Scores

পরের ম্যাচে টাইগাররা টাইগারদের মতো খেলবেঃ সুজন

গত বছর বাংলাদেশ ক্রিকেটের জন্য এক স্মরণীয় বছর ছিলো। ক্রিকেট দুনিয়ার শক্তিশালী তিন দল পাকিস্তান, ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সহজেই সিরিজ জিতেছিলো টাইগাররা। তবে প্রায় ১০ মাস পর গতকাল (২৫ সেপ্টেম্বর) অপেক্ষাকৃত দুর্বল দল আফগানিস্তানের বিপক্ষে জিততে অনেক কষ্ট করতে হয়েছে টাইগারদের। আর এই জন্য দীর্ঘ বিরতির পর খেলাকেই কারণ হিসেবে দেখালেন বাংলাদেশ দলের ম্যানেজার খালেদ মাহমুদ সুজন।

khaled_mahmud

আগের বছরে বাংলাদেশের ফিল্ডিং নিয়ে অনেক প্রশংসা হয়েছিলো কিন্তু আফগানিস্তানের সাথে এই ম্যাচে পুরো উল্টো চিত্র দেখা যায়। এছাড়া সব বিভাগেই দুর্বলতা চোখে পড়ে। সোমবার মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে খালেদ মাহমুদ সুজন বলেন, “প্রথম ম্যাচে আমরা বোলিং, ব্যাটিং বা ফিল্ডিংয়ে নিজেদের একটু গুটিয়ে রেখেছিলাম। এটা হয়তো অনেকদিন পর ম্যাচ খেলার কারণে হয়েছে। তবে আমরা ভাগ্যবান যে আমরা ঘুরে দাঁড়িয়ে ম্যাচটা জিততে পেরেছি। আমার মনে হয় এ জয় আমাদের দারুণভাবে উজ্জীবিত করবে। গত বছর আমরা যেই ক্রিকেট খেলেছি এ জয় আমাদেরকে সেখানে ফিরে যেতে সাহায্য করবে।” 

Also Read - সব ভুল শুধরে দ্বিতীয় ম্যাচে ভয়ঙ্কর রূপে ফিরবে বাংলাদেশ


রবিবার ম্যাচ শেষে ভালো খেলার জন্য আন্তর্জাতিক ম্যাচের বিকল্প নেই বলে জানিয়েছেন ম্যাচের সেরা সাকিব আল হাসান। সেটিই উল্লেখ করে সুজন বলেন, “আন্তর্জাতিক ম্যাচ একটা আলাদা ম্যাচ, আপনি যতই ঘরোয়া ক্রিকেট খেলেন কিংবা অনুশীলন ম্যাচ খেলেন, আন্তর্জাতিক ম্যাচের আবহাওয়া তৈরি করতে পারবেন না।”

অনেকদিন পর ক্রিকেটে ফিরে শুরুতে একদম সুবিধা করতে না পারলেও ম্যাচের জয়ে বড় অবদান রেখেছেন তাসকিন আহমেদ ও রুবেল হোসেন। এই দুই পেসারকে নিয়ে বাংলাদেশের সাবেক অধিনায়ক বলেন, “তাসকিন ও রুবেল অনেক দিন পর এসেছে। প্রথম দিকে ভালো করতে পারেনি বলে হয়তো মনে হয়েছে। ভালো করলে বলা হতো না। তবে আশার কথা দলের প্রয়োজনীয় সময়ে তারা খুব ভালো বল করেছে। তারা পরিকল্পনা অনুযায়ী বল করেছে এটা খুব ভালো। ঐ যে বললাম রুবেল অনেক দিন পর ফিরে এসেছে, তাসকিনের একটা উৎকণ্ঠা ছিল। ওরা এসব কাটিয়ে কালকের প্রথম ম্যাচে খেলেছে, আমার মনে হয় পরের ম্যাচে এমন কোন সমস্যা থাকবে না।”

এদিকে টানা ব্যর্থ সৌম্য সরকার। ধারাবাহিকভাবে বাজে খেলে চলেছেন এই ক্রিকেটার। গত ম্যাচে আউট হয়েছেন শূন্য রানে। তবে সুজনের বিশ্বাস সৌম্যের ফিরতে একটি ম্যাচেই যথেষ্ট। সৌম্য সরকার প্রসঙ্গে বাংলাদেশ জাতীয় দলের ম্যানেজার বলেন, “ছোট বেলা থেকে দেখেছি, ‘ক্লাস ইজ পার্মানেন্ট, ফর্ম ইজ টেম্পোরারি।’ আমার মনে হয় সৌম্য একটা ক্লাস ব্যাটসম্যান। একটি ইনিংসের দরকার, ও তাতেই ঘুরে দাঁড়াবে। ও ইতোমধ্যেই প্রমাণ করেছে ও একজন ক্লাস ব্যাটসম্যান। আমরা ওকে নিয়ে চিন্তিত না। আমিসহ কোচিং স্টাফের সবাই বলেছে একটা ভালো ইনিংস খেললেই ও আবার ফিরে আসবে।”

আগে ব্যাটিং পেলে ৩০০ এর বেশি করতে চায় বাংলাদেশ। সুজন বলেন, “আমরা তো সাড়ে তিন’শ করতে চাই! তিন’শ বা যত রান বেশি করতে পারব তত আমাদের বোলারদের জন্য ভালো। অনুশীলনটার অভাব ছিল, আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলার অভাব ছিল; এ কারণে প্রথম ম্যাচে হয়নি। পরশুর ম্যাচে দেখতে পারব ইন শা আল্লাহ।”
আগের বছরের যেমন ক্রিকেট খেলেছে বাংলাদেশ, দলের কাছে তেমন পারফরম্যান্স চাইছেন খালেদ মাহমুদ সুজন। সামনের ম্যাচে টাইগারদের পরিকল্পনা প্রসঙ্গে সুজন বলেন, “ভয় ডরহীন ক্রিকেট খেলতে হবে। দশ মাস আগে আমরা যেভাবে ক্রিকেট খেলেছি সেভাবে খেলতে হবে। সবই ঠিক ছিল তবে সামান্য ভয় হয়তো কাজ করেছিল, সেটা আমি চাইনা। আমরা চাই ভয় ছাড়া ক্রিকেট। টাইগাররা টাইগারদের মতো খেলবে।”

উল্লেখ্য, বুধবার (২৮ সেপ্টেম্বর) সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে আফগানিস্তানের মুখোমুখি হবে টাইগাররা। সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ম্যাচ হবে ১ অক্টোবর। সিরিজের প্রতিটি ম্যাচের জন্য থাকছে একদিন করে রিজার্ভ ডে।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

সুজন পক্ষে, দুর্জয় বিপক্ষে

বিপিএলে কমছে খেলোয়াড়দের পারিশ্রমিকের পার্থক্য

‘অধিনায়কত্ব’ ইস্যুতে ভীষণ চটেছেন সুজন!

বিসিবির সাথে আলোচনা করতে ঢাকায় প্রোটিয়া কোচ

বিশ্বকাপের পারফরম্যান্সের রিপোর্ট এখনও পায়নি বিসিবি