Scores

পাকিস্তানে খেলবেন সাকিব-তামিমরা?

ক্রিকেট বিশ্বের অন্যতম শক্তিশালী দল পাকিস্তান। তবে ঘরের মাঠে খেলা থেকে বঞ্চিত তারা। ৯ বছর ধরে পাকিস্তানের মাটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট হচ্ছে না। তবে দেশে ক্রিকেট ফেরাতে কম চেষ্টা করে নি পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। এবার হয়তো তাদের মুখে হাসি ফুটতে যাচ্ছে। পাকিস্তানের মাটিতে হতে পারে পিএসএল (পাকিস্তান সুপার লিগ) এর ম্যাচ।

ছবিতে সাকিব-তামিম-রিয়াদ-মুস্তাফিজ

 

পিএসএল পাকিস্তানের টি-টোয়েন্টি লিগ হলেও তা অনুষ্ঠিত হয় সংযুক্ত আরব আমিরাতে। নিজের দেশে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরানো প্রথম অংশ হিসেবে পিএসএলকেই টার্গেট করেছিল পিসিবি। তারই অংশ হিসেবে ২০১৮ সালে পিএসএলের কয়েকটি ম্যাচ পাকিস্তানের মাটিতে আয়োজন করতে চায় দেশটি। তবে প্রধান বাঁধা ছিল নিরাপত্তা।

Also Read - আবারো জাতীয় দলে ফেরার ব্যাপারে আশাবাদী নাফীস


ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলকে (আইসিসি) সন্তুষ্ট করতে উঠে-পড়ে লেগেছে পাকিস্তান। দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরের নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে কয়েক গুণ।
এদিকে পাকিস্তানের বর্তমান নিরাপত্তা ব্যবস্থা পর্যবেক্ষণ করতে আসেন আইসিসির নিরাপত্তা পরামর্শক রেগ ডিকাসন। পর্যবেক্ষণ শেষে পাকিস্তানীদের জন্য দারুণ সংবাদ শুনিয়েছেন ডিকাসন। নিরাপত্তা ব্যবস্থাকে এক শব্দে ডিকাসন বলেন, ‘অসাধারণ।’

তবে এটিই মূল রিপোর্ট নয়। নিরাপত্তা নিয়ে আগামী সাত দিনের মধ্যে আইসিসি চুড়ান্ত রিপোর্ট দিবে। এরপর মার্চে নিরাপত্তার আর একটি মহড়া অনুষ্ঠিত হবে। সেটিতেও নজর থাকবে আইসিসির। ২০১৮ সালে পিএসএলের ফাইনালসহ তিনটি ম্যাচ আয়োজন করতে চাইছে পিসিবি।

এর আগের আসরেও এমন পরিকল্পনা ছিল পিসিবির। তবে পিএসএলের ফাইনাল ম্যাচ পাকিস্তানে অনুষ্ঠিত হলেও ফাইনাল থেকে কেভিন পিটারসেন সহ আরও কয়েকজন বড় তারকা নিজেদের নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছিলেন। তবে এবার আরও বড় পরিকল্পনায় পিসিবি। সেক্ষেত্রে পাকিস্তানে খেলতে দেখা যেতে পারে বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের।

এবারের পিএসএলের আসরে দেখা যাবে ৪ জন বাংলাদেশী ক্রিকেটার। এরা হলেন- সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ও মুস্তাফিজুর রহমান।

সাকিব আল হাসান গত আসরে খেলেছিলেন পেশোয়ার জালমির হয়ে। নিলামের আগেই সাকিবকে ফের রেখে দিয়েছিল দলটি। একই ব্যাপার ঘটেছিল গত আসরে কোয়েটা গ্ল্যাডিয়েটর্সে খেলা মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের ক্ষেত্রেও। নিলামে তাই মূল্য পেয়েছেন তামিম ও মুস্তাফিজই। তামিমকে নিলামের জন্য ছেড়ে দিলেও আবারও দলে টেনে নিয়েছে তার পুরনো দল পেশোয়ার জালমি। গত আসরের মতো এবারও তাই একই দলে খেলবেন দুই বন্ধু সাকিব ও তামিম। এদিকে মুস্তাফিজুর রহমানকে দলে টেনেছে গত আসরের আলোচিত দল লাহোর কালান্দার্স। সাকিব, তামিম, রিয়াদ, মুস্তাফিজ চার জনই ছিলেন ডায়মন্ড ক্যাটাগরিতে। এই ক্যাটাগরির খেলোয়াড়ের মূল্য ৭০ হাজার ইউএস ডলার। যা বাংলাদেশী টাকায় প্রায় ৫৭ লক্ষ।

[আরও পড়ুনঃ র‍্যাংকিংয়ে অবনতি ব্যাটসম্যানদের, উন্নতি বোলারদের]

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

তামিমের অনুপস্থিতির সুযোগ নিতে চান জহুরুল

ক্যাম্প থেকে খোঁজা হবে তামিমের বিকল্প

ক্রিকেটারদের ঈদ

আফগান সিরিজে তামিমকে পাচ্ছে না বাংলাদেশ

বিশ্রাম চেয়েছেন সিনিয়র ক্রিকেটাররা