ধৈর্য ধরার পরিকল্পনা ছিল সাকিবের

0
4827

কলম্বো টেস্টের দ্বিতীয় দিনে দলের বিপদের সময় তাঁর মারমুখো ব্যাটিং স্বস্তির বদলে সমালোচনা কুড়িয়েছিল সমর্থকদের কাছ থেকে। টেস্ট ক্রিকেটের মেজাজ বিবেচনায় সমালোচনাকে অস্বাভাবিক হিসেবে দেখার সুযোগও নেই। ব্যাপারটা বুঝতে পেরেছিলেন সাকিব নিজেও।

Advertisment

৮ বলে ১৮ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষে ধীরস্থির ব্যাটিং করার পরিকল্পনা করেছিলেন সাকিব নিজেই। যার ফলও পেয়েছেন হাতেনাতে। সেঞ্চুরির পাশাপাশি দলকে এনে দিয়েছেন ১২৯ রানের লিড।

দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষে সাকিব অনেক ভেবেছেন বলে জানান নিজেই, আসলে গতকাল অনেক ভেবেছি, কঠিনভাবে চিন্তা করেছি… এবং ঠিক করেছি, ধৈর্য ধরে খেলাই হবে সঠিক অ্যাপ্রোচকাজটা আসলে সহজ নয়আমি ভাগ্যবান যে সবকিছু মিলে গেছেমানসিকভাবে সেট হতে পেরেছি


আরও পড়ুনঃ চালকের আসনে বাংলাদেশ


ধৈর্য ধরেছেন বলে সেঞ্চুরি হাঁকাতে পেরেছেন জানিয়ে সাকিব এও জানান, তার এবং দলের জন্য সেঞ্চুরি বেশ প্রয়োজনীয় ছিল, সেঞ্চুরিটা আমার জন্য এবং দলের জন্য খুবই দরকার ছিলএই উইকটে আসলে ধৈর্য ধরা প্রয়োজনউইকেটে পড়ে থাকলে রান আসবেইআমি সেঞ্চুরি পেয়েছি, কারণ ধৈর্য ধরেছি

শ্রীলঙ্কার প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশের বোলারদের বেশ ভুগিয়েছেন লঙ্কান ব্যাটসম্যান দীনেশ চান্দিমাল। তার কারণেই দ্রুত উইকেট হারানো সত্ত্বেও সম্মানজনক পুঁজি পায় স্বাগতিকরা। সাকিব জানালেন, চান্দিমালের কাছ থেকেই ধৈর্য ধরার প্রেরণা পেয়েছিলেন তিনি। বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার বলেন, চান্দিমালকে দেখেছি উইকেট পড়ে থাকতেআমি ওর কাছ থেকে শিখতে চেষ্টা করেছি

উল্লেখ্য, সাকিবের দুর্দান্ত সেঞ্চুরিতে কলম্বো টেস্টের তৃতীয় দিনে স্বাগতিক শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ১২৯ রানের লিড পায় সফরকারী বাংলাদেশ। ১০টি চারের সহায়তায় ১৫৯ বল মোকাবেলায় ১১৬ রান করেন সাকিব আল হাসান।


[দেখুন সাকিবের নজরকাড়া ১১৮ রানের ইনিংসটি]


  • সিয়াম চৌধুরী, প্রতিবেদক, বিডিক্রিকটাইম