন্য এইচপি বা হাই পারফরমেন্স ইউনিটের উপর গুরুত্ব আরোপ করে তিনি বলেন, ‘পাইপলাইনটা সবচেয়ে বড় শক্তি। যেকোনো দেশের ঘরোয়া ক্রিকেট যত স্ট্রং হবে, যাদের পাইপলাইন যত শক্ত হবে তারা শক্তিশালী হবে বেশি। এইচপি ও ‘এ’ দলের প্রোগ্রাম পাইপলাইনকে শক্তিশালী করা। আমাদের কিন্তু ফার্স্টক্লাস ক্রিকেট, এজ লেভেল ক্রিকেট, স্কুল ক্রিকেট, সেখান থেকে ট্যালেন্ট হান্ট করে এলে সুযোগগুলো যদি আমরা তৈরি করতে পারি তাদেরকে কাজে লাগানোর জন্য তাহলে কিন্তু পাইপলাইনটা শক্তিশালী হবে।’

আরও পড়ুনঃ আবারও শীর্ষে ধোনির চেন্নাই সুপার কিংস

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

বিসিএলের দ্বিতীয়ার্ধ: সামর্থ্য প্রমাণের শেষ সুযোগ!

এবারও অভিজ্ঞদের ছাড়াই ‘এ’ দল

এ দলের অধিনায়কত্বের দায়িত্বে শান্ত

ম্যাচবিহীন ‘এ’ দল, এইচপিতে মনোযোগ