পাকিস্তানি পেসাররা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের তারকা!

0
634

করোনার পর ইংল্যান্ড সফরে গিয়ে রীতিমত বিপাকে পড়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট দল। তিন ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট বৃষ্টির কারণে পণ্ড হলেও প্রথম ম্যাচ হেরে সিরিজে পিছিয়ে পাকিস্তান। তৃতীয় ও শেষ টেস্টেও ভরাডুবি সফরকারীদের। এজন্য পাকিস্তানি পেসারদের কাঠগড়ায় তুলছেন শোয়েব আখতার।

Advertisment

কোভিড-১৯ মহামারির ভয়াবহতা পাশ কাটিয়ে আবার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরেছে পাকিস্তান। তাদের সেই ফেরা সুখকর হতে দেয়নি ইংলিশরা। ৩ ম্যাচ টেস্ট সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে স্বাগতিকরা। যেখানে তৃতীয় ও শেষ টেস্টে মুখোমুখি দু’দল। এই ম্যাচেও একক আধিপত্য ইংল্যান্ডের।

সাউদাম্পটনে আগে ব্যাট করে পাকিস্তানি বোলারদের উপর ছড়ি ঘুরিয়েছে ইংলিশ ব্যাটসম্যানরা। দুই ব্যাটসম্যান জ্যাক ক্রলি ও জস বাটলারের অনবদ্য ব্যাটিংয়ের উপর ভর করে ৫৮৩ রানে নিজেদের প্রথম ইনিংস ঘোষণা করে ইংল্যান্ড। পুরো ইনিংস জুড়ে পাকিস্তানি পেসারদের একদম নির্বিষ লেগেছে।

অথচ এই সফরের আগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম জুড়ে বেশ আলোচনায় ছিল দেশটির পেস অ্যাটাক। যেখানে তরুণ বোলার নাসিম শাহকে নিয়ে মাতামাতিটা একটু বেশিই হচ্ছিল। সেই নাসিম ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ম্যাচে এখন পর্যন্ত মোটে ৪টি উইকেট পেয়েছেন। বাকিদের অবস্থাও সুখকর নয়।

এজন্য পাকিস্তানি পেসারদের কাঠগড়ায় তুলেছেন দেশটির সাবেক পেসার শোয়েব। যেখানে নাসিম, মোহাম্মদ আব্বাসদের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের তারকা বলে বিদ্রুপ করেন তিনি।

দুই দলের এই ম্যাচ নিয়ে জিও টিভিতে আলোচনা করতে গিয়ে শোয়েব বলেন, ‘নাসিমকে নিয়ে উন্মাদনা শুরু হয়েছে। সব মানলাম, কিন্তু আমাকে পারফর্ম দেখাও, পাঁচ উইকেট এনে দাও। এরা অবশ্যই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের তারকা। এরা কেউই প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটের কঠিন শিক্ষা পায়নি।’

‘এই সিরিজ শুরুর পূর্বে নাসিমকে নিয়ে যেই উন্মাদনা ছিল, এখন কি সেই উন্মাদনা আছে? পারফর্ম না করলে এমনই হয়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম দিয়ে তারকা হওয়া যায় না।’– সাথে যোগ করেন তিনি।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।