নিরাপত্তা নিয়ে কোনো শঙ্কা নেই— জানালেন তামিম

ইস্টার সানডেতে শ্রীলঙ্কায় জঙ্গি হামলার পর থমকে গিয়েছিল দেশটির পথচলা। হুমকির মুখে পড়েছিল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট আয়োজনের বিষয়টিও। তবে বাংলাদেশের শ্রীলঙ্কা সফরের মধ্য দিয়ে ফের ক্রিকেট ফিরেছে দ্বীপদেশটিতে।

নিরাপত্তা নিয়ে কোনো শঙ্কা নেই— জানালেন তামিম

Advertisment

২৬ জুলাই থেকে শুরু হবে শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশের মধ্যকার ওয়ানডে সিরিজ। তার আগে সোমবার (২২ জুলাই) আনুষ্ঠানিকভাবে সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হন দুই দলের কোচ-অধিনায়করা। এ সময় বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক তামিম ইকবাল জানান, শ্রীলঙ্কায় নিরাপত্তা নিয়ে কোনো শঙ্কা নেই বাংলাদেশ দলের।

শ্রীলঙ্কা সফরে যাওয়ার আগে নিরাপত্তার বিষয়টি ভালো করে পর্যবেক্ষণ করেছে বিসিবি। সবুজ সংকেত পাওয়ার পরই দলকে পাঠান হয়েছে শ্রীলঙ্কায়। সেখানে খেলোয়াড়-কোচরা পাচ্ছেন সর্বোচ্চ নিরাপত্তা। আর এই নিরাপত্তা নিয়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন তামিম।

লঙ্কান বোর্ডকে ধন্যবাদ জানিয়ে তামিম বলেন, ‘তারা যেভাবে আমাদের দেখাশোনা করছে, এজন্য ধন্যবাদ দিতে চাই। আমাদের সর্বোচ্চ সুযোগ-সুবিধা দেওয়া হচ্ছে। কয়েক মাস আগের ঘটনাটার পর ভাবিনি আমরা শ্রীলঙ্কা সফর করতে পারব। দুই বোর্ড মিলে সফর বাস্তবায়ন করেছে।’

২০১৬ সালে জঙ্গি হামলার শিকার হওয়ার পর স্থবির হয়ে যেতে পারত বাংলাদেশও। কিন্তু শ্রীলঙ্কার মত আন্তর্জাতিক দলগুলোর সহযোগিতা বাংলাদেশে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের পথ রুদ্ধ হতে দেয়নি। সেই সময়ের কথা স্মরণ করে তামিম প্রকাশ করলেন ভ্রাতৃত্ববোধের বিষয়টি, ‘খুব বেশি আগের ঘটনা নয়- আমরাও এমন পরিস্থিতিতে ছিলাম। আমাদের দেশে ক্রিকেট ধরে রাখতে যারা সাহায্য করেছিল শ্রীলঙ্কাও তাদের কেউ। ক্রিকেটে আমরা সবাই একটা পরিবার। আমাদের এক পক্ষ আরেক পক্ষকে সহায়তা করতে হবে। এখানে স্বস্তিতেই আছি আমরা। দলের সবাই উপভোগ করছে, নিরাপদ বোধ করছে।’

‘আশা করি সিরিজ দারুণ হবে। দুটি দলই ভালো। আমাদের নিজেদের প্রমাণ করতে হবে।’– বলেন তামিম।

প্রথমবারের মত বিডিক্রিকটাইম নিয়ে এলো অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন। বাংলাদেশ এবং সকল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বল বাই বল লাইভ স্কোর, এবং সাম্প্রতিক নিউজ সহ সবকিছু এক মুহূর্তেই পাবেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় অনলাইন পোর্টাল BDCricTime এর অ্যাপে। অ্যাপটি ডাউনলোড করতে গুগল প্লে-স্টোর থেকে সার্চ করুন BDCricTime অথবা ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।