ধোনির কাছে প্রত্যাশা কমানোর পরামর্শ

0
1421

একটা সময় বোলারদের নিয়ম করে পিটিয়ে ছাতু বানাতেন। তার ব্যাটের সামনে কোনো বোলারই ছিলেন না সুরক্ষিত। ভারতকে অনেক ম্যাচে ফিনিশারের ভূমিকায় থেকে জয় এনে দিয়েছেন। তার ব্যাটের ছোঁয়াতেই দল পেয়েছেন বিশ্বকাপের শিরোপা। তবে এতকিছুর পরও মহেন্দ্র সিং ধোনিকে নিয়ে এখন উঠছে ‘গেল গেল’ রব।

সৌরভের-বিশ্বাস-ঘুরে-দাঁড়াবেন-ধোনি
মহেন্দ্র সিং ধোনি। ©গেটি ইমেজ

এটি অবশ্য ওতটা অস্বাভাবিক কিংবা ‘অবিচার’ও নয়। পারফরম্যান্স না থাকলে কোনো খেলায়ই মূল্যায়ন করা হয় না। সেখানে ভদ্রলোকের খেলা খ্যাত ক্রিকেট তো আরও দলগত খেলা।

তাই ধোনিকে দল থেকে বাদ দেওয়ার শোরগোল পড়ছেই। ভারতের ক্রিকেট বিশ্লেষক সঞ্জয় মাঞ্জরেকার অবশ্য এতটা বেরসিক নন। তবে তার ভাষ্য, ধোনির উপর থাকা প্রত্যাশা কমানো উচিত সবার। এশিয়া কাপের ফাইনালে বাংলাদেশের বিপক্ষে ধীর ব্যাটিং করে দলকে বিপদে ফেলে দিচ্ছিলেন ধোনি। মাঞ্জরেকার ইঙ্গিত করেছেন সেদিকেও।

Advertisment

তবে ধোনিকে ২০১৯ বিশ্বকাপে দলের অবশ্যম্ভাবী অংশ বলেই মনে করেন মাঞ্জরেকার। তবে ধোনি যে এখন আর নিজের জায়গায় বিশ্বের সেরা ক্রিকেটারটি নন, ভারতীয় ক্রিকেট বিশ্লেষক আবারও স্বীকার করেছেন সেই নিষ্ঠুর সত্যটি। আর তাই ধোনির উপর থাকা প্রত্যাশা আরও কমিয়ে আনার পরামর্শ তার।

মাঞ্জরেকার বলেন, ‘২০১৯ বিশ্বকাপে অবশ্যই ধোনির থাকা উচিত। কিন্তু আমি অনেক দিন ধরেই বলছি, এ পর্যায়ে ধোনি আর বিশ্বসেরা নয়।’

মাঞ্জরেকারের মতে, ব্যাটিং লাইনআপে ধোনির জায়গা হওয়া উচিত আরও পরে। তাকে আরও পরে নামানো উচিতএশিয়া কাপ ফাইনালে কেদার যাদবের আগে ওর নামা ঠিক হয়নিকেদার ফর্মে থাকা ব্যাটসম্যান, পরিপূর্ণ ব্যাটসম্যানব্যাটসম্যান ধোনির কাছ থেকে প্রত্যাশা কমিয়ে ফেলুন।’

মাঞ্জরেকার আরও বলেন, ‘ধোনি খুব ভালো কিপার। এখনো তার দিকে সুযোগ এলেই সে স্টাম্পিং করে, ভরসা রাখার মতো এক কিপার। বিশ্বকাপের চাপে বিরাট কোহলিরও একজন সঙ্গী দরকার, ধোনির অনেক অভিজ্ঞতা। কিন্তু ওর ব্যাটিং নিঃসন্দেহে এখন প্রশ্নবিদ্ধ। ভারতের যদি ধোনির বিকল্প দুর্দান্ত কাউকে পাওয়ার সুযোগ থাকে, তাহলে এখনই খোঁজ শুরু করা উচিত।’

আরও পড়ুন: সহজ ম্যাচ কঠিন করে জিতল দক্ষিণ আফ্রিকা